Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার ১৮ জুন ২০১৯, ৪ আষাঢ় ১৪২৬, ১৪ শাওয়াল ১৪৪০ হিজরী।

বগুড়ায় লাশ দেখে সন্তানের ফোন ‘মা বিদেশ চলে গেছে’

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:০৪ এএম

বিদেশ যাচ্ছেন বলে দুই শিশু সন্তানের কাছ থেকে বিদায় নিয়ে, তাদেরকে ঘুম পাড়িয়ে বগুড়ায় আত্মহত্যা করলেন মৌসুমী বেগম (২৬)। তিনি শাজাহানপুর উপজেলার কচুয়াদহ গ্রামের রাজমিস্ত্রি আব্দুল বাকির স্ত্রী। গত বৃহষ্পতিবার রাতে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন দুই সন্তানের এই জননী। গতকাল শুক্রবার সকালে তার ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ।

মৌসুমী বেগমের বড়ভাই রেজাউল করিম জানান, তার ভগ্নিপতি আব্দুল বাকি রাজমিস্ত্রির কাজে বেশিরভাগ সময় বাড়ির বাইরে থাকতেন। ঘরে থাকতের তার বোন ও দুই পুত্র সন্তান মুশফিক (৮) এবং আবু তালহা (৫)। তাদের সংসারে তেমন কোন সমস্য ছিল না বলেই জানে সবাই। শুক্রবার সকালে বড় ছেলে মুশফিক তার নানাকে ফোন করে বলে ‘নানা, মা বিদেশ চলে গেছে, তাড়াতাড়ি এসো।’
ফোন পেয়ে দ্রæত তারা চলে এসে মৌসুমীর লাশ দেখে পুলিশকে খবর দেন। তার দুই পুত্র সন্তান জানায়, রাতে তাদেরকে পাশের ঘরে শুইয়ে রেখে মৌসুমী বলেছিলেন, ‘বাবা, তোমরা ঘুমাও। আমি বিদেশ চলে যাচ্ছি।’

প্রতিবেশীরা জানান, মৌসুমী বেগম খুবই ভালো মানুষ। তাদের সুখের সংসার। কারো সাথে কোনো দ্ব›দ্ব নেই। আত্মহত্যা করার মতো কিছু কারো চোখে পড়েনি।

শাহজাহানপুর থানার এসআই রুম্মান হাসান জানান, স্থানীয়দের কাছ থেকে খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। পরে পোস্টমর্টেম শেষে স্বজনদের হাতে লাশ হস্তান্তর করা হয়েছে। এখন পর্যন্ত আত্মহত্যার কোনো কারণ খুঁজে পাওয়া যায়নি।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ