Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার ২০ মে ২০১৯, ০৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ১৪ রমজান ১৪৪০ হিজরী।

ছাত্রদল, ছাত্রলীগের বিদ্রোহী ও কোটা সংস্কার প্যানেল ঘোষণা

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১২:০৩ এএম

দীর্ঘ ২৮ বছর পর অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) নির্বাচনের আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়ে গেছে। আগামী ১১ মার্চের ভোটযুদ্ধে অংশগ্রহণ করতে ইচ্ছুক শিক্ষার্থীরা ইতোমধ্যে মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছে। ছাত্র সংগঠনগুলো পৃথক পৃথক প্যানেলও ঘোষণা করেছে। ছাত্রলীগ ও ছাত্রমৈত্রীর পর গতকাল শেষ দিনে ছাত্রদল, ছাত্রলীগের বিদ্রোহী ও কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীরা পৃথক পৃথক প্যানেল ঘোষণা করে। গতকাল সোমবার নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে ছাত্রদলের নেতাকর্মীদের বৈঠক শেষে কেন্দ্রীয় ও হল সংসদের পূর্ণাঙ্গ প্যানেল ঘোষণা করা হয়। এর আগে ছাত্রলীগ সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককে ভিপি, জিএস করে প্যানেল ঘোষণা করা হলেও গতকাল তাদের বিদ্রোহী একটি প্যানেল ঘোষণা করা হয়। অন্যদিকে কোটা সংস্কার আন্দোলনের মাধ্যমে আলোচনায় আসা সাধারণ শিক্ষার্থী অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের ব্যানেরা একটি পৃথক প্যানেল ঘোষণা করেছে।
ছাত্রদলের প্যানেল : ছাত্রদল ডাকসু নির্বাচনে মোঃ মোস্তাফিজুর রহমানকে ভিপি (সহ-সভাপতি), মোঃ আনিসুর রহমান খন্দকার অনিককে জিএস (সাধারণ সম্পাদক) ও খোরশেদ আলম সোহেলকে এজিএস (সহ-সাধারণ সম্পাদক) করে পূর্ণাঙ্গ প্যানেল ঘোষণা করা হয়। প্যানেলের অন্য সদস্যরা হলেন- স্বাধীনতা সংগ্রাম ও মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক জাফরুল হাসান নাদিম, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক মাকসুদুর রহমান
কমনরুম ও ক্যাফেটেরিয়া বিষয়ক সম্পাদক কানেতা ইয়ালাম, আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক আশরাফুল আলম উজ্জল, সাহিত্য ও প্রকাশনা সম্পাদক মিনহাজ আহমেদ প্রিন্স, সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক কাইয়‚ম উল ইসলাম, ক্রীড়া সম্পাদক মনিরুজ্জামান মামুন, ছাত্রপরিবাহন বিষয়ক সম্পাদক মাহফুজুর রহমান চৌধুরী
সমাজ সেবা সম্পাদক তৌহিদুল ইসলাম
সদস্য- হাবিবুল বাশার, শাহিনুর ইসলাম, ইকবাল হোসাইন, সাইদ বিন আনোয়ার, সাহাব উদ্দিন, মাহমুদুল হাসান, সাফায়াত হাসনাইন সাবিত, তানভীর আজাদী সাকিব, সুলতান মোঃ সালাউদ্দিন সিদ্দিক, শরীফুল, ইমাম আল নাসের মিশুক, আলমগীর হোসেন, আবুল বাশার।
হল সংসদে ছাত্রদলের মনোনীতদের মধ্যে- বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হলে- সহ সভাপতি (ভিপি) আমান উল্লাহ, সাধারণ সম্পাদক (জিএস) শাহ নেওয়াজ, সহ সাধারণ সম্পাদক (এজিএস) ফারহান খান, সম্পাদক মিরাজুল ইসলাম, নূরে আলম সিদ্দিক। মুক্তিযোদ্ধা জিয়াউর রহমান হলে- সহ সভাপতি (ভিপি) মুহাম্মদ তারেক হাসান, সাধারণ সম্পাদক (জিএস) রায়হানুল ইসলাম, সহ সাধারণ সম্পাদক (এজিএস) মোঃ ইমন,
সম্পাদক মোঃ তরিকুল ইসলাম।
বিজয় একাত্তর হলে- সহ সভাপতি (ভিপি) মোঃ কাওসার, সাধারণ সম্পাদক (জিএস) বজলুর রহমান বিজয়,
সহ সাধারণ সম্পাদক (এজিএস) তানজিল হাসান, সম্পাদক সাইফ খান। মাস্টার দা’ সূর্যসেন হলে- সহ সভাপতি (ভিপি) এরশাদ মাহমুদ, সাধারণ সম্পাদক (জিএস) আব্দুল খালেক, সহ সাধারণ সম্পাদক (এজিএস) আজিজুল হক, সম্পাদক রাকিব আল ইসলাম শেখ শোভন ও তানভীর হাসান।
কবি জসীমউদ্দিন হলে- সহ সভাপতি (ভিপি) তৌহিদুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক (জিএস) সৈকত মোর্শেদ, সহ সাধারণ সম্পাদক (এজিএস) আবিদুল ইসলাম খান, সম্পাদক এনামুল হক ও মনিরুজ্জামান মুন্না। স্যার এ.এফ রহমান হলে- সহ সভাপতি (ভিপি) হোসাইন আহম্মেদ সাদ্দাম, সাধারণ সম্পাদক (জিএস) শরীফুল ইসলাম, সহ সাধারণ সম্পাদক (এজিএস) জারিফ রহমান, সম্পাদক আল রাজিব ও মাহবুবুর রহমান সেজান, নাহিদ হাসান, এস.এম. তরিকুল ইসলাম।
মুহসীন হলে- সহ সভাপতি (ভিপি) কাওসার আলম রাসেল, সাধারণ সম্পাদক (জিএস) মোঃ মাহফুজুর রহমান, সহ সাধারণ সম্পাদক (এজিএস) কাউসার আহমেদ, সম্পাদক মিনহাজুল হক।
সলিমুল্লাহ মুসলিম হলে- সহ সভাপতি (ভিপি) নাহিদুজ্জামান নাহিদ, সাধারণ সম্পাদক (জিএস) আল আমিন, সহ সাধারণ সম্পাদক (এজিএস) জুবায়ের আহমেদ, সম্পাদক রেদওয়ান মাহাদী জয়, সাইখ আল ফারাবী, ইমন মিয়া। জহুরুল হক হলে- সহ সভাপতি (ভিপি) আব্দুল্লাহ আল মামুন, সাধারণ সম্পাদক (জিএস) ফেরদৌস আলম, সহ সাধারণ সম্পাদক (এজিএস) মোহাম্মদ ইকরাম খান, সম্পাদক আশরাফুল আলম ও মেহেদী হাসান। ফজলুল হক মুসলিম হলে- সহ সভাপতি (ভিপি) মাসুম বিল্লাহ, সাধারণ সম্পাদক (জিএস) নূর আলম ভ‚ইয়া ইমন, সহ সাধারণ সম্পাদক (এজিএস) কামরুল ইসলাম, সম্পাদক ইমরান হোসেন।
অমর একুশে হলে- সহ সভাপতি (ভিপি) মোসাদ্দেক রহমান সৌরভ, সাধারণ সম্পাদক (জিএস) মোঃ জসীম খান, সহ সাধারণ সম্পাদক (এজিএস) আকতারুজ্জামান বাপ্পী, সম্পাদক সাব্বির হোসেন, আলফি লাম। শহীদুল্লাহ হলে- সহ সভাপতি (ভিপি) সাইদুর রহমান রাফসান, সাধারণ সম্পাদক (জিএস) মাহবুব আলম শাহিন, সহ সাধারণ সম্পাদক (এজিএস) ইব্রাহিম খলিলুল্লাহ, সম্পাদক নুরুল আমিন নূর।
কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের প্যানেল: ডাকসু নির্বাচনে প্যানেল ঘোষণা করেছে কোটা সংস্কার আন্দোলনের প্লাটফর্ম বাংলাদেশ সাধারণ শিক্ষার্থী অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ। ২৫ সদস্যের কেন্দ্রীয় সংসদ ও ১৩ সদস্যের হল সংসদের জন্য ভিন্ন ভিন্ন প্যানেল ঘোষণা করা হয়েছে। গতকাল সোমবার বেলা ১১টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যান্টিনে সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের এক সংবাদ সম্মেলনে এই প্যানেল ঘোষণা করা হয়। ঘোষিত প্যানেলে ডাকসুতে সহ-সভাপতি (ভিপি) পদে মনোনীত হয়েছেন সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের যুগ্ম আহবায়ক নুরুল হক নুর। সাধারণ সম্পাদক (জিএস) পদে প্রার্থী হয়েছেন পরিষদের যুগ্ম আহবায়ক মো. রাশেদ খাঁন। সহ সাধারণ সম্পাদক (এজিএস) পদে মনোনয়ন পেয়েছেন যুগ্ম আহবায়ক মো. ফারুক হোসেনকে।
স্বাধীনতাসংগ্রাম ও মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক সম্পাদক পদে লড়বেন নাজমুল হুদা, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সম্পাদক সোহরাব হোসেন, কমনরুম ও ক্যাফেটেরিয়া সম্পাদক শেখ এমিলি জামাল, আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক হাবীবুল্লাহ বেলালী, সাহিত্য সম্পাদক আকরাম হোসেন, সংস্কৃতি সম্পাদক নাহিদ ইসলাম, ক্রীড়া সম্পাদক মামুনুর রশীদ, ছাত্র পরিবহন সম্পাদক রাজিবুল ইসলাম আর সমাজসেবা সম্পাদক আখতার হোসেন। সদস্য পদে লড়বেন উম্মে কুলসুম বন্যা, রাইয়ান আব্দুল্লাহ, সাব আল মাসানী, ইমরান হোসেন ও শাহরিয়ার আলম সৌম্য৷
ছাত্রলীগের বিদ্রোহী প্যানেল: ছাত্রলীগের প্যানেল ঘোষণার একদিন পর সংগঠনটির একাংশের নেতারা আলাদা প্যানেল ঘোষণা করেছেন। নতুন এই প্যানেলের নাম দেওয়া হয়েছে বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী অসাম্প্রদায়িক সাধারণ শিক্ষার্থীদের পরিষদ। গতকাল মধুর ক্যান্টিনে সংবাদ সম্মেলন করে প্যানেল ঘোষণা করেন ছাত্রলীগের সোহাগ-জাকির কমিটির কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি সোহান খান, তিনি নিজেই প্যানেল থেকে সহ-সভাপতি (ভিপি) প্রার্থী হচ্ছেন। আর সাধারণ সম্পাদক (জিএস) পদে আছেন সার্জেন্ট জহুরুল হক হল ছাত্রলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক ও মুক্তিযোদ্ধা কোটা বহাল আন্দোলনকারীদের সমন্বয়ক আমিনুল ইসলাম বুলবুল। প্যানেলের সহ-সাধারণ সম্পাদক (এজিএস) মো. রনি, যিনি ছাত্রলীগের সোহাগ-জাকির কমিটির সহ-সম্পাদক ছিলেন।
প্যানেলে আরও রয়েছেন- মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক মো আল মামুন, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক জিএম সাব্বির, আন্তর্জাতিক সম্পাদক আমজাদ হোসেন, সাহিত্য সম্পাদক মো. মাসুদ রানা এবং ক্রীড়া সম্পাদক গাজী নাভিদ হোসেন। #



 

Show all comments
  • M F Hossain ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:২৮ এএম says : 0
    Where are girls ? No girls involved in students politics???
    Total Reply(0) Reply
  • নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:২৯ এএম says : 0
    Go Ahead...
    Total Reply(0) Reply
  • আন্দালিব ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:২৯ এএম says : 0
    ছাত্রদল নাকি ভার্সিটি এলাকাতেই ঢুকতে পারেনা, তাহলে এরা কোন ....করে বের হলো?
    Total Reply(0) Reply
  • নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:২৯ এএম says : 0
    রেজাল্টতো সবার জানাই আছে। তারপরও কেনো এত ফর্মালিটি ?
    Total Reply(0) Reply
  • msIqbal ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:২৯ এএম says : 0
    ছাত্রদল যেন কোন দল!! নামটা শুনেছি শুনেছি মনে হচ্ছে!
    Total Reply(0) Reply
  • Abdus Sukur Ayiman ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:৩০ এএম says : 0
    বাংলাদেশের ছাত্র রাজনীতির এক উজ্জ্বল প্রদীপ বাাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী ছাত্রদল। জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রদলের পক্ষথেকে শুভকামনা
    Total Reply(0) Reply
  • Samir Khan ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:৩০ এএম says : 0
    ছাত্রদল কে অনুরুধ করব কোঠা সংস্কার আন্দোলন নেতাদের সামর্থন দিয়ে সরে যেতে.... এই ভুয়া নির্বাচনে গিয়ে কোন লাভ নেই....বরং সামর্থন দিলে ভবিষ্যত ছাত্রদল হবে শক্তিশালী
    Total Reply(0) Reply
  • Jubayed Omar ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:৩০ এএম says : 0
    জাতীয়তাবাদী ছাত্রদলের মোস্তাফিজ/ অনিক প্যানেলের জন্য শুভকামনা রইলো।
    Total Reply(0) Reply
  • RH Rakib Hossain ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:৩১ এএম says : 0
    শুভকামনা, দুঃসময়ের কান্ডারীদের জন্য ইনশাল্লাহ ছাত্রদলের বিজয় হবে।
    Total Reply(0) Reply
  • Suvro Ahmed ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:৩১ এএম says : 0
    যদি আগের রাতে ভোট ডাকাতি করার সাহস,ব্যালট বাক্স ছিনতাই,,ক্যাম্পাসে ত্রাসের সৃষ্টি করে ছাত্রলীগকে গনপিটুনি বা প্রতিরোধ করতে পার তবে নির্বাচনে যাও বাপু,,নয়তো গো হারা হারবা,,সাথে হাতুড়ি হক স্টিকের পিটুনি রামদার দোড়ানি ফ্রিতে খাইবা।
    Total Reply(0) Reply
  • Jabed Kaiser ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:৩১ এএম says : 0
    সর্বশেষ ইলেকশনের মত এবারও ছাত্রদল জিতবে। যদি কোন মেকানিজম না করে।
    Total Reply(0) Reply
  • Kamal Chowdury ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:৩২ এএম says : 0
    গনতন্ত্রের নুতন বেশ,আগের রাতেই ভোট শেষ।খেয়াল রেখ যেন ফজরের আগেই বাক্স ভরে রাখতে না পারে।জয় পরাজয় হবে,তারপরও লড়াই অব্যহত রাখতে হবে।দেশে চলছে গনতন্ত্রের নামে স্বৈরতন্ত্র,গনতন্ত্র রক্ষায় সবাইকে ঐক্যবন্ধ হয়ে সামনে এগিয়ে যেতে হবে। শুভ কামনা!C
    Total Reply(0) Reply
  • Ochin Potik ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯, ১:৩২ এএম says : 0
    জয় পরাজয় হবে। তারপরেও আমাদের লড়াই অব্যহত রাখতে হবে। দেশে আজ গনতন্ত্রের নামে স্বৈরাতন্ত্র চলছে। গনতন্ত্র রক্ষায় আমাদের ঐক্যবন্ধ হয়ে সামনে এগিয়ে যেতে হবে। শুভ কামনা
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ডাকসু

২৩ মার্চ, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন