Inqilab Logo

সোমবার, ০৪ জুলাই ২০২২, ২০ আষাঢ় ১৪২৯, ০৪ যিলহজ ১৪৪৩ হিজরী

ভারতে ওঁম উচ্চারণ বাধ্যতামূলক করায় মুসলিমরা ক্ষুব্ধ

প্রকাশের সময় : ১৯ মে, ২০১৬, ১২:০০ এএম

ইনকিলাব ডেস্ক : ভারতে আন্তর্জাতিক যোগ দিবস পালন উপলক্ষে আয়ুষ মন্ত্রণালয়ের তৈরি নয়া প্রোটোকল নিয়ে বিতর্ক শুরু হয়েছে। এ নিয়ে মুসলিম ধর্মীয় নেতারা তীব্র অসন্তোষ প্রকাশ করেছেন। মন্ত্রণালয়ের এক আদেশে ২১ জুন গণযোগব্যায়াম অনুষ্ঠানের সময় ওম মন্ত্র উচ্চারণ বাধ্যতামূলক করার কথা বলা হয়েছে। এর ফলে মুসলিমদের মাঝে বিরূপ প্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছে। মুসলিম ধর্মীয় নেতা মাওলানা শফিক কাজমী বলেছেন, এই সিদ্ধান্ত সেক্যুলারিজমের বিরোধী। এটা ক্ষমতার অপব্যবহার এবং আমাদের বিশ্বাসের বিরুদ্ধ বিষয়। মাওলানা খালিদ রশিদ ফিরঙ্গিমাহলি’র অভিযোগ, যোগ দিবসে ওম উচ্চারণ বাধ্যতামূলক করা অসাংবিধানিক। এর ফলে সংখ্যালঘুদের মধ্যে নিরাপত্তাহীনতা সৃষ্টি হবে। এ নিয়ে জেডিইউ নেতা কে সি ত্যাগী, কংগ্রেস নেতা সন্দীপ দীক্ষিত এবং পি এল পুনিয়াসহ অন্য নেতারা কেন্দ্রীয় মোদি সরকারের বিরুদ্ধে হিন্দুত্বের এজেন্ডাকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার অভিযোগ করেছেন। তারা সরকারের বিরুদ্ধে আরএসএসের এজেন্ডা বাস্তবায়ন করার চেষ্টা হচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন। জেডিইউ নেতা কে সি ত্যাগী বলেছেন, এটা শিখ, ইসলাম এবং বৌদ্ধ ধর্মে একটি হস্তক্ষেপ। একে বাধ্যতামূলক করা উচিত নয়। অন্যদিকে, বিজেপিপন্থি অভিনেতা অনুপম খের ওই সিদ্ধান্তকে জোরালাভাবে সমর্থন করে বলেছেন যারা ওম উচ্চারণ করতে চান না, তারা অন্য কিছু বলুক। কিছু মানুষ সব বিষয়কেই রাজনীতিকরণ করতে চায়। আরএসএস চিন্তাবিদ রাকেশ সিনহার দাবি, বিশ্বজুড়ে যোগকে ভারতের অবদান হিসেবে গ্রহণ করা হয়েছে। এটা ধর্মীয় বিষয় নয়। পার্সটুডে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ভারতে ওঁম উচ্চারণ বাধ্যতামূলক করায় মুসলিমরা ক্ষুব্ধ
আরও পড়ুন