Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৪ অক্টোবর ২০১৯, ০৮ কার্তিক ১৪২৬, ২৪ সফর ১৪৪১ হিজরী

মতলবে ৩ কুখ্যাত ডাকাত আটক

লাশবাহী এ্যাম্বুলেন্স ডাকাতি

মতলব উত্তর(চাঁদপুর)উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১৩ মার্চ, ২০১৯, ৬:০০ পিএম

লাশবাহী এ্যাম্বুলেন্সে ডাকাতি ঘটনায় ৩ কুখ্যাত ডাকাতকে আটক করেছে পুলিশ। চাঁদপুরের মতলব উত্তর থানা পুলিশের একটি শক্তিশালী টিম ১০ মার্চ দিবাগত রাত থেকে ১১ মার্চ মধ্যরাত পর্যন্ত অভিযান চালিয়ে তাদেও আটক করে। আদালতে ধৃত ৩ ডাকাতের কাঃবিঃ ১৬৪ ধারায় দোষস্বীকারোক্তীমূলক জবানবন্দি দিয়েছে।

গত গত ১৭ জানুয়ারি' দিবাগত ভোর রাত আনুমানিক ৪ টার দিকে (১৮/১/১৯ খ্রীঃ) মতলব উত্তর থানাধীন আনন্দবাজার টু ঘাসিরচর পাকা রাস্তায় মজিদ বেপারীর বাড়ীর সামনে রাস্তায় গাছ ফেলে ঢাকা মেট্রো-চ-০২-০৫৩৯ নাম্বারের একটি লাশবাহী এ্যাম্বুলেন্স আটকে লাশের সাথে থাকা আত্মীয়-স্বজনদের নগদ প্রায় ১,০৫০০০ টাকা, এবং প্রায় ১,৩৬,১৮০ টাকা মূল্যের স্বর্ণালংকার ও ৩টি মোবাইল সেট লুন্ঠন করে অজ্ঞাতনামা দুর্বৃত্তরা। এ্যাম্বুলেন্সটি ঢাকা শ্যামলী শিশু হাসপাতাল হতে আফরিন আক্তার(৯) নামের এক শিশুর লাশ নিয়ে মতলব উত্তর থানাধীন শিকারীকান্দি গ্রামে আসছিল। আফরিনের চাচা মনির হোসেনের দায়েরকৃত এজাহারের ভিত্তিতে এ্যাম্বুলেন্স চালকসহ অজ্ঞাতনামা আরও ৩ জনের বিরুদ্ধে মতলব উত্তর থানার মামলা নং-১৩, তাং-১৯/১/১৯ খ্রীঃ, ধারা-৩৯৪ পেনাল কোড রুজু হয়।

দীর্ঘদিন যাবত মামলাটির রহস্য উদঘাটনের চেষ্টা করে যাচ্ছিল টিম মতলব উত্তর থানা পুলিশ। স্থানীয়ভাবে প্রকাশ্য ও গোপনে তদন্তের পাশাপাশি তথ্য প্রযুক্তির ব্যবহারের মাধ্যমে অফিসার ইনচার্জ মোঃ মিজানুর রহমানের সার্বিক তত্বাবধানে পরিদর্শক(তদন্ত) মুরশেদুল আলম ভুঁইয়া ও এসআই ইসমাইল হোসেন এসআই গোলাম মোস্তফা, এএসআই কাজী হাবিব, এএসআই নাহিদ, এএসআই জয়দেব, এএসআই আবু হানিফ এবং অন্যান্য অফিসার ফোর্স সহ মতলব উত্তর থানা পুলিশের টিম ১০ মার্চ দিবাগত রাত থেকে ১১ মার্চ মধ্যরাত পর্যন্ত মতলব উত্তর ও দক্ষিণ থানা, দাউদকান্দি এবং তিতাস থানা এলাকার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে প্রথমে উক্ত এ্যাম্বুলেন্স লুন্ঠন ঘটণায় জড়িত মতলব উত্তর উপজেলার মৃত. ঈষান ঋষির ছেলে জয়কৃষ্ঞ ঋষি(৩০), ও দূর্গাপুর গ্রামের কালিদাস মনির ছেলে (২) লিটন মনি(৩০)। আটক ২ জনের স্বীকারোক্তি মূলক তথ্যের ভিত্তিতে কুমিল্লা জেলার তিতাস থানার লালপুর গ্রাম থেকে তাদের অন্যতম সহযোগী মতলব উত্তর উপজেলার খালপাড়(দূর্গাপুর) গ্রামের মৃত. বাহার আলী প্রধানের ছেলে মোহাম্মদ আলী(৪০ কে আটক করা হয়। ১২ মার্চ ধৃত ৩ ডাকাত'কে আদালতে উপস্থাপন করা হলে চাঁদপুরের বিজ্ঞ চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট জনাব মোঃ নুরে আলম এর আদালতে আসামীরা দোষস্বীকার করে কাঃ বিঃ ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি প্রদান করে। এভাবে অফিসার ইনচার্জ মোঃ মিজানুর রহমান বলেন, ডাকাতি ঘটণার রহস্য উদঘাটণ করেছে টিম মতলব উত্তর থানা পুলিশ। পলাতক ৪ জন ডাকাতের সন্ধানে এবং লুন্ঠিত মালামাল উদ্ধারে বিভিন্ন স্থানে অভিযান অব্যাহত আছে।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: আটক

২০ অক্টোবর, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন