Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ অক্টোবর ২০১৯, ০৬ কার্তিক ১৪২৬, ২২ সফর ১৪৪১ হিজরী

খালেদা জিয়া আদালতে যেতে অনিচ্ছুক : জেল সুপার

বড়পুকুরিয়া মামলার শুনানি ৯ এপ্রিল

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৫ মার্চ, ২০১৯, ১২:০০ পিএম

বড়পুকুরিয়া কয়লাখনি দুর্নীতি মামলার শুনানিতে বেগম খালেদা জিয়াকে নেয়া হয়নি। কারণ হিসেবে জেল সুপার জানিয়েছেন বেগম জিয়া আদালতে যেতে অনিচ্ছা প্রকাশ করায় তাকে হাজির করা হয়নি। সিনিয়র জেল সুপার ইকবাল কবীর আদালতকে গতকাল এ তথ্য জানান। পুরান ঢাকার বকশিবাজারে স্থাপিত অস্থায়ী আদালতে শুনানিতে খালেদা জিয়ার হাজির না হওয়ার কারণ হিসেবে লিখিতভাবে (কাস্টডি ওয়ারেন্ট) তিনি লিখিতভাবে জানান ‘বিজ্ঞ আদালতে বন্দি যেতে অনিচ্ছুক’।
পরে আদালতে শুনানির শুরুতেই রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী মোশাররফ হোসেন কাজল বলেন, উচ্চ আদালতের সকল আদেশ চলে এসেছে। আজকে চার্জ শুনানির জন্য দিন ঠিক রয়েছে। এরপর খালেদা জিয়ার আইনজীবী মাসুদ আহমেদ তালুকদার আদালতকে বলেন, যে সকল কাগজপত্র পেয়েছি চার্জ শুনানির জন্য যথেষ্ট নয়। শুনানির জন্য সংশ্লিষ্ট কাগজপত্র দরকার। এছাড়া সকল আসামি আদালতে উপস্থিত হননি। আসামির অনুপস্থিতিতে চার্জ শুনানির হয় না। জবাবে মোশাররফ হোসেন কাজল বলেন, আদালতে কাগজপত্র সব তৈরি আছে আপনারা সংগ্রহ করে নেন। সব কাগজ পেলে পরবর্তী সময়ে চার্জশুনানি করতে হবে।
আদালতে বাইরে এসে খালেদা জিয়ার আইনজীবী মাসুদ আহমেদ তালুকদার সাংবাদিকদের বলেন, খালেদা জিয়া অসুস্থতার কারণে আদালতে উপস্থিত হতে পারেননি। এজন্য আদালত আগামী ৯ এপ্রিল পরবর্তী চার্জ শুনানির দিন ঠিক করেন।
গত ২৬ ফেব্রুয়ারি ঢাকার অস্থায়ী বিশেষ জজ-২ এর বিচারক এ এইচ এম রুহুল ইমরান বড়পুকুরিয়া কয়লাখনি দুর্নীতি মামলায় বিএনি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াসহ ১১ আসামীকে আদালতে উপস্থিত করার জন্য আদেশে দেন। এদিন রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী খালেদা জিয়াসহ অন্যান্য আসামির আদালতে হাজির করার জন্য প্রোডাকশন ওয়ারেন্ট দেয়ার আবেদন করেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: খালেদা জিয়া

২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ