Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার, ১৮ আগস্ট ২০১৯, ০৩ ভাদ্র ১৪২৬, ১৬ যিলহজ ১৪৪০ হিজরী।

সন্ত্রাসবাদ দমনে ভারতকে সাহায্য করবে সউদী

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:১০ এএম


সদ্য পাকিস্তান সফর করে ভারতে এসেছেন সউদী আরবের যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান আবদুল আজিজ আল সউদ। পুলওয়ামাকাÐের পর যে সফর অন্য তাৎপর্য বহন করছে। গতকাল সকালে যুবরাজকে আনুষ্ঠানিক ভাবে অভ্যর্থনা জানানো হয় ভারতের রাষ্ট্রপতি ভবনে। এ দিনই নয়াদিল্লিতে প্রধানমন্ত্রী মোদীর সঙ্গে বৈঠক বসেন সউদী যুবরাজ। সেখানে পুলওয়ামা কান্ড ও ভারতীয় উপমহাদেশে লাগাতার সন্ত্রাসবাদী কার্যকলাপের প্রসঙ্গটি উঠে আসে। বৈঠক শেষে দেয়া যৌথ বিবৃতিতে সালমান জানিয়েছেন চরমপন্থা ও সন্ত্রাসবাদ দুই দেশের পক্ষেই উদ্বেগজনক। ভারতের সঙ্গে যথেষ্ট বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক সউদী আরবের ও সেই কারণে সন্ত্রাসবাদ মোকাবিলায় ভারতের সঙ্গে সবরকম সহযোগীতা করবে তার দেশ। দুই দেশের সুরক্ষাব্যবস্থা আরও উন্নত করতে এই সহযোগীতা খুবই গুরুত্বপূর্ণ হবে বলে জানিয়েছেন যুবরাজ।
এর আগে, পুলওয়ামার ঘটনার পর দু’দিনের সফরে গিয়ে পাকিস্তানে বড় বিনিয়োগের ঘোষণা দিয়ে এসেছেন সউদী যুবরাজ। আঞ্চলিক শান্তি রক্ষার জন্য তাদের প্রসংশাও করেছেন। তার পরেই এক দিনের জন্য দিল্লিতে এসে তিনি বললেন, ‘ভারত আর সউদী আরবের মধ্যে সম্পর্কটা রয়েছে একেবারে ডিএনএ-তে।’ এতে একটি বিষয় পরিস্কার হয় যে দুই দেশের সাথে সম্পর্কে ভারসাম্যের পথেই হাঁটলেন সউদী যুবরাজ। পাকিস্তানকে ‘বন্ধু রাষ্ট্র’ বলে আসার পর এবার ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে ‘বড় ভাই’ বলে অভিহিত করলেন তিনি।
দিল্লির বিমানবন্দরে নামার পর মঙ্গলবার সন্ধ্যায় সব প্রোটোকল ভেঙে সউদী যুবরাজকে জড়িয়ে ধরে স্বাগত জানান প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। পরে টুইটে মোদী লেখেন, ‘এই সফর দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কে একটি নতুন অধ্যায়ের সূচনা করল।’
যুবরাজের সঙ্গে ভারতে আসেন সউদী আরবের মন্ত্রিসভার কয়েক জন গুরুত্বপূর্ণ সদস্য। এসেছে বড়সড় একটি বাণিজ্যিক প্রতিনিধিদলও। ২০১৭-’১৮ অর্থবর্ষে ভারত ও সউদীর দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্যের পরিমাণ ছিল ২ হাজার ৭৪৮ কোটি মার্কিন ডলার। দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্যের নিরিখে ভারতের চতুর্থ ঘনিষ্ঠতম দেশ সউদী। সূত্র: টিওআই।

 

 

 

 

 

 



 

Show all comments
  • Anwar Hossen Anik ২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:৩৭ এএম says : 0
    চুরকে বলে চুরি কর আর বাড়ি ওয়ালাকে বলে সজাক থাইকো।
    Total Reply(0) Reply
  • Jamil Hasan Šhawôn ২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:৩৮ এএম says : 0
    তাহলে আগে ভারতকে ধ্বংস করে দাও
    Total Reply(0) Reply
  • Sahid Rehman ২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:৪০ এএম says : 0
    Keo na jene vul val comment na korai valo...pulwama attack er onek agei india pakistan tour kora chilo king er...r uni kono country ke sontras er jonne inveatment koren ni...seta keo e koren na...desh er developed ee jonnei korechen
    Total Reply(0) Reply
  • Sakil Alam ২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:৪০ এএম says : 0
    আমাদের উচিৎ এদের কে উস্কানিমূলক কথা বলে যুদ্ধ বাধিয়ে দেওয়া তাহলে ভারত বলে কোন রাষ্ট্রের নাম থাকবে না ২৮ রাজ্যের ৫৬ টা,দেশ হয়ে যাবে। তখন গরুর মুত্র আর পাবে না।
    Total Reply(0) Reply
  • Anil Roy ২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:৪১ এএম says : 0
    Good news
    Total Reply(0) Reply
  • সাদিয়া আক্তার রিয়া রিয়া ২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:৪৩ এএম says : 0
    ভারত পাকিস্তান যুদ্ধ হলে বাংলাদেশ টেলিভিশনে কি দেখাবে???
    Total Reply(1) Reply
    • Habib Rahman ২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১১:১০ এএম says : 0
      Very logical your question dear. if war start between two state Bangladesh TV were broadcasting only Indian winning site?

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সউদী

৬ জুলাই, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন