Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার ২০ মে ২০১৯, ০৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ১৪ রমজান ১৪৪০ হিজরী।

বাংলাদেশ-ভারত সেনাবাহিনীর যৌথ প্রশিক্ষণ টাঙ্গাইলে

বিশেষ সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১ মার্চ, ২০১৯, ১২:১০ এএম

বাংলাদেশে ও ভারতের সেনাবাহিনীর যৌথ আয়োজনে অনুষ্ঠিত হবে বিশেষ প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠান ‘সম্প্রীতি-৮’। বাংলাদেশে প্রশিক্ষণটিতে যোগ দিতে শুক্রবার ভারতীয় বিমান বাহিনীর বিশেষ এয়ারক্রাফট ‘আইএল-৭৬’ এ হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে এসে পৌঁছাবে সে দেশের সেনাবাহিনীর ১৭০ সদস্যের দল। প্রশিক্ষণ চলবে ২ থেকে ১৫মার্চ পর্যন্ত। সেনাবাহিনীর একটি সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে।
সর্বপ্রথম ২০১১ সালে ভারতের আসাম রাজ্যে যৌথ এ প্রশিক্ষণটি শুরু হয়। এরপর থেকে দু’দেশই পালাক্রমে এর আয়োজন করে আসছে। এর আগে ২০১৮ সালে ভারতের মিজোরাম রাজ্যের ভৈরেংতে শহরে অবস্থিত কাউন্টার ইনসার্জেন্সি ও জঙ্গল ওয়ারফেয়ার স্কুলে এটি অনুষ্ঠিত হয়েছিল।
সূত্র জানায়, ৮ম বারের মতো অনুষ্ঠিত হওয়া এই প্রশিক্ষণ টাঙ্গাইলে অবস্থিত ‘বঙ্গবন্ধু সেনানিবাস ক্যান্টনমেন্টে’ অনুষ্ঠিত হবে। দুু’দেশের সেনাবাহিনীর মধ্যকার আন্তঃক্রিয়া ও সহযোগকে শক্তিশালী করাই এই প্রশিক্ষণটির মূল উদ্দেশ্য। একইসঙ্গে প্রশিক্ষণটির মাধ্যমে সন্ত্রাসবাদ মোকাবিলায় একে অপরের অভিজ্ঞতা থেকে নিজেদের আরও সমৃদ্ধশালী করে তুলবে তারা।
সেনাবাহিনীর এবারের আয়োজিত ‘স¤প্রীতি’ প্রশিক্ষণে প্রথমবারের মতো বন্যা ও ভূমিকম্পের মতো প্রাকৃতিক দুর্যোগের সময়ে ত্রাণ ব্যবস্থাপনা ও এর প্রতিক্রিয়া ব্যবস্থার প্রশিক্ষণ পাবে। যৌথ এ প্রশিক্ষণটি দু’দেশের প্রতিরক্ষা ব্যবস্থার মধ্যকার শক্তিশালী সম্পর্কের প্রতীক। প্রশিক্ষণ শেষে ১৬ মার্চ একই এয়ারক্রাফটযোগে নিজ দেশে ফিরে যাবে ভারতীয় সেনাবাহিনীর দলটি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সেনাবাহিনী


আরও
আরও পড়ুন