Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৯ মার্চ ২০১৯, ০৫ চৈত্র ১৪২৫, ১১ রজব ১৪৪০ হিজরী।

সউদী নারী রেসার

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:০২ এএম

২০১৮ সালের ২৪ জুন মধ্যরাতে সউদী আরবের রিয়াদের রাস্তায় একটি অসাধারণ দৃশ্য দেখা যায়। রাস্তায় ছুটে চলছে শত শত গাড়ি, আর তার মাঝে অনেক গাড়ির স্টিয়ারিং রয়েছে নারীদের হাতে। কোনও বাধা-নিষেধ নেই, স্বতঃস্ফূর্তভাবে তারা ছুটিয়ে চলছে গাড়ি। এ ঘটনার পেছনের কারণ মূলত সউদী মেয়েদের গাড়ি চালানোর উপর নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়া।
ইসলামিক এই দেশটিতে মেয়েদের গাড়ি চালানো নিষিদ্ধ ছিল। ২০১৭ সাল থেকে তুলে নেওয়া হয় এ নিষেধাজ্ঞা। সে বছরের সেপ্টেম্বর মাসে সউদীর বাদশাহ সালমান বিন আব্দুল আজিজ আল সৌদ মেয়েদের গাড়ি চালানোর উপর নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়ার ঘোষণা দেন। এরপরই নারীরা ধরেন গাড়ির স্টিয়ারিং।
গাড়ি চালানোতে নারীদের স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণে বিস্ময় সৃষ্টি করেছেন দেশটির রীমা আল জুফালি নামে এক নারী। সাধারণ কোনও গাড়ি নয়, রেসিং কার চালিয়ে তিনি সবাইকে তাক লাগিয়ে দিয়েছেন। জুন মাসে গাড়ি চালানোর লাইসেন্স হাতে পেয়েই প্রথমবারের মত রেসে অংশ নেন ২৬ বছর বয়সী রীমা। কলেজে পড়াকালীন ফর্মুলা ওয়ানের প্রতি ঝোঁক দেখা যায় রীমার। এরপর রেসিং কার লাইসেন্সের জন্য আবেদন করে ফর্মুলা কার রেসিং স্কুলে প্রশিক্ষণ নেন তিনি। রীমা জেদ্দার অধিবাসী। বর্তমানে দেশের বাইরে স্নাতক পড়ছেন তিনি। পড়া শেষে রেসিং শুরুর ইচ্ছা আছে তার।
শুধুমাত্র গাড়ি চালানোতেই সীমাবদ্ধ না থেকে তার দেশের মেয়েরা যে রেসিং কারের ক্ষেত্রেও সমান দক্ষতা দেখাতে পারে তা প্রমাণেই তার এই সাহসী পদক্ষেপ। তবে এই কাজটি তার জন্য মোটেও সহজ ছিল না। এর জন্য অনেক দিন ধরেই পরিবারের সদস্যদের রাজি করিয়েছেন তিনি। তবে কাজের বিরোধিতা করার চেয়ে মানুষের সমর্থন বেশি পেয়েছেন বলে জানিয়েছেন তিনি। তিনি প্রথম রেসিং শুরু করেছেন জিটি ৮৬ কার দিয়ে। ইতোমধ্যে ডিসেম্বরে একটি রেসও জিতেছেন রীমা। সূত্র: হিন্দুস্থান টাইমস।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সউদী


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ