Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার ১৯ জুন ২০১৯, ৫ আষাঢ় ১৪২৬, ১৬ শাওয়াল ১৪৪০ হিজরী।

যাত্রাবাড়ীতে বাসায় ঢুকে ভ্যানচালককে খুন

বারান্দা থেকে পড়ে স্কুলছাত্রীর মৃত্যু

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৫ জানুয়ারি, ২০১৯, ১২:০৬ এএম

রাজধানীর যাত্রাবাড়ীতে বাসায় ঢুকে ইসমাইল ফারাজী (৫৬) নামে এক ভ্যান চালককে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। হত্যার পর দুর্বৃত্তরা বাসার বাইরে তালা ঝুলিয়ে চলে যায়। পরে নিহতের ছেলে গিয়ে বাসার দরজার তালা খুলে খাটের নিচ থেকে বাবার লাশ উদ্ধার করে। গত সোমবার রাত ৮টার দিকে যাত্রাবাড়ীর বিবিরবাগিচার ১ নম্বর গেটের ১/১/বি নম্বর বাড়ির তৃতীয় তলার ফ্ল্যাট থেকে ইসমাইলের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। এদিকে, পৃথক ঘটনায় লালবাগের নবাবগঞ্জে একটি বাসার বারান্দা থেকে নিচে পরে আফিয়া বিনতে আলমাস (১৩) নামে এক স্কুলছাত্রী মারা গেছে।
নিহতের পুত্রের বরাত দিয়ে যাত্রাবাড়ী থানার ওসি কাজী ওয়াজেদ আলী বলেন, গতকাল রাত ৮টার দিকে নাজিম বাসায় ফিরে দেখেন দরজায় তালা ঝুলছে। তিনি দরজা খুলে ভেতরে প্রবেশ করে দেখেন বেডরুমের খাটের নিচে তার বাবার লাশ পড়ে আছে। পরে তিনি চিৎকার করলে আশপাশের লোকজন ছুটে আসে। বিষয়টি পুলিশকে অবহিত করলে যাত্রাবাড়ী থানা পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের মর্গে পাঠায়।
লাশের সুরতহালের রিপোর্টের বর্ণনা দিয়ে ওসি বলেন, ইসমাইল ফারাজীকে গলায় গামছা পেঁচিয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে। এছাড়া তার মাথায় ভারি আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, দুর্বৃত্তরা তাকে হত্যা করে লাশ খাটের নিচে রেখে দেয়। পরে দরজায় তালা ঝুলিয়ে পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় নিহতের ছেলে বাদী হয়ে একটি মামলা করেছেন। গতকাল রাত পর্যন্ত জড়িত কাউকে আটক করা যায়নি। পুলিশ ঘটনার সাথে জড়িতদের আটকের চেষ্টা করছে।
এদিকে, রাজধানীর লালবাগের নবাবগঞ্জে চারতলার একটি বাসার বারান্দা থেকে নিচে পড়ে আফিয়া বিনতে আলমাস নামে এক স্কুলছাত্রীর মৃত্যু হয়েছে। গত মঙ্গলবার রাত ১০টার দিকে নবাবাগঞ্জ এলাকার ৬৯ নম্বর রোডের প্রথম লেনের ৭ নম্বর বাসায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।
মৃত স্কুলছাত্রীর চাচা আবু দারদা শিশির বলেন, রাতে বাসার বারান্দায় খেলা করার সময় রেলিংয়ের উপর থেকে নিচে পড়ে যায় আফিয়া। পরে তাকে উদ্ধার করে ঢামেক হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। আফিয়া আজিমপুর অগ্রণী স্কুলের অষ্টম শ্রেণিতে পড়ে। তিনি ভাইবোনের মধ্যে মেঝো সে। তার বাবার নাম আলমাস হোসেন বাবলু। গতকাল ময়নাতদরন্ত শেষে লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: খুন


আরও
আরও পড়ুন