Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার ২৩ জুলাই ২০১৯, ০৮ শ্রাবণ ১৪২৬, ১৯ যিলক্বদ ১৪৪০ হিজরী।

অভিনন্দনের মুক্তিতে প্রশংসায় ভাসছেন ইমরান খান

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৩ মার্চ, ২০১৯, ৮:৩২ পিএম

পাকিস্তানে আটক ভারতীয় পাইলট অভিনন্দন বর্তমানকে মুক্তি দিয়ে দেশের ভেতরে ও বাইরে প্রশংসা পাচ্ছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। তাকে নোবেল দেয়ার দবিও করছেন তার সমর্থকরা। এর মধ্যেই শনিবার কাতারের আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আল-থানি ইমরানকে টেলিফোন করে এজন্য তার প্রশংসা করেছেন। খবর দ্য ডন।
প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, শনিবার কাতারের আমির ইমরান খানকে টেলিফোন করেন। তিনি ভারতীয় বিমানবাহিনীর উইং কামান্ডার অভিনন্দন বর্তমানকে ভারতের কাছে হস্তান্তর করায় পাকিস্তানের প্রশংসা করেন।
পাকিস্তানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ডা. মোহাম্মদ ফয়সাল রোববার এক টুইট বার্তায় বলেন, ‘কাতারের আমির ভারত-পাকিস্তানের মধ্যে চলমান উত্তেজনা দ্রুততার সহিত হ্রাসের বিষয়ে গুরুত্বের কথা বলেন। আর প্রধানমন্ত্রী ইমরান কান খুব দ্রুত এমন একটি সিদ্ধান্ত নেয়ার তার প্রশংসা করেন তিনি।’
ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে উত্তেজনা যখন চরমে তখন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান ভারতের সঙ্গে আলোচনায় বসার প্রস্তাব দেন। চলমান উত্তেজনার সময় মোদি যখন বিভিন্ন নির্বাচনী জনসভায় প্রতিশোধ আর বদলা নেয়ার হুমকি দিচ্ছিলেন তখন ইমরান সংসদে ঘোষণা দেন পাইলটকে মুক্তি দেয়া হবে। ইমরান খানের ঘোষণা আসার পরদিনই তা বাস্তবায়ন করা হয়। ভারতীয় পাইলটকে মুক্তি দেয়ার কারণে বিশ্বের বিভিন্ন দেশের নেতারা তার প্রশংসা করেন। কেননা যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, চীন আর রাশিয়া শুরু থেকেই দুই পক্ষকে সংযত হওয়ার আহ্বান জানিয়ে আসছিলেন। তাছাড়া ইমরানের এমন সিদ্ধান্তের খবর গণমাধ্যমে আসার পর পাকিস্তানের অনেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তাকে নোবেল পুরস্কার দেয়ার দাবি তোলা হয়। অনেকেই তাকে নোবেল দেয়ার পক্ষে যুক্তি তুলে ধরেন। তবে নিন্দুকেরা অভিযোগ তোলেন, চাপের মুখে পড়ে পাইলট অভিনন্দনকে ছাড়তে বাধ্য হয়েছেন ইমরান খান।
গত শুক্রবার পাইলট অভিনন্দনকে ভারতের কাছে হস্তান্তর করে পাকিস্তান। তার আগে বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান তার মুক্তির ঘোষণা দেন। তিনি বলেন, শান্তির নিদর্শন হিসেবে ভারতীয় পাইলটকে হস্তান্তর করা হবে।



 

Show all comments
  • Emon ৩ মার্চ, ২০১৯, ১১:১৬ পিএম says : 0
    imran the great
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ইমরান খান


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ