Inqilab Logo

ঢাকা, শনিবার, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১১ ফাল্গুন ১৪২৫, ১৭ জামাদিউস সানি ১৪৪০ হিজরী।

এথেন্সে দেড়শ বছর পর নির্মিত মসজিদটি খুলে দেয়া হবে

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ৯:৫৮ এএম

এথেন্সে দেড়শ বছর পর নির্মিত মসজিদটি খুলে দেয়া হবে । দেড়শ বছর পর মসজিদ নির্মাণের অনুমতি মেলার পর মসজিদটি নির্মাণ করা হলেও এতদিন চরমপন্থীদের উগ্রতার কারণে মুসল্লিদের জন্য খুলে দেয়া সম্ভব হয়নি।

তাই নির্মাণের প্রায় আড়াই বছরেরও বেশি সময় ধরে মসজিদটি নিথর পড়ে ছিল।চরমপন্থীদের বিরোধিতার কারণে বারবার তারিখ ঘোষণা করেও মসজিদটি ‍চালু করা সম্ভব হয়নি ।

তবে উদ্বোধনের পর এটি হবে গ্রিকের রাজধানী এথেন্সের প্রথম ও একমাত্র মসজিদ।

এ খবর জানিয়েছে জর্ডানভিত্তিক সংবাদ মাধ্যম আসসাওসানা ইসলাম।

এর আগে বেশ কয়েকবার উদ্বোধনের তারিখ ঘোষণা করার পর আবার স্থগিত করা হয়েছে। চরমপন্থীদের বিরোধিতার কারণে মসজিদটি মুসলমানদের জন্য উম্মুক্ত করা সম্ভব হয়নি। তবে কর্মকর্তারা এবার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন যে,তারা আগামী এপ্রিল মাসে মসজিদটি খুলে দেবেন।

২০১৬ সালের অক্টোবরে দেড়শ বছরের মধ্যে এই প্রথম গ্রিসের রাজধানী এথেন্সে একটি মসজিদ নির্মাণের অনুমতি দিয়েছিল দেশটির পার্লামেন্ট। এথেন্সের প্রায় আড়াই লাখ মুসলমানের দীর্ঘদিনের দাবির প্রেক্ষিতে ওই অনুমোদন দেওয়া হয়।

অনুমতিও খুব সহজে মেলেনি। বরং ব্যাপক বিরোধিতার মধ্যে সংসদে এই বিল পাশ হয়েছিল। ক্ষমতাসীন জোটের মধ্যে সিরিজা পার্টি বিলের পক্ষে ভোট দিলেও বিরোধিতা করেছে ইন্ডিপেন্ডেন্ট গ্রিকস পার্টি। শেষ পর্যন্ত ২৩০ আসনের পার্লামন্টে দুইশর বেশি ভোট পেয়ে বিলটি পাস হয়।

খবরে বলা হয়, ১০ লাখ ইউরো খরচ করে মসজিদটি নির্মাণ করা হয়েছে। নির্মাণ ব্যয়ের পুরোটাই বহন করে সরকার। তবে মসজিদটি কবে নাগাদ খুলে দেয়া হবে তা নিয়ে এতদিন ছিল বিরোধিতা ও বিতর্ক।

শেষতক আগামী এপ্রিল মাসে মসজিদটি মুসমানদের জন্য খুলে দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন গ্রীসের ধর্মমন্ত্রী "জর্জ কাল্যান্টিজিস"।

তিনি বলেছেন যে, এই মসজিদটির উদ্বোধনের পর শুক্রবারসহ প্রতি সোমবার ও বুধবার নামাজ পড়া যাবে। একজন ইমামও থাকবেন নামাজ পড়ানোর দায়িত্বে। তবে সপ্তাহের অন্যান্য দিন মসজিদটি খোলা থাকবে না।

তিনি আরো বলেন যে, শুধু মুসলমানরাই সেখানে ইবাদত করতে পারবেন। এজন্য মুসলমানদেরকে দেয়া হবে আলাদা কার্ড। ইমাম সাহেব ইংরেজিতে বা গ্রিক ভাষায় খুতবা দেবেন।

 



 

Show all comments
  • Babul ১২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ২:৫৩ পিএম says : 0
    Good News For All Muslims.....
    Total Reply(0) Reply
  • Farabi Ahmed ১২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১০:৫৯ এএম says : 0
    আলহামদুলিল্লাহ
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মসজিদ

১৮ জানুয়ারি, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন