Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার, ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০৫ ফাল্গুন ১৪২৫, ১১ জামাদিউস সানি ১৪৪০ হিজরী।

তরুণীকে আটকে রেখে ধর্ষণ: সেই দুই পুলিশ কর্মকর্তা ৬ দিনের রিমান্ডে

সাটু‌রিয়া (মা‌নিকগঞ্জ) সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ৩:০৭ পিএম

মানিকগঞ্জের সাটুরিয়ায় এক তরুণীকে আটকে রেখে ধর্ষণের অভিযোগে দায়ের হওয়া মামলায় অভিযুক্ত দুই পুলিশ কর্মকর্তাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ছয় দিনের রিমান্ডে পাঠিয়েছেন আদালত।

আজ মঙ্গলবার সোয়া ১টার দিকে মানিকগঞ্জ চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেটের সাত নম্বর আদালতে তাদের হাজির করে ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করে পুলিশ। শুনানি শেষে ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ গোলাম সারোয়ার তাদের ছয় দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

রিমান্ডে পাঠানো দু’জন হলেন- উপ-পরিদর্শক (এসআই) সেকেন্দার হোসেন ও সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) মাজহারুল ইসলাম।

মানিকগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (এএসপি) মহিউদ্দিন আহমেদ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

ধর্ষণের শিকার ওই তরুণী সোমবার (১১ ফেব্রুয়ারি) রাতে সাটুরিয়া থানায় অভিযুক্ত দুই পুলিশ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে মামলা করেন। তার আগে দু’জনের বিরুদ্ধে জেলা পুলিশ সুপারের (এসপি) কাছে লিখিত অভিযোগ করেছিলেন তিনি। তখন দুই কর্মকর্তাকেই থানা থেকে প্রত্যাহার করে পুলিশ লাইনে সংযুক্ত করা হয়।


এএসআই সেকেন্দার হোসেন (বামে) ও এএসআই মাজহারুল ইসলাম



 

Show all comments
  • Nahid hasan ১২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ৪:৩৭ পিএম says : 0
    বাংলাদেশে পুলিশ যদি জনগণের রক্ষক হয়ে জনগণের জানমাল ভক্ষন করে তবে তাদের শাস্তি হওয়া দরকার তাতে করে সর্ব সাধারণ কোন অপরাধ করার সাহস পাবে না
    Total Reply(0) Reply
  • শাবুজ আহ্মেদ ১২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১১:০৩ পিএম says : 0
    আমি বলব যদি সুষ্ঠু তদন্ত হয় আর যদি তারা দোষী প্রমাণিত হয় তাহলে দিনের আলোয় জনগণের সামনে তাদেরকে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ড দেওয়া হোক তাহলে সাধারন জনগন কেন আইনশৃঙ্খলা বাহিনী যেন বুঝতে পারে যে এটা ধর্ষণ করার রাষ্ট্র নয় ইসলামিক রাষ্ট্র
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: রিমান্ড


আরও
আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ