Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার ১৭ জুলাই ২০১৯, ০২ শ্রাবণ ১৪২৬, ১৩ যিলক্বদ ১৪৪০ হিজরী।

বসুন্ধরাকে পেছনে ফেলে শীর্ষে ঢাকা আবাহনী

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৭ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ৯:৪৬ পিএম

ঘরোয়া ফুটবলের সর্বোচ্চ আসর বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে বসুন্ধরা কিংসকে পেছনে ফেলে ফের তালিকার শীর্ষে উঠে আসলো বর্তমান চ্যাম্পিয়ন ঢাকা আবাহনী লিমিটেড। রোববার সন্ধ্যায় বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত দিনের দ্বিতীয় ম্যাচে আবাহনী ৪-০ গোলে বিধ্বস্ত করে ব্রাদার্স ইউনিয়ন ক্লাবকে। বিজয়ী দলের হাইতির ফরোয়ার্ড কারভেন্স বেলফোর্ট দু’টি এবং নাইজেরিয়ান ফরোয়ার্ড সানডে সিজোবা একটি গোল করেন। অপরটি আতœঘাতি গোল পায় আবাহনী। ম্যাচের ১১ মিনিটে আবাহনীর একটি আক্রমণ ফেরাতে গিয়ে ব্রাদার্স ডিফেন্ডার উত্তম রায় নিজেদের জালেই বল ঠেলে দেন। শুরুতে আতœঘাতি গোলে পিছিয়ে পড়া ব্রাদার্স শেষ পর্যন্ত আর ম্যাচে ফিরতে পারেনি। বড় হার নিয়েই মাঠ ছাড়তে হয় তাদের। এই জয়ে ছয় ম্যাচে ১৮ পয়েন্ট পেয়ে বসুন্ধরা কিংসকে পেছনে ফেলে তালিকার শীর্ষে উঠে আসলো আবাহনী। দু’ম্যাচ কম খেলা বসুন্ধরা ১৫ পয়েন্ট নিয়ে রইল দ্বিতীয়স্থানে। ছয় ম্যাচে মাত্র ৩ পয়েন্ট পেয়ে ব্রাদার্স নেমে গেল দশম স্থানে।

ম্যাচের শুরু থেকেই ব্রাদার্সকে চাপে রাখে আবাহনী। ফলে চাপ সামলাতে না পেরে শুরুতেই আত্মঘাতি গোলে পিছিয়ে পড়ে ব্রাদার্স। ১১ মিনিটে ওয়ালী ফয়সালের ক্রসে উড়ে আসা বলে হেড করেন বক্সের ভেতরে দাঁড়িয়ে থাকা সানডে চিজোবা। ব্রাদার্সের গোলরক্ষক সুজন চৌধুরী পাঞ্চ করে ফিরিয়ে দেন। কিন্তু সেই বল বিপদ সীমানা থেকে ক্লিয়ার করতে গিয়ে নিজেদের জালেই জড়িয়ে দেন ডিফেন্ডার উত্তম রায় (১-০)। এগিয়ে যায় ঢাকা আাবহনী। মিনিট সাতেক পর ব্যবধান দ্বিগুন করেন আবাহনীর হাইতির ফরোয়ার্ড কারভেন্স বেলফোর্ট। এসময় বাঁ প্রান্ত দিয়ে থ্রো করেন রায়হান। উড়ে আসা বলে মাথা ছুঁইয়ে বল জালে জড়িয়ে দেন বেলফোর্ট (২-০)। সতীর্থদের দিয়ে গোল করালেও ম্যাচে গোলদাতাদের পাশে নাম লেখাতে উদগ্রীব হয়ে পড়েন আবাহনীর সানডে সিজোবা। বার বার আক্রমণ করেও গোলের দেখা পাচ্ছিলন না তিনি। অবশেষে সেই মহেন্দ্রক্ষণ আসে তার। ম্যাচের ৪২ মিনিটে নাবিব নেওয়াজ জীবনের শট শুয়ে পড়ে ফিরিয়ে দেন ব্রাদার্সের গোলরক্ষক সুজন। কিন্তু ফিরতি শটে ফাকা বার পেয়ে বল জালে ঠেলে দেন সানডে সিজোবা (৩-০)। ৫৭ মিনিটে আবাহনীকে আরো এগিয়ে দেন হাইতিয়ান বেলফোর্ট (৪-০)। ম্যাচের শেষ দিকে এসে হ্যাটট্রিকের সম্ভাবনা জাগিয়েছিলেন বেলফোর্ট। কিন্তু তার নেয়া শট ব্রাদার্সের গোলবারে লেগে ফিরে এলে হতাশ হন এই হাইতিয়ান। পলে শেষ পর্যন্ত আর কোনো গোল না হওয়ায় ৪-০ ব্যবধানের জয় নিয়েই সন্তুষ্ট থাকতে হয় আবাহনীকে।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ফুটবল

১৪ জুলাই, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন