Inqilab Logo

ঢাকা, শনিবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৬ আশ্বিন ১৪২৬, ২১ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী

বিপাকে আট এজেন্সীর হজযাত্রীরা

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৫ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:০৩ এএম

ধর্ম মন্ত্রণালয় আটটি হজ এজেন্সীর সাথে দ্বি-পাক্ষিক হজ চুক্তি করতে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে। ফলে এসব হজ এজেন্সীর মাধ্যমে নিবন্ধনকৃত হজযাত্রীরা বিপাকে পড়েছেন। উল্লেখিত হজ এজেন্সীগুলোর হালনাগাদ ট্রাভেল লাইসেন্সের কপি জোগাড় করতে না পারায় তাদের সাথে চুক্তি করতে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। গতকাল সোমবার রাতে আশকোণাস্থ হজ অফিসের পরিচালক হজ মো. সাইফুল ইসলাম এ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। ধর্ম মন্ত্রণালয়ের সহকারী সচিব (হজ) এস এম মনিরুজ্জামান গতকাল এক সার্কুলারে এ নিষেধাজ্ঞা জারি করেন।
পরিচালক হজ বলেন, উল্লেখিত হজ এজেন্সীগুলো বেসারমিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয় থেকে হালনাগাদ ট্রাভেল লাইসেন্স এখনো জোগাড় করতে পারেনি। সে জন্য গত ২৪ জানুয়ারী ধর্ম মন্ত্রণালয় থেকে ২য় পর্বে ২শ ৮৫টি হজ এজেন্সীর তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। উক্ত তালিকায় এসব হজ এজেন্সীর নাম প্রকাশ করা হয়নি। চুক্তি না করতে নিষেধাজ্ঞা জারিকৃত হজ এজেন্সীগুলো হচ্ছে, খান ট্রাভেলস এন্ড ট্যুরস, ঢাকা ট্রেড ট্যুরস এন্ড ট্রাভেলস, এয়ার টাইমস ইন্টারন্যাশনাল, আনছারী ওভারসীজ, জান্নাতুল খুলদ ট্যুরস এন্ড ট্রাভেলস, দি আরাফাহ এয়ার ইন্টারন্যাশনাল, সৈয়দ এভিয়েশন সার্ভিসেস, ইয়ামিন ইয়াদীন ট্রাভেলস এন্ড ট্যুরস (কেরাণীগঞ্জ) ।
পরিচালক হজ সাইফুল ইসলাম নিষেধাজ্ঞা প্রসঙ্গে বলেন, এখনো সময় আছে এসব হজ এজেন্সী বিমান মন্ত্রণালয় থেকে ট্রাভেল লাইসেন্স জোগাড় করে আনতে পারবে। যদি তারা হালনাগাদ ট্রাভেলস লাইসেন্স আনতে না পারেন তা হলে এসব হজ এজেন্সীর হজযাত্রীদের অন্য বৈধ হজ এজেন্সীর মাধ্যমে হজে যেতে হবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: হজ

২৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯
২০ আগস্ট, ২০১৮

আরও
আরও পড়ুন