Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ অক্টোবর ২০১৯, ০৬ কার্তিক ১৪২৬, ২২ সফর ১৪৪১ হিজরী

বাঘ পালানো মাঘের শীত উধাও

এমনকি ঘামছে মানুষ

চট্টগ্রাম ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ২৬ জানুয়ারি, ২০১৯, ১২:১১ এএম

প্রায় মাঝভাগে এসে পড়েছে মাঘ মাস। ‘বাঘ পালানো মাঘের শীত’ দূরে থাক মাঘের স্বাভাবিক শীতও উধাও। এমনকি প্রায় কুয়াশা বিহীন ও মেঘমুক্ত দিনের বেলায় তীর্যক সূর্যের তাপে মানুষ কোথাও কোথাও ঘামাচ্ছে। গতকাল (শুক্রবার) দেশের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল সীতাকুণ্ডে ৩১.১ ডিগ্রি সেলসিয়াস।
এ সময় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল শ্রীমঙ্গল ও রাজারহাটে ১১.২ ডিগ্রি সে.। গতকাল ঢাকার তাপমাত্রা ছিল সর্বোচ্চ ৩০.২ এবং সর্বনিম্ন ১৬ ডিগ্রি সে.। চট্টগ্রামে সর্বোচ্চ ২৯.৩ এবং সর্বনিম্ন ১৫.৭ ডিগ্রি সে.। যা মৌসুমের বর্তমান সময়ের স্বাভাবিক তাপমাত্রার চেয়ে পারদ রয়েছে বেশ উঁচুতে।
আজ (শনিবার) সন্ধ্যা পর্যন্ত ২৪ ঘণ্টার পূর্বাভাসে জানা গেছে, রাজশাহী ও রংপুর বিভাগের দু-এক জায়গায় হালকা বৃষ্টি অথবা গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টিপাত হতে পারে। এছাড়া দেশের অন্যত্র অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা আকাশসহ আবহাওয়া শুষ্ক থাকতে পারে। শেষরাত থেকে সকাল পর্যন্ত দেশের কোথাও কোথাও হালকা থেকে মাঝারী ধরনের কুয়াশা পড়তে পারে।
রংপুর ও রাজশাহী বিভাগে রাতের তাপমাত্রা সামান্য বৃদ্ধি পেতে পারে। দেশের অন্যত্র তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে। রংপুর ও রাজশাহী বিভাগে দিনের তাপমাত্রা সামান্য হ্রাস পেতে পারে। দেশের অন্যত্র তাপমাত্রা প্রায় অপরিবর্তিত থাকতে পারে। আগামী ৪৮ ঘণ্টায় রাতের তাপমাত্রা বৃদ্ধি পেতে পারে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ