Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ২২ মার্চ ২০১৯, ০৮ চৈত্র ১৪২৫, ১৪ রজব ১৪৪০ হিজরী।

তথ্য-প্রযুক্তিতে মেধাবী খুঁজতে সিডস ফর দ্য ফিউচার

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৭ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ৯:১৯ পিএম | আপডেট : ১২:১১ এএম, ১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯

তথ্য-প্রযুক্তিতে তরুণ মেধাবী খুঁজে বের করতে সিডস ফর দ্য ফিউচার প্রতিযোগিতা শুরু করেছে আইসিটি সল্যুশন সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠান হুয়াওয়ে। রোববার (১৭ ফেব্রুয়ারি) রাজধানীর হোটেল ওয়েস্টিন-এ আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এই ঘোষণা দেন হুয়াওয়ের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) ঝাং জেংজুন। এই অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্য প্রযুক্তিমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, বাংলাদেশে আইসিটি প্রতিভা তৈরি এবং তথ্য প্রযুক্তি বিষয়ক শিক্ষার প্রসারে হুয়াওয়ে বাংলাদেশের পাঁচটি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে মোট ১০ জন শিক্ষার্থীকে বাছাই করবে। আগামী দুই মাস এই বাছাই প্রক্রিয়া চলবে। পরবর্তীতে এই মেধাবী শিক্ষার্থীগণ চীনে অবস্থিত হুয়াওয়ের হেডকোয়ার্টারে তথ্য প্রযুক্তি বিষয়ে অভিজ্ঞতা ও প্রশিক্ষণ গ্রহণ করবে।

মোস্তাফা জব্বার বলেন, বাংলাদেশ ভিশন-২০২১ বাস্তবায়নে দুর্বার গতিতে এগিয়ে চলছে। আইসিটি উন্নয়নের অগ্রযাত্রায় আমাদের তরুণদের ভূমিকা উল্লেখযোগ্য। সুতরাং, আমাদের দায়িত্ব এই মেধাবী তরুণদের সঠিক পথ নির্দেশনা দেওয়া। যখন আমাদের ছেলে-মেয়েরা বিশ্বদরবারে ভাল কিছু করে, আমাদের বুকটা গর্বে ভরে ওঠে। বিগত বছরগুলোতে হুয়াওয়ে তাদের সিডস ফর দ্য ফিউচার প্রতিযোগিতার মাধ্যমে তরুণদের মাঝে জ্ঞানের ক্ষুধা তৈরির এই কাজটি করে আসছে। এটা তরুণদের ভবিষ্যতে আরও নতুন সব উদ্ভাবনে উদ্বুদ্ধ করবে।

হুয়াওয়ে টেকনোলজিস (বাংলাদেশ) লিমিটেডের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) ঝাং জেংজুন বলেন, ‘বাংলাদেশে রয়েছে এক ঝাঁক স্বপ্নবাজ তরুণ প্রজন্ম। হুয়াওয়ে বিশ্বাস করে, এই তরুণরাই ডিজিটাল উন্নয়নের মূল চালিকাশক্তি। হুয়াওয়ের সিডস ফর দ্য ফিউচার প্রতিযোগিতা তরুণদের নতুন নতুন চিন্তাভাবনা ও উদ্ভাবন করতে সহায়তা করবে, যেগুলো একটি উন্নত, সংযুক্ত আর বুদ্ধিভিত্তিক সমাজ গড়ে তুলবে। তারা যেন ভবিষ্যতে একটি সুন্দর ও উন্নত সমাজ গড়ে তুলতে পারে, তাদের মনে সেই বীজ বপণ করাই সিডস ফর দ্য ফিউচার-এর উদ্দেশ্য।

বাংলাদেশে ২০১৪ সাল থেকে সিডস ফর দ্য ফিউচার প্রতিযোগিতা শুরু হয়। এ বছর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি), বাংলাদেশ প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট), খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্যবিদ্যালয় (কুয়েট), রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (রুয়েট) এবং চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (চুয়েট)-এ এই প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হবে। শীর্ষ ১০ শিক্ষার্থী নির্বাচনের জন্য হুয়াওয়ের দক্ষ টিম প্রতিটি বিশ্ববিদ্যালয়ে গিয়ে সংশ্লিষ্ট অনুষদের নির্বাচকমন্ডলীকে সাথে নিয়ে দুইজন করে সেরা শিক্ষার্থী বাছাই করবেন।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ