Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার ২০ জুন ২০১৯, ৬ আষাঢ় ১৪২৬, ১৬ শাওয়াল ১৪৪০ হিজরী।

রাজনীতিতে আসার জল্পনা

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৫ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:০৫ এএম

প্রিয়াঙ্কার পর রাজনীতির প্রত্যক্ষ ময়দানে কি এ বার দেখা যাবে গান্ধী পরিবারের জামাই রবার্টকেও? ফেসবুকে করা একটি পোস্টে সেই ইঙ্গিত দিয়েছেন তিনি নিজেই। সেখানে তিনি স্পষ্টই লিখেছেন, ‘এত দিনের অভিজ্ঞতা আর শিক্ষা নষ্ট না করে ভাল কাজে ব্যবহার করা যেতে পারে। যে দিন আমার বিরুদ্ধে আর কোনও অভিযোগ থাকবে না, সেই দিন মানুষের ভালর জন্য কিছু করা উচিত বলে আমার মনে হচ্ছে।’
একই পোস্টে তার বিরুদ্ধে ওঠা আর্থিক দুর্নীতির অভিযোগ নিয়েও মুখ খুলেছেন ৪৯ বছরের রবার্ট। তার কথায়, ‘এক দশকেরও বেশি সময় ধরে আমার পিছনে পড়ে আছে বিভিন্ন সরকার। আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা অভিযোগ এনে আসল সমস্যা থেকে মানুষের মন ঘুরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা চলছে। কিন্তু এই দেশের সাধারণ মানুষ সেই ষড়যন্ত্রের বিষয়টি বুঝতে পেরে গিয়েছে। দেশবাসী জানে, এই সমস্ত অভিযোগই মিথ্যা। এখন মানুষ নিজেই আমার কাছে এসে সম্মান দিচ্ছে আর আমার উজ্জ্বল ভবিষ্যতের জন্য আশীর্বাদ করছে।’
আগামী লোকসভা নির্বাচনে কংগ্রেসের ভার রাহুলের কাঁধেই। অন্য দিকে এক মাস হল সাধারণ সম্পাদক হিসেবে কাজ শুরু করে দিয়েছেন প্রিয়ঙ্কাও। পূর্ব উত্তরপ্রদেশের মতো গেরুয়াদুর্গে কংগ্রেসের পক্ষে নির্বাচন পরিচালনা করছেন তিনিই। অন্য দিকে গত এক মাস তার বিরুদ্ধে ওঠা আর্থিক দুর্নীতির অভিযোগ সামলাতেই জেরবার রবার্ট। লন্ডনে বেনামি সম্পত্তি কেনাবেচায় জড়িত থাকার অভিযোগে তাকে এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেটের ম্যারাথন জেরার মুখেও পড়তে হয়েছে।
‘দেশের ভাল-র জন্য আরও সক্রিয় ভাবে কিছু করতে চাই’, রবার্টের এই মন্তব্য নিয়েই শুরু হয়েছে রাজনৈতিক জল্পনা। অনেকেই বলছেন, আসলে রাজনীতিতে আসার স্পষ্ট ইঙ্গিত পাওয়া যাচ্ছে এই পোস্ট থেকে। অনেকে আবার বলছেন, ইডি-র জেরার জেরবার হয়ে পাল্টা চাপ তৈরির উদ্দেশ্যেই রাজনীতিতে আসার ইঙ্গিত দিচ্ছেন রবার্ট। রবার্ট রাজনীতিতে এলে আক্ষরিক অর্থেই সম্পূর্ণ হবে গান্ধী পরিবারের ক্ষমতার অলিন্দ। এই মুহূর্তে ইউপিএ চেয়ারপার্সন সোনিয়া গান্ধী, কংগ্রেসের সভাপতি রাহুল গান্ধী আর কংগ্রেসের অন্যতম সাধারণ সম্পাদক প্রিয়াঙ্কা। অপেক্ষা শুধু রবার্টেরই। সূত্র: আনন্দবাজার।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: রাজনীতি

৩০ মার্চ, ২০১৯
১০ মার্চ, ২০১৯
২০ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন