Inqilab Logo

ঢাকা, রবিবার, ০৯ আগস্ট ২০২০, ২৫ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৮ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

চেলসির রাতে আর্সেনালের হতাশা

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৯ মার্চ, ২০১৯, ১২:০৪ এএম

ম্যাচের শুরুতেই এগিয়ে গেল আর্সেনাল। আক্রমণের ধার বাড়াতে খেলল শরীরী ফুটবল। উল্টো পরিণতি, লাল কার্ডে নামলো ১০ জনের দলে। সেখান থেকেই ছন্দ পতনের শুরু। বাগে পেয়ে জ্বলে উঠলো স্টেড রেন। আক্রমণাত্মক ফুটবল খেলে ইংলিশ ক্লাবটিকে হারিয়ে উয়েফা ইউরোপা লিগের কোয়ার্টার-ফাইনালে ওঠার পথে এগিয়ে গেছে ফ্রেঞ্চ মিনোজরা। গতপরশু রাতে ঘরের মাঠ রোয়াজোন পার্কে শেষ ষোলোর প্রথম লেগে ১০ জনের উনাই এমেরির দলকে ৩-১ গোলে হারায় রেন। এই প্রথম ফরাসি কোনো ক্লাবের বিপক্ষে অ্যাওয়ে ম্যাচে হারল গানাররা।

আলেক্স আইওবির নৈপুণ্যে ম্যাচের তৃতীয় মিনিটেই এগিয়ে যায় আর্সেনাল। ডি-বক্সের বাঁ দিকে নাচো মনরিয়ালের পাস পেয়ে একটু এগিয়ে কোনাকুনি শটে গোলরক্ষককে পরাস্ত করেন নাইজেরিয়ার মিডফিল্ডার। বল দূরের পোস্টের ভিতরের কানায় লেগে জালে জড়ায়। ৪১তম মিনিটে ফরাসি ফরোয়ার্ড ইসমাইলাকে ফাউল করে দ্বিতীয় হলুদ কার্ড দেখেন গ্রিক ডিফেন্ডার সক্রাতিস পাপাস্তাথোপুলস। ১০ জনের দলে নেমে আসে আর্সেনাল। পরের মিনিটেই গোল খেয়ে বসে প্রিমিয়ার লিগের ৫ নম্বরে থাকা দলটি। সতীর্থের ফ্রি-কিক রক্ষণ দেয়ালে প্রতিহত হওয়ার পর আলগা বল জোরালো শটে ঠিকানায় পাঠান ফরাসি মিডফিল্ডার বাঁজামাঁ বুইজো।

দ্বিতীয়ার্ধে একের পর এক আক্রমণ ঠেকাতে ব্যস্ত আর্সেনাল ৬১তম মিনিটে আত্মঘাতী গোলে পিছিয়ে পড়ে। ডান দিক থেকে রেনের ফরাসি খেলোয়াড় মেদির ক্রস স্প্যানিশ ডিফেন্ডার মনরিয়ালের পায়ে লেগে দিক পাল্টে দূরের পোস্ট দিয়ে জালে জড়ায়। কিছুই করার ছিল না গোলরক্ষক পেতর চেকের। ৮৮তম মিনিটে দারুণ এক পাল্টা আক্রমণে ব্যবধান বাড়ায় স্বাগতিকরা। বাঁ দিক থেকে সতীর্থের বাড়ানো ক্রসে ডাইভিং হেডে গোলটি করেন ইসমাইলা।

একই রাতে দারুণ এক জয় দিয়ে শেষ আটের পথে অনেকটাই এগিয়ে গেছে প্রিমিয়ার লিগের দল চেলসি। স্বাগতিক দলের সামনে দাঁড়াতেই পারেনি ইউক্রেনের দল ডায়নামো কিয়েভ। স্ট্যামফোর্ড ব্রিজের চেলসির জয়টি ৩-০ গোলে। একটি করে গোল করেন পেদ্রো, উইলিয়ান ও ক্যালাম হাডসন ওদই। সব প্রতিযোগিতা মিলে মাউরিসিও সারির দলের এটি টানা তৃতীয় জয়।

পুরো ম্যাচে সফরকারী দল লক্ষ্যে কোনো শটই নিতে পারেনি। আক্রমণে বøুজ রক্ষণকে কোনো পরীক্ষায় ফেলতে পারেনি তারা। অন্যদিকে প্রথমার্ধে চেলসি লক্ষ্যে যে পাঁচটি শট নেয় তার চারটিই ছিল পেদ্রোর। এর মধ্যে থেকে আরো দুটি গোল করতে পারতেন সাবেক বার্সেলোনা স্ট্রাইকার। প্রথমার্ধে তার একমাত্র গোলটি ছিল ১৭তম মিনিটে অলিভার জিরুদের পাসে কাছ থেকে করা। বাকি সুযোগগুলো কাজে লাগাতে পারেননি এই স্প্যানিশ। প্রথমার্ধেই রস বার্কলি দুবার ও মার্কোস অ্যালোনসো একবার হতাশ করেন স্বাগতিক সমর্থকদের। প্রথমার্ধে সফরকারীদের সফলতা বলতে আর কোন গোল হতে না দেওয়া।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরু থেকেও আধিপত্য ছিল স্বাগতিকদের। ডান প্রান্তে উইলিয়ান ছিলেন দুর্দান্ত। ৬৬তম মিনিটে ডি বক্সের বাম প্রান্ত থেকে তার ডান পায়ের মাপা ফ্রি-কিকেই ব্যবধান দ্বিগুন করে চেলসি। শেষ দিকে চেলসির রক্ষণে চাপ বাড়িয়েও কিছু করতে পারেনি কিয়েভ। উল্টো পাল্টা আক্রোমণে ৯০তম মিনিটে আরো এক গোল খেয়ে শেষ আটের পথ অনেকটাই রুদ্ধ করে ফেলে তারা। ডান প্রান্ত থেকে পেদ্রোর ভয়ঙ্কর ক্রস ক্যালাম হাডসন ওদইকে বাড়ান রুবেন লফটাস-চেক। বলের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে আনায়াসেই গোলরক্ষককে পরাস্থ করেন উইলিয়ামের বদলি নামা ১৮ বছর বয়সী ইংলিশ ফরোয়ার্ড।
একই রাতে অঘটনের শিকার হয়েছে ইন্টার মিলানও। জার্মান ক্লাব ফ্রাঙ্কফুর্টের মাঠে গোলশূণ্য ড্র করেছে ইতালিয়ান ক্লাবটি। ইউরোপের দ্বিতীয় সেরা ক্লাব ফুটবল প্রতিযোগিতায় আগামী বৃহস্পতিবার ফিরতি পর্বের ম্যাচে নির্ধারণ হবে সকলের শেষ আটের চূড়ান্ত ভাগ্য।
এক নজরে ফল
রেন ৩ : ১ আর্সেনাল
জাগরেব ১ : ০ বেনফিকা
ফ্রাঙ্কফুর্ট ০ : ০ ইন্টার মিলান
সেভিয়া ২ : ২ ¯েøভিয়া
জেনিথ ১ : ৩ ভিয়ারিয়াল
চেলসি ৩ : ০ কিয়েভ
নাপোলি ৩ : ০ ¯øাজবুর্গ
ভ্যালেন্সিয়া ২ : ১ ক্রাসনোদার

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: চেলসি

২৪ এপ্রিল, ২০১৯
২২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯
২২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯
৩১ জানুয়ারি, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন