Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৯, ০২ কার্তিক ১৪২৬, ১৭ সফর ১৪৪১ হিজরী

ঢাকাকে গুড়িয়ে চ্যাম্পিয়ন কুমিল্লা

ইমরান মাহমুদ, মিরপুর থেকে | প্রকাশের সময় : ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:২৫ এএম | আপডেট : ১২:২৫ এএম, ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯

শুরুটা হয়েছিল ধীর। সময়ের সাথে সাথে হয়েছেন পরিণত। ব্যাটেও ফিরেছে ধার। আর সেই ধারেই কচুকাটা ঢাকা ডায়নামাইটস বোলাররা। সাকিব-রুবেল-নারাইনদের তুলোধুনা করে সেঞ্চুরি তুলে নিলেন তামিম ইকবাল। তার বিদ্ধংসী ব্যাটে চড়ে ৩ উইকেট হারানো কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স তোলে ১৯৯। শিরোপা জিততে হলে তিন বারের চ্যাম্পিয়নদের করতে হতো কাঁটায় কাঁটায় ২০০। তবে উড়ন্ত শুরুর পরও বাকিদের আসা-যাওয়ার মিছিলে ৯ উইকেটে ১৮২ রান তুলতে সক্ষম হয় ঢাকা ডায়নামাইটস। ১৭ রানের রোমাঞ্চকর জয় দিয়েই তৃতীয়বারের মত বিপিএলের শিরোপাউল্লাসে মাতে কুমিল্লা।
গতকাল মিরপুর শেরে বাংলা স্টেডিয়ামের ফাইনালের আগে আলোচনায় ছিলেন দুই দলের অলরাউন্ডাররা। হবারই কথা। একদিকে ঢাকার ঢাল আন্দ্রে রাসেল, কাইরন পোলার্ড, সুনীল নারিন ও অধিনায়ক সাকিব আল হাসান নিজে। প্রায় প্রতি ম্যাচেই এ চার জনের কেউ না কেউ জ্বলে উঠছেন। জয়ের মূলনায়কও হয়েছেন। ঠিক তেমনি ভিক্টোরিয়ান্স শিবিরেও আছেন থিসারা পেরেরা, শহীদ আফ্রিদি, মোহাম্মদ সাইফউদ্দিনের মতো অলরাউন্ডাররা। দলের জয়ে প্রত্যক্ষ ভূমিকা রেখেছেন প্রত্যেকে। তবে দিনটি যেদিন নিজের করে নেবেন বলে ব্রত নেন, তামিম সেদিন হোম অব ক্রিকেট ভুলিয়ে তোলেন আপন আলোয়। হয়েছেও তাই। দারুণ এক সেঞ্চুরিতে প্রথমবারের মত ফাইনালে নাম লিখিয়েই চ্যাম্পিয়নের স্বাদ পেলেন তামিম। ফাইনাল সেরার পুরস্কারও ওঠে আসরের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৪৬৭ রান করা এই ওপেনারের হাতেই।
তবে টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুটা ভালো হয়নি ইমরুল কায়েসের দলের। দলীয় মাত্র ৯ রানেই বিদ্ধংসী ওপেনার এভিন লুইসকে হারায় কুমিল্লা। রুবেলের এলবির আবেদনে সাড়া দিয়ে কাতে আউট দেন আম্পায়ার। পরে রিভিউ নিয়েও বাঁচতে পারেন নি এই ক্যারিবিয়। ৭ বল খেলে একটি চারে করেছেন মাত্র ৬ রান। আরেক পাশে ব্যাটিংয়ে বাংলাদেশের স্তম্ভ, দেশসেরা ওপেনার তামিমের শুরুটাও কিন্তু হয়েছিল ধীর। দেখে শুনে খেলেছেন প্রথম পাওয়ার প্লে পর্যন্ত। লুইসের দ্রুত বিদায়ে সেই চাপ বাড়ে আরো। এনামুল হক বিজয়ও খেলছিলেন সন্তর্পণে। তবে সাকিবের বলে এলবিতে কাটা পড়ার আগে ৩০ বল খেলে করেছেন ২৪ রান। পরের বলেই ক্রিজে আসা শামসুর রহমান শুভকে দারুণ ক্ষীপ্রতায় রান আউটের ফাঁদে ফেলেন সাকিব।
অপরপ্রান্তে ছটফট করতে থাকা তামিম রান বাড়ানো তাগিদেই কিনা মারতে গিয়ে একটুর জন্য আউট হওয়া থেকে বেঁচেছেন দু’বার।
ফিফটির পথেই একবার রুবেলের বলে ব্যাট ছুঁয়ে বল যায় উইকেটের পেছনে, তবে তা গ্লাভসবন্দী করতে পারেন নি নুরুল হাসান সোহান। একটু পরই ফাইন লেগে উড়িয়ে মারা বল দৌড়ে এসেও একটুর জন্য তালুবন্দী করতে পারেননি আন্দ্রে রাসেল। তবে ধৈর্য্য ধরেছেন, ফলও পেয়েছেন। সময়ের সাথে সাথে হাত খুলেছেন, বাজে বলে মেরেছেন যেদিকে খুশি সেদিকে। ৩১ বলে ফিফটি তুলেছিলেন ৫টি চার ও ৩টি ছক্কায়। তারপরই যেন ভিন্ন তামিম। খোলশ ছেড়ে বেড়িয়েই ফনা তুলেছেন সাকিব, নারাইন আর রুবেলদের উপর। ছড়ি ঘুড়িয়ে ছক্কার পর ছক্কায় মাতিয়েছেন মিরপুরের কানায় কানায় পূর্ণ গালারি। ৫০ বলে তুলেছেন সেঞ্চুরি। শেষ পর্যন্ত ব্যাট ক্যারি করে অপরাজিত ছিলেন ১৪১ রানে। বিপিএলের ইতিহাসে যা দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ইনিংস। গত আসরের ফাইনালে এই ঢাকার বিপক্ষেই ১৪৬ রানের ঝড়ো ইনিংস খেলেছিলেন চ্যাম্পিয়ন রংপুর রাইডার্সের ক্রিস গেইল। মাঠ ছাড়ার সময় তামিমেও ৬১ বলের ইনিংসটি জ¦লজ¦লে ১০টি চার ও ১১টি ছক্কায়। ৪র্থ উইকেটে ৪৫ বলে ১০০ রানের অবিচ্ছিন্ন জুটিতে ইমরুলের অবদান ২১ বলে ১৭!
প্রথম ওভারের দ্বিতীয় বলেই রান আউটে সুনীল নারাইনের বিদায়ে শুরুতেই ধাক্কা খায় বড় লক্ষ্য তাড়া করতে নামা ঢাকা। সেখান থেকে দুর্দান্ত এক ঝড়ো জুটিতে ম্যাচে ফেরান রনি তালুকদার ও উপুল থারাঙ্গা। ৪৮ রানে থারাঙ্গার বিদায়ে ভাঙে ১০ ওভার দীর্ঘ ১০২ রানের জুটি। ২৭ বলে লঙ্কান এই ওপেনার মারেন ৪টি চার ও ৩টি ছক্কা। এরপরই লাগে মড়ক।
মাত্র ৫ বল টিকতে পারেন সাকিব। ঢাকা অধিনায়ক ফেরেন মাত্র ৩ রানে। সেই শোকেই কিনা দারুণ খেলতে থাকা রনিও কাটা পড়েন রান আউটে। তবে তার আগে ৩৮ বলে ৬৬ রানের ইনিংসে দলকে দিয়ে গেছেন পথের দিশা। কিন্তু বাকিদের আসা-যাওয়ার মিছিলে বারবারই ম্যাচ থেকে ছিটকে গেছে আসরের সবচেয়ে সফল দলটি। পোলার্ডও ঝড়ের আভাস দিয়ে ফিরে যান একটি বরে চার-ঝক্কায় ১৩ রান যোগ করে। প্রায় প্রতি ম্যাচেই কিছু না কিছু অবদান রাখা আন্দ্রে রাসেলও (৩) কিছু করতে পারেননি এদিন। শুভাগত হোম এলেন আর গেলেন।
আগের বলেই জীবেন পেয়েছেন, বাউন্ডারিতে তার উড়িয়ে মারা বল হাত ছুঁইয়ে সীমানা পার করেছেন থিসারা। পরের বলেই প্যাভিলিয়নের পথে সোহান। ১৫ বলে ১৮ রানে ফেরেন ঢাকা উইকেটরক্ষক। বিজয়-তামিমদের বিজয়োল্লাসে থামে ঢাকার পথচলা।



 

Show all comments
  • রিদওয়ান বিবেক ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৩৯ এএম says : 0
    রনি তালুকদারের ফাইনালের প্রেসার হ্যান্ডেল করেও অতি সাবলীলভাবে খেলা ভালো লেগেছে।
    Total Reply(0) Reply
  • md younoch ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৩৯ এএম says : 0
    এবারের বিপিএলে তামিম ও আয়োজকদের পারফরম্যান্স একই সমান্তারালে এগিয়েছে। শুরুটা কতই বাজেই না ছিল আর শেষটা কি দুর্দান্তই না হলো। তাই এমন চোখ ধাঁধানো ফাইনালের জন্য তামিম ও আয়োজকদের ধন্যবাদ।
    Total Reply(0) Reply
  • Alamin Bhuiyan ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৩৯ এএম says : 0
    অভিনন্দন কুমিল্লা বেকটুরিয়ানস টিমকে ।
    Total Reply(0) Reply
  • SuMon Dx ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৩৯ এএম says : 0
    জিতল কুমিল্লা দেখল দেশ হারলো ঢাকা লাগলো বেশ
    Total Reply(0) Reply
  • নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪০ এএম says : 0
    congrats cumilla
    Total Reply(0) Reply
  • Bipul Khan ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪০ এএম says : 0
    Thanks god...there is no Bangladeshi umpire on field in final...If they then Dhaka will win...time to protest against corruption and swipe out corrupted person from board...
    Total Reply(0) Reply
  • Shafiqul Islam ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪১ এএম says : 0
    অভিনন্দন তামিম ইকবালকে ।
    Total Reply(0) Reply
  • Tareq Aziz ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪১ এএম says : 0
    নিজের প্রিয় খেলোয়াড় যখন ট্রপি জিতে যায়, সেঞ্চুরি করে ফেলে, ম্যান অফ দ্যা ম্যাচ ও হয়! এর চেয়ে ভালো অার কি লাগে
    Total Reply(0) Reply
  • Moin Ahmed ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪২ এএম says : 0
    বুমবুম তামিম। তামিম ইকবাল তার খেলোয়াড়ি জীবনে অনেক কিছুই অর্জন করেছেন, পেয়েছেন। কিন্তু কেন জানি বিপিএলে কোন বড় অর্জন হচ্ছিলো না। আজ বিপিএলে কুমিল্লাকে চ্যাম্পিয়ন করে তার আরেকটি বিরাট অর্জন সম্পন্ন হলো। বিপিএলের ফাইনালে এতোদিন সব আলো কেড়ে নিতো বিদপশীরা। কিন্তু এবারের ফাইনালে ব্যাটিংয়ে তামিম ইকবালের টর্নেডোময় সেঞ্চুরী এবং ফিল্ডিংয়ে সাকিব, রাসেলের কঠিন ক্যাচ ধরে সব আলো তার দিকে কেড়ে নিলেন। এমনকি মাঠে কিন্তু আজ প্রকৃত ক্যাপ্টেন তামিমই ছিলো। এছাড়া পুরো বিপিএলে কুমিল্লার দেশীয় কোচ সালাউদ্দীনের ডাগআউট থেকে নানা নির্দেশনাও দলটির সাফল্যে বিরাট ভুমিকা রেখেছে। এছারা সাইফুদ্দীন ও মেহেদি হাসান এবার কুমিল্লার হয়ে বেশ ভালো অবদান রেখেছে। অভিনন্দন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। অভিনন্দন সব দলের মালিক ও ম্যানেজমপন্ট এবং বিসিবিকে। কারণ শুরুতে কিছু ভুল-ভ্রান্তি থাকলেও এ যাবত এটাই ছিলো বিপিএলের সেরা আসর।
    Total Reply(0) Reply
  • Sharmin Nasrin ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪২ এএম says : 0
    যারা অাজকে ভাবছিলো কুমিল্লা হারবে তাদের জন্য ২ মিনিট নীরবতা
    Total Reply(0) Reply
  • Pacific Raju ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪২ এএম says : 0
    হারলো ঢাকা দেখলো দেশ। কুমিল্লা জিতলো বিপিএল , এইভাবেই হলো এবারের টুর্নামেন্ট শেষ। Congratulations Comilla Victoria's Winner Of BPL 2019
    Total Reply(0) Reply
  • Biplab Jbl ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪৩ এএম says : 0
    অভিনন্দন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়াস।অভিনন্দন আমাদের চট্টগ্রামের ছেলে তামিম ইকবালকে।
    Total Reply(0) Reply
  • Jashim Uddin ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪৩ এএম says : 0
    তামিম ইকবাল যিনি পাঁচ ওয়াক্ত নামায পড়েন ৪ বার হজ্ব করেছেন, যার টাকায় চট্টগ্রামের ৩ টি এতিমখানা চলে,যিনি পর্দাশীল মেয়েকে স্ত্রী হিসেবে বেঁছে নিয়েছেন, মহান আল্লাহ্ পাক তো তার পক্ষেই থাকবে,অাল্লাহ্ আমার সবচেয়ে, প্রিয় প্লেয়ার তামিম ভাইকে আরো খ্যাতি, যশ, ঐশ্বর্য, ধন দৌলত দান করুক, আমিন।
    Total Reply(0) Reply
  • Aminul Islam Sumon ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪৩ এএম says : 0
    আবারও প্রমানিত কুমিল্লা-ই সেরা। অভিনন্দন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ানস । অভিনন্দন তামিম ইকবাল।
    Total Reply(0) Reply
  • Bilal Hossain ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪৪ এএম says : 0
    বিপিএল। তামিম ইকবাল কিন্তু এম পি সাহেব ও হবু এম পি সাহেবদের ট্রফি থেকে বঞ্চিত করলেন।
    Total Reply(0) Reply
  • KH A L ED ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪৪ এএম says : 0
    কি ঢাকা বাসি কেমন লাগছে কুমিল্লার রসমালাই?? বহুত লাপালাপি করচো ঢাকাইয়া বিরিয়ানি নিয়া?? এখন লও ঠ্যালা!!
    Total Reply(0) Reply
  • Md Hasan ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪৪ এএম says : 0
    একজন সফল এমপি হওয়ার জন্য পীর বাবা মাশরাফিকে এই ট্রফি দেওয়া দাবী জানাই৷
    Total Reply(0) Reply
  • Rony Ahmed ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪৫ এএম says : 0
    আমরা ঢাকার হয়ে সাকিব আল হাসান কে ঢাকা প্রিমিয়ার লীগে আর দেখতে চাইনা। ওরে অবিলম্বে খুলনা বদলি করে দেওয়া হোক। এই শাকিব যে লীগের হয়ে খেলবে সেই লীগ আর চ্যাম্পিয়নশিপ হতে পারবে না। বাংলাদেশ যে পর্যন্ত ওই আছে বাংলাদেশও পারবে না। ও কুফা। এতো সুন্দর করে ম্যাচটা বের করে এনেছিল। ওই এসে সব শেষ করে দিয়েছে। আর আকাটারে কি আর বলব সুনীল নাড়িনের কথা। ওর মুখে তো কোনো দিন হাসিই দেখিনি
    Total Reply(0) Reply
  • Asraful Islam ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪৬ এএম says : 0
    অসাধারণ একটা ফাইনাল দেখলাম বাঙালি ব্যাটসম্যানরা রান করবে এটাই তো বিপিএলের মজা। সেটা তামিম মুশফিক মাহমুদুল্লাহ সাকিব মাশরাফি যেই হোক।
    Total Reply(0) Reply
  • মোঃ আরিফুল ইসলাম ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪৬ এএম says : 0
    অভিন্দন কুমিল্লা। ❤ বিপিএল ফাইনালে ঢাকার বিপক্ষে কুমিল্লার হয়ে তামিম ইকবালের অপরাজিত ৬১ বলে ১৪১ রানের ইনিংসটা আমার দেখা সবচেয়ে সেরা ইনিংস। তামিম সত্যিই অতুলনীয়। তামিম এক অনুভূতির নাম। তামিম ১৭ কোটি মানুষের ভালোবাসার আরেক নাম তামিম ইকবাল।
    Total Reply(0) Reply
  • Gazi Mohammed Shawan ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪৬ এএম says : 0
    Roni run-out ta nahole Dhaka win er chance cilo besi . 2jon set player por por out hole match win Kora tough hoea Jai . Jai howk, aj hoyto tamim er jonno final opekkha korecilo. R Dhaka dynamites a Pollard k rakhar pokkho pati Ami na Hide or report this
    Total Reply(0) Reply
  • Kings Mehadi Hasan Mulla ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:৪৭ এএম says : 0
    অভিনন্দন প্রিয় টিম কুমিল্লাকে, আরেকটি কাপ উপহার দিয়ে আনন্দ দেওয়ার জন্য,, ফাইনাল ফাইনালের মতই উপভোগ করলাম দোয়া ও ভালোবাসা রইলো নাফিসা কামাল ও তার ফ্যামিলিকে লাভ মাই কুমিল্লা
    Total Reply(0) Reply
  • Nannu chowhan ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ৮:২১ এএম says : 0
    Congratulations
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বিপিএল

২৯ জুলাই, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন