Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ২১ অক্টোবর ২০১৯, ০৫ কার্তিক ১৪২৬, ২১ সফর ১৪৪১ হিজরী

তবুও নির্ভার বার্সা কোচ

স্পোর্টস ডেস্ক : | প্রকাশের সময় : ১২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:০৩ এএম

জয়বিহীন একটা সপ্তাহ কাটালো বার্সেলোনার। শুরুটা লা লিগায় ঘরের মাঠে ভ্যালেন্সিয়ার কাছে পয়েন্ট হারিয়ে (২-২)। এরপর কোপা দেল রের সেমিফাইনালের প্রথম লেগে চিরপ্রতিদ্ব›দ্ধী রিয়াল মাদ্রিদের সঙ্গে ১-১ ড্র। এটাও ন্যু ক্যাম্পে। আর্নেস্তো ভালভার্দের দল লিগ ম্যাচে পরশু অ্যাথলেটিক বিলবাওয়ের মাঠেও রইল জয়হীন। এবার স্কোরবোর্ড থেকে গেছে গোলশূণ্য। প্রায় এক বছর পর লা লিগায় গোল করতে ব্যর্থ হলো বার্সেলোনা।

চোট থেকে পুরোপুরি কাটিয়ে ওঠা না ওঠার প্রশ্নে লিওনেল মেসির খেলা নিয়ে শংশয় ছিল। কিন্তু বার্সা অধিনায়ক মাঠে ছিলেন শুরু থেকেই। চোট কাটিয়ে দলে ফেরা ওউসমান দেম্বেলে ফিলিপ কুতিনহোর বদলি নামেন ম্যাচের ৭৫তম মিনিটে। কিন্তু কোন ভাবেই প্রতিপক্ষের জাল আবিষ্কার করতে পারেননি ভালভার্দের শিষ্যরা। মেসির একটি শট ক্রসবারে লেগে প্রতিহত হয়। বলের দখল রাখলেও আক্রমণভাগে এদিন নিষ্প্রভ ছিলেন মেসি। কুতিনহো এখনো নিজেকে খুঁজে ফিরছেন। পুরো ম্যাচে বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা লক্ষ্যে শটই নিতে পারে মাত্র দুইবার। ভাগ্য ভালো গোলরক্ষক মার্ক আন্দ্রে টার স্টেগেন ছিলেন সুপারম্যানের ভূমিকায়। নইলে হার নিয়েই ফিরতে হত বার্সাকে।

মেসিকে সেভাবে পাওয়া না যাওয়ায় প্রশ্ন ওঠে তার পুরোপুরি ফিট থাকা নিয়ে। কিন্তু ভালভার্দে জানালেন প্রিয় শিষ্যের শতভাগ সুস্থ্যতার কথা, ‘মেসি ভালো আছে। সে তার শতভাগ দিয়েই খেলেছে। তার কিছু অসুবিধা ছিল। ... কিন্তু পুরোপুরি সুস্থ আছে বলেই সে খেলেছে।’
এদিনও ভালভার্দেকে পড়তে হয় দুই ব্যাকের সমস্যায়। পুরো মৌসুমেই তাকে মাঠের এই দুই জায়গা নিয়ে পরীক্ষা-নীরীক্ষার মধ্য দিয়ে যেতে হচ্ছে। জর্ডি আলবা এই ম্যাচে ছিলেন নিষিদ্ধ। বাঁ-প্রান্তে তার জায়গায় খেলানো হয় নেলসন সেমেদোকে। অথচ সেমেদোকে এতদিন খেলানো হয়েছে রাইট ব্যাকে। সেমেদোর জায়গায় এদিন খেলানো হয় মিডফিল্ডার সার্জিও রবের্তোকে। দুই প্রান্ত থেকে সেভাবে ভয়ঙ্কর কোন আক্রমণ করতে দেখা যায়নি বার্সাকে।
লিগ ম্যাচে টানা দুই হোঁচট, ওদিকে রিয়াল ধেয়ে আসছে শাঁই শাঁই করে। দুই দলের পয়েন্ট ব্যবধান নেমে এসেছ ছ’য়ে। এ নিয়ে ম্যাচ শেষে কথাও শনুতে হয়েছে ভালভার্দেকে। কিন্তু সাবেক বিলবাও কোচ নিজের ব্যাপারে আত্মবিশ্বাসী, ‘গত সপ্তায় আমরা শীর্ষে ছিলাম, এই সপ্তাহেও শীর্ষে আছি, যদি কোন ভুল না করি তাহলে আগামী সপ্তাহেও শীর্ষে থাকব।’ ৫৫ বছর বয়সী বাস্তবতাকে মেনে নিচ্ছেন এভাবে, ‘এমন অবস্থা আসে। কিছু সপ্তাহ আসবে যখন আপনি প্রচুর পয়েন্ট অর্জন করবেন এবং কিছু সময় পারবেন না।’ ‘এটা লম্বা একটা মৌসুম এবং বিচার করার জন্য আমাদের শেষ পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হবে।’



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন