Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১ আশ্বিন ১৪২৬, ১৬ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী।

উড়ছে বসুন্ধরা কিংস

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৬ মার্চ, ২০১৯, ১২:০৩ এএম

ঘরোয়া ফুটবলের মর্যাদাপূর্ণ বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে জয়যাত্রা অব্যাহত রেখেছে শিরোপা প্রত্যাশি নবাগত বসুন্ধরা কিংস। নিজেদের নবম ম্যাচেও তারা যথারীতি তিন পয়েন্ট নিয়েই মাঠ ছেড়েছে। ভেঙ্গেছে শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্রের অপরাজিত থাকার রেকর্ড। গতকাল নীলফামারীর শেখ কামাল স্টেডিয়ামে বসুন্ধরা ১-০ গোলে হারায় শেখ রাসেল ক্রীড়া চক্রকে। বিজয়ী দলের হয়ে একমাত্র জয়সূচক গোলটি করেন ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড মার্কোস ভিনিসিয়াস। এই জয়ে বসুন্ধরা ৯ ম্যাচে আট জয় ও এক ড্র’তে ২৫ পয়েন্ট পেয়ে ফের তালিকার শীর্ষে উঠে আসলো। সমান ম্যাচে শেখ রাসেল ছয় জয়, দুই ড্র ও এক হারে ২০ পয়েন্ট নিয়ে তৃতীয়স্থানেই রইলো।

কাল ম্যাচের শুরু থেকেই বসুন্ধরা গোলের জন্য মরিয়া থাকলেও পুরো প্রথমার্ধে তাদের আটকিয়ে রাখে শেখ রাসেল। তবে বিরতির পর আর পেরে ওঠেনি কোচ সাইফুল বারী টিটুর দল। ম্যাচের ৫৭ মিনিটে ইব্রাহিমের পাসে বল পেয়ে চমৎকার শটে গোল করেন বসুন্ধরার ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড মার্কোস ভিনিসিয়াস (১-০)। শেষ পর্যন্ত তার এ গোলেই ঝয নিয়ে মাঠ ছাড়ে নবাগতরা।
এদিকে ঢাকা ভেন্যূর খেলায় আরামবাগ ক্রীড়া সংঘের পয়েন্ট ভাগ বসিয়েছে রহমতগঞ্জ মুসলিম ফ্রেন্ডস সোসাইটি। বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত ম্যাচে আরামবাগ প্রথমে এগিয়ে থেকে শেষ পর্যন্ত ১-১ গোলে ড্র করে রহমতগঞ্জের সঙ্গে। আরামবাগের পক্ষে মিডফিল্ডার জাহিদ হোসেন ও রহমতগঞ্জের কঙ্গোর ফরোয়ার্ড সিও জোনাপিও একটি করে গোল করেন। এই ড্র’তে আরামবাগ ১০ ম্যাচে পাঁচ জয়, এক ড্র ও চার হারে ১৬ পয়েন্ট নিয়ে তালিকার পঞ্চমস্থান ধরে রাখলো। রহমতগঞ্জ ৯ ম্যাচে এক জয়, পাঁচ ড্র ও তিন হারে ৮ পয়েন্ট পেয়ে দশমস্থানেই থাকলো।

ম্যাচের শুরুতে গোল করে আরামবাগ এগিয়ে গেলেও লিড ধরে রাখতে পারেনি। ৪ মিনিটে ডান প্রান্ত ধরে বল নিয়ে দ্রুত গতিতে রহমতগঞ্জের বক্সে ঢুকে পড়েন আরামবাগ অধিনায়ক জাহিদ। কিন্তু তাকে অবৈধভাবে বাধা দেন রহমতগঞ্জ ডিফেন্ডার শাকিল আহমেদ। রেফারি নাহিদ ফাউলের অপরাধে শাকিলকে হলুদ কার্ড দেখানোর পাশাপাশি আরামবাগের পক্ষে পেনাল্টির নিদের্শ দেন। পেনাল্টি থেকে কোনাকোনি শটে রহমতগঞ্জের জাল কাপান জাহিদ (১-০)। এরপর ৩৫ মিনিটে সমতায় ফিরে রহমতগঞ্জ। এসময় মিডফিল্ডার জামাল হোসেনের বাড়িয়ে দেয়া বল বুঝে নিয়ে আচমকা শটে আরামবাগের জাল কাঁপান সিও জোনাপিও (১-১)। ম্যাচে সমতা আসার পর দু’দল শত চেষ্টা করে আর এগিয়ে যেতে পারেনি। ফলে শেষ পর্যন্ত অমিমাংসিতভাবেই শেষ হয় ম্যাচ।

একই দিন গোপালগঞ্জের শেখ ফজলুল হক মনি স্টেডিয়ামে লিগের আরেক ম্যাচে মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ক্রীড়া চক্র ৩-০ গোলে হারায় ব্রাদার্স ইউনিয়ন ক্লাবকে। বিজয়ী দলের পক্ষে জাপানীজ ফরোয়ার্ড ইউসুকে কাতু দু’টি ও স্থানীয় ফরোয়ার্ড মেহেদী হাসান রয়েল একটি গোল করেন। এই জয়ে মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ৯ ম্যাচে ১৩ পয়েন্ট পেয়ে তালিকার ষষ্ঠস্থানে উঠে আসলো। সমান ম্যাচে মাত্র ৩ পয়েন্ট পাওয়া ব্রাদার্সের অবস্থান সবার শেষে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বসুন্ধরা কিংস

১৫ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯
৩১ জানুয়ারি, ২০১৯
আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ