Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ২৫ মার্চ ২০১৯, ১১ চৈত্র ১৪২৫, ১৭ রজব ১৪৪০ হিজরী।

শেখ জামালকে রুখে দিলো মোহামেডান

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:০৩ এএম

ঘরোয়া ফুটবলের সর্বোচ্চ আসর বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) একাদশ সংস্করণে অনুজ্জ্বল থাকলেও পর পর দু’ম্যাচে পয়েন্ট পেয়েছে ঐতিহ্যবাহী ঢাকা মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব। আগের ম্যাচে চট্টগ্রাম আবাহনীর পয়েন্টে ভাগ বসিয়ে এবার লিগের বর্তমান রানার্সআপ শেখ জামাল জামন্ডি ক্লাবকে রুখে দিয়েছে সাদাকালোরা। গতকাল বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে নিজেদের সপ্তম ম্যাচে শেখ জামালের বিপক্ষে আতœঘাতি গোলে এগিয়ে থেকেও শেষ পর্যন্ত ১-১ ব্যবধানের ড্র নিয়ে মাঠ ছাড়ে মোহামেডান। এ ড্র’তে আট ম্যাচে ১২ পয়েন্ট নিয়ে তালিকার ষষ্ঠস্থানেই রইলো শেখ জামাল। সাত ম্যাচে ৫ পয়েন্ট পেয়ে নবমস্থানে উঠে আসলো মোহামেডান। কাল ম্যাচ শুরুর আগে চকবাজারে অগ্নিদগ্ধ হয়ে নিহতদের স্মরণে এক মিনিট নীরবতা পালন করেন দু’দলের ফুটবলার ও রেফারিরা।

ম্যাচের শুরু থেকেই দাপুটে ফুটবল খেলতে থাকে শেখ জামাল। তবে তাদের ডিফেন্ডার মনির হোসেন অঘটনের জন্ম না দিলে হয়তো পূর্ণ তিন পয়েন্ট নিয়েই মাঠ ছাড়তে পারতো জোসেফ আফুসির শিষ্যরা। কারণ মোহামেডানের এগিয়ে যাওয়া গোলটি ছিলো জামালের আত্মঘাতি। যদিও প্রথমে গোল পাওয়ার কথা ছিল জামালেরই। ম্যাচের ৮ মিনিটে বক্সের সামান্য দূরেই বাঁ প্রান্তে ফ্রি-কিক পায় তারা। বল নিয়ে বক্সের উদ্দেশ্যে যাবার মুহুর্তে জামালের আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড লুসিয়ানুকে ফাউল করেন মোহামেডানের নাইজেরিয়ান ডিফেন্ডার ওরিয়াকো। রেফারি ফ্রি-কিকের নির্দেশ দেন। গাম্বিয়ান ফরোয়ার্ড সলোমন কিং কানফর্মের স্পট কিক বক্সে জটলার মধ্যে পেয়ে লাফিয়ে উঠে হেড করেন জামাল ফরোয়ার্ড সাখাওয়াত হোসেন রনি। কিন্তু বল অল্পের জন্য জালে না জড়ানোয় হতাশ হন এই ফরোয়ার্ড। তবে ম্যাচের ধারার বিপরীতে ২৪ মিনিটে মোহামেডানকে গোল উপহার দিয়ে এগিয়ে দেয় শেখ জামাল। এসময় মাঝ মাঠ থেকে মোহামেডানের মিডফিল্ডার অনিক ঘোষের দূরপাল্লার শট বক্সের বাঁ প্রান্ত থেকে হেডে নিজেদের গোলরক্ষক নাইমের উদ্দেশ্যে বাড়িয়ে দিতে যান জামাল ডিফেন্ডার মো: মনির হোসেন। কিন্তু গোলবার ছেড়ে অনেকটা সামনে চলে এসেছিলেন গোলরক্ষক। যে কারণে বলটি আয়ত্বে নিতে পারেননি তিনি। ফলে অরক্ষিত গোলবার পেরিয়ে বল জড়ায় জালে। উৎসবে মেতে উঠে মোহামেডান (১-০)। পিছিয়ে থেকে বিরতিতে গেলেও দ্বিতীয়ার্ধে গোল শোধে মরিয়া ছিল শেখ জামাল। দ্বিতীয়ার্ধের শুরু থেকেই আক্রমণের পর আক্রমণ করে তারা। অবশেষে সফল হয় ৬৩ মিনিটে। এসময় জামালের কিরগিজ ফরোয়ার্ড ডেভিড ব্রæসের জোগান দেয় বলে বক্সের প্রায় দশ গজ দূর থেকে জোড়ালো শট নেন সলোমন কিং। মোহামেডানের গোলরক্ষক সারোয়ার জাহান কোন কিছু বুঝে উঠার আগেই বল আশ্রয় নেয় জালে (১-১)। তবে শেষ পর্যন্ত আর ব্যবধান বাড়াতে পারেনি শেখ জামাল। মোহামেডানও আর পায়নি কোনো গোল। ফলে ম্যাচ শেষ হয় অমিমাংসিতভাবেই। ড্র করে জামাল দু’পয়েন্ট খোয়ালেও মোহামেডানের জন্য এই এক পয়েন্ট মহা মূল্যবান।

অন্যদিকে লিগে টানা পাঁচ ম্যাচ জেতার পর লিগে দ্বিতীয় হারের মুখ দেখতে হলো বর্তমান চ্যাম্পিয়ন ঢাকা আবাহনী লিমিটেডকে। ফলে শিরোপার দৌড়ে আরো পিছিয়ে পড়লো তারা। গতকাল সিলেট স্টেডিয়ামে নিজেদের সপ্তম ম্যাচে শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্র ২-০ গোলে হারায় আবাহনীকে। শেখ রাসেলের হয়ে দু’টি গোলই করেন দু’বিদেশী। ম্যাচের ২৪ মিনিটে নাইজেরিয়ান ফরোয়ার্ড রাফায়েল ওনবেরে গোলে করে দলকে এগিয়ে দেন (১-০)। গোল শোধে মরিয়া আবাহনী কোন সুযোগই কাজে লাগাতে পারেনি। উল্টো ম্যাচের ৮৪ মিনিটে রাসেলের ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড অ্যালেক্স রাফায়েল গোল করলে ব্যবধান দ্বিগুন হয় (২-০)। শেষ পর্যন্ত এই ব্যবধানের জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে শেখ রাসেল। এই জয়ে সাত ম্যাচে ১৭ পয়েন্ট নিয়ে তালিকার দ্বিতীয়স্থানে উঠে আসলো শেখ রাসেল। আট ম্যাচে ১৮ পয়েন্ট পাওয়া আবাহনী এখন অবদি রইলো শীর্ষেই। তাদের চেয়ে দু’ম্যাচ কম খেলা নবাগত বসুন্ধরা কিংস ১৬ পয়েন্ট নিয়ে নেমে গেল তৃতীয়স্থানে।

 

 

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: মোহামেডান

১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯
১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯
১৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯
২১ জানুয়ারি, ২০১৯
১০ ডিসেম্বর, ২০১৮
৪ নভেম্বর, ২০১৮

আরও
আরও পড়ুন