Inqilab Logo

ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২১ জানুয়ারি ২০২১, ০৭ মাঘ ১৪২৭, ০৭ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

সন্তানদের হাতে স্মার্টফোন নয় বই দিন

চট্টগ্রামে তথ্যমন্ত্রী

চট্টগ্রাম ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ২৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:০৬ এএম

সন্তানদের হাতে হাতে বই তুলে দেয়ার আহ্বান জানিয়ে তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, স্মার্টফোন নয়। একসময় পাঠাগারে গিয়ে পাঠকের পড়ার প্রতি ছিল প্রবল ঝোঁক। কিন্তু স্মার্টফোন সেই পাঠের অভ্যাস কেড়ে নিয়েছে। 

বিল গেটস তার সন্তানদের বয়স ১৬ বছর হওয়ার আগে স্মার্টফোন দেননি। স্মার্টফোনের অপব্যবহার সম্পর্কে অভিভাবকদের সচেতন থাকতে হবে। গতকাল শনিবার চট্টগ্রামে কবি আবদুর রউফ ও মনজিল মুরাদ লাভলুর দু’টি কাব্যগ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তথ্যমন্ত্রী একথা বলেন। মন্ত্রী বলেন, কবিতা মনের কথা বলে, সমাজের কথা বলে। কবিতা মানুষকে পরিশীলিত হওয়ার শিক্ষা দেয়। প্রতিবাদী হওয়ার প্রেরণা জোগায়। সামাজিক সাম্য প্রতিষ্ঠায় অবদান রাখে কবিতা। তবে তথ্য প্রযুক্তির অবাধ প্রবাহের বর্তমান সময়ে কবিতা লেখার প্রতি মানুষের আগ্রহ কমে আসছে।
তিনি বলেন, ৩০-৪০ বছর আগেও কাগজে ছোটদের পাতা থাকতো। শিক্ষার্থীরা কবিতা লিখতো। সে কবিতা ছাপা হলে দেখতাম তাদের মাঝে উল্লাস। এখন সে অবস্থা নেই। শৈশবের স্মৃতিচারণ করে তিনি বলেন, আমিও ছোটবেলায় কবিতা লিখতাম। আমার অনেক কবিতা চট্টগ্রামের বিভিন্ন কাগজে ছাপা হয়েছে। আমাদের স্কুলের বার্ষিকীতেও আমার কবিতা ছাপা হয়েছিল। স্কুলের প্রতিযোগিতায় পুরস্কার দেয়া হতো বই। সে বই এনে বাবাকে দিতাম, বাবা খুশি হতেন। আমার স্কুলের শিক্ষার কারণেই আজ এ জায়গায় আসতে পেরেছি।
আজাদ তালুকদারের সভাপতিত্বে তথ্যমন্ত্রীর চট্টগ্রামস্থ বাসভবনে আয়োজিত প্রকাশনা অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক প্রফেসর সেকান্দর চৌধুরী, আগ্রাবাদ মহিলা কলেজের সাবেক প্রিন্সিপাল ড. আনোয়ারা আলম প্রমুখ।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সন্তানদের হাতে স্মার্টফোন নয়
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ