Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৫ আশ্বিন ১৪২৬, ২০ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী

শীর্ষে ফিরল বসুন্ধরা কিংস

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৫ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:২৩ এএম

প্রথম অংশগ্রহণেই শিরোপা জেতার লক্ষ্যে ঘরোয়া ফুটবলের মর্যাদাপূর্ণ আসর বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) মাঠে নামে নবাগত বসুন্ধরা কিংস। লক্ষ্যপূরণে একের পর এক জয়ে এগিয়ে চলেছে তারা। এখন পর্যন্ত লিগে পাঁচ ম্যাচ খেলে সবক’টিতেই জয় পেয়ে ফের তালিকার শীর্ষে উঠে আসলো দলটি। গতকাল হোম ভেন্যু নীলফামারীর শেখ কামাল স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত ম্যাচে বসুন্ধরা ১-০ গোলে হারায় রহমতগঞ্জ মুসলিম ফ্রেন্ডস সোসাইটিকে। বিজয়ী দলের হয়ে একমাত্র জয়সূচক গোলটি করেন কিরগিজস্তানের মিডফিল্ডার বখতিয়ার দুশবেকভ। এই জয়ে পাঁচ ম্যাচে ১৫ পয়েন্ট পেয়ে সবার উপরে বসুন্ধরা কিংস। এক ম্যাচ বেশী খেলা লিগের বর্তমান চ্যাম্পিয়ন ঢাকা আবাহনী লিমিটেড পাঁচ জয় ও এক হারে সমান ১৫ পয়েন্ট পেলেও গোল ব্যবধানে পিছিয়ে থেকে তালিকার দ্বিতীয়স্থানে নেমে গেল। রহমতগঞ্জ ছয় ম্যাচে ৩ পয়েন্ট পাওয়া রহমতগঞ্জের জায়গা হলো এগারোতমস্থানে।

লিগ শিরোপার লড়াইয়ে পাল্লা দিয়ে এগিয়ে যাচ্ছে বসুন্ধরা ও ঢাকা আবাহনী। এক্ষেত্রে ক্রমেই পিছিয়ে পড়ছে বর্তমান রানার্সআপ শেখ জামাল ধানমন্ডি ক্লাব। ছয় ম্যাচে তিন জয়, এক ড্র ও দুই হারে ১০ পয়েন্ট পেয়ে তাদের অবস্থান পাঁচে।

বসুন্ধরা কিংসের মূলশক্তি কোস্টারিকার বিশ্বকাপ খেলা মিডফিল্ডার ডেনিয়েল কলিন্দ্রেস, কিরগিজস্তানের মিডফিল্ডার বখতিয়ার দুশবেকভ, ব্রাজিলের মিডফিল্ডার মার্কে ভিনিসিয়াস এবং স্থানীয় ফরোয়ার্ড মতিন মিয়া। তাদের অসাধারণ পারফরমেন্সে দলটি জয়ের ধারাবাহিকতায় রয়েছে। স্প্যানিশ কোচ অস্কার ব্রুজনের শীর্ষ্যরা মৌসুম সূচক টুর্নামেন্ট ফেডারেশন কাপে রানার্সআপ হলেও দ্বিতীয় আসর স্বাধীনতা কাপে ঠিকই চ্যাম্পিয়ন হয়েছে। বসুন্ধরা স্বাধীনতা কাপ জিতে সবাই জানিয়ে দিয়েছে লিগ শিরোপার অন্যতম দাবীদার তারা। লিগ শিরোপা জয়ের লক্ষ্য নিয়েই তারা এগুচ্ছে। লিগে শেখ জামালকে ১-০ গোলে, ঢাকা আবাহনীকে ৩-০, নোফেলকে ২-০, মুক্তিযোদ্ধাকে ৩-১ গোলে হারানোর পর এবার রহমতগঞ্জকে নিজেদের শিকারে পরিণত করেছে নবাগতরা। কাল হোম ভেন্যুতে নূন্যতম গোলে জিতলেও দুর্দান্ত খেলা উপহার দিয়েছে বসুন্ধরা।

ম্যাচের শুরু থেকে তারা আক্রমণাত্নক ফুটবল খেললেও অসহায় আত্মসমর্পণ করেনি রহমতগঞ্জ। প্রায় সমান তালেই লড়েছে তারা। তবে ম্যাচের ৫০ মিনিটে পেনাল্টি থেকে একমাত্র জয়সূচক গোলটি করেন বসুন্ধরার কিরগিজস্তানের মিডফিল্ডার বখতিয়ার দুশবেকভ (১-০)। শেষ পর্যন্ত আর কোনো গোল না হওয়ায় এই ব্যবধানের জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে বসুন্ধরা কিংস।

অন্যদিকে একই দিন নোয়াখালীর শহীদ ভুলু স্টেডিয়ামে বিজেএমসির সঙ্গে পাল্লা দিয়ে খেলে তাদের পয়েন্টে ভাগ বসিয়েছে আরেক নবাগত স্বাগতিক নোফেল স্পোর্টিং ক্লাব। ম্যাচটি গোলশূণ্য অমিমাংসিতভাবে শেষ হয়। এই ড্র’তে পাঁচ ম্যাচে ২ পয়েন্ট পেয়ে তালিকার বারোতমস্থানে নোফেল। ছয় ম্যাচে ২ পয়েন্ট পাওয়া বিজেএমসির অবস্থান সবার শেষে। আজ ও আগামীকাল লিগের কোন খেলা নেই। রোববার যথারীতি মাঠে গড়াবে বিপিএলের সপ্তমপর্ব।
বসুন্ধরা ১-০ রহমতগঞ্জ
বিজেএমসি ০-০ নোফেল



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন