Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার ২৬ জুন ২০১৯, ১২ আষাঢ় ১৪২৬, ২২ শাওয়াল ১৪৪০ হিজরী।

অন্ধকারের রাজনীতি অন্ধকারের অর্থনীতির জন্ম দিচ্ছে

পণ্যমূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে সিপিবির সমাবেসে সেলিম

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২২ জানুয়ারি, ২০১৯, ১২:২৩ এএম

আওয়ামী লীগ জনগণের ভোট ডাকাতির মতো সম্পদ ডাকাতি করতে চায় বলে মন্তব্য করেছেন সিপিবি সভাপতি মুজাহিদুল ইসলামে সেলিম। তিনি বলেন, রাতের অন্ধকারে ভোট ডাকাতির মাধ্যমে জনগণের ভোটাধিকারকে পদদলিত করা হয়েছে। ভুয়া ভোট করে সরকার জনগণের ভোটের অধিকার কেড়ে নিয়েছে। এখন সরকার জনগণের ভাতের অধিকারও কেড়ে নিচ্ছে। গণবিরোধী অন্ধকারের রাজনীতি এখন অন্ধকারের অর্থনীতির জন্ম দিচ্ছে। গতকাল জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে অনুষ্ঠিত সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন। চালসহ নিত্যপণ্যের মূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে সিপিবি এই সমাবেশের আয়োজন করে।
মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম আরও বলেন, জনসমর্থনের তোয়াক্কা না করে ক্ষমতা টিকিয়ে রাখতে লুটেরা ধনিক শ্রেণিকে সুবিধা পাইয়ে দিতে সরকার নানা গণবিরোধী তৎপরতা চালাচ্ছে। জনগণের বিপক্ষে দাঁড়িয়ে দুর্নীতিবাজ, লুটেরাদের স্বার্থ রক্ষা করছে শেখ হাসিনার সরকার। সরকারের সক্রিয় সহযোগিতায় অসাধু ব্যবসায়ীরা সিন্ডিকেট করে বাজার নিয়ন্ত্রণ করছে। সরকার বলেছে যেভাবে ‘শান্তিপূর্ণভাবে’ ভোট হয়েছে, তেমনি ‘শান্তিপূর্ণভাবে’ই আগামীতে দেশ চালাবে। সরকারের এই কথা থেকেই বোঝা যায় যেভাবে ভোট ডাকাতি হয়েছে তেমনি করেই সরকার আগামীতে জনগণের সম্পদ ডাকাতি করতে চায়।
সরকারের গণবিরোধী তৎপরতার বিরুদ্ধে তীব্র আন্দোলন গড়ে তোলার আহ্বান জানিয়ে সিপিবি সভাপতি বলেন, জনগণকে সবসময় সজাগ থাকতে হবে। জমি বন্ধক রাখা যায়, কিন্তু স্বার্থ কখনও বন্ধক রাখা যায় না। লড়াইয়ের মাধ্যমেই সরকারকে যথাযথ জবাব দিতে হবে। দলের সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ শাহ আলম বলেন, মুক্তিযুদ্ধের অর্থনীতির বিপরীতে দেশ এখন চলছে মুক্তবাজার অর্থনীতিতে। মুক্তিযুদ্ধের ধারায় দেশকে ফিরিয়ে আনতে হবে। ভোট ও ভাতের অধিকার আদায় করতে নীতি ও ব্যবস্থার বদল ঘটাতে হবে।
সমাবেশে নেতৃবৃন্দ নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের দাম কমানো এবং জনগণের স্বার্থে বাজার নিয়ন্ত্রণের জন্য মজুদদার-মুনাফাখোরদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানান। একইসঙ্গে নেতৃবৃন্দ রেশনিং ও গণবণ্টনব্যবস্থা চালুর দাবি জানান। সমাবেশে বক্তব্য রাখেন দলটির কেন্দ্রীয় নেতা রুহিন হোসেন প্রিন্স, ডা. ফজলুর রহমান, ডা. সাজেদুল হক রুবেল, অনিরুদ্ধ দাশ অঞ্জন প্রমূখ। ##

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ