Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার ১৯ জুলাই ২০১৯, ০৪ শ্রাবণ ১৪২৬, ১৫ যিলক্বদ ১৪৪০ হিজরী।

শোকার্ত তামিম পরিবারের স্বস্তি

ক্রাইস্টচার্চ মসজিদে হামলা

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৫ মার্চ, ২০১৯, ১১:২২ পিএম

নিউজিল্যান্ডে যখন ক্রিকেটাররা নামাজে যাওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন বাংলাদেশে তখন হয়তো অনেকে ঘুম থেকেও ওঠেননি। সাপ্তাহিক ছুটির দিনে ক্লান্তি কাটাতে হয়তো একটু বেশিই বিছানায় ছিলেন। কিন্তু ভয়ানক এক ঘটনায় সবার নিদ্রাই যে গেছে উড়ে। ঠিক এমনটাই হয়েছে বাংলাদেশ দলের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান তামিম ইকবালের স্ত্রী আয়েশা ইকবাল খানের ক্ষেত্রেও।

দলের সিনিয়র খেলোয়াড় তিনি। ধর্মপ্রাণও। তাই যে মাঠে খেলা তার পাশের মসজিদে হামলার খবর শুনে ভীষণ মুষড়ে গিয়েছিলেন আয়েশা। জানেন তামিম নামাজ আদায় করতে যাবেনই। গিয়েছেনও। তবে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলতে পেরেছেন তামিমের মেসেজ পেয়েই। ফেসবুক প্রোফাইলে স্ট্যাটাস দিয়ে তাই সবার কাছে দোয়া চেয়েছেন তামিমের স্ত্রী, ‘ধন্যবাদ সব মেসেজের জন্য। আলহামদুলিল্লাহ্ তামিম ভালো আছে। দয়া করে সবাই তাদের জন্য দোয়া করবেন।’

মূলত সামরিক বাহিনীর পোশাক পড়ে এসে এক ব্যক্তি স্বয়ংক্রিয় রাইফেল দিয়ে আল নূর মসজিদে মুসল্লিদের ওপর এলোপাথাড়ি গুলি ছোড়ে। তার মিনিট পাঁচ পরেই মসজিদে উপস্থিত হয়েছিল বাংলাদেশ দলের মুসলিম ক্রিকেটাররা। এ হামলায় অন্তত নয় ব্যক্তি প্রাণ হারিয়েছেন। সন্ত্রাসী এই হামলার ঘটনায় এদিন হচকচিয়েই ঘুম থেকে উঠেছেন আয়েশা। তামিমের মেসেজ পেয়েই ধরে প্রাণ যেন ফিরে পেয়েছেন। ভয়ানক সে পরিস্থিতির কথা নিজের ফেসবুক প্রোফাইলে জানিয়েছেন আয়েশা, ‘ক্রাইস্টচার্চের মসজিদের ভয়ানক সংবাদ শুনে ঘুম থেকে উঠেছি। যা খুবই বিধ্বংসী। আমার প্রাণ প্রায় বেরিয়ে যাচ্ছিল ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য। আল্লাহ তাদের পরিবারকে এ শোক সইবার শক্তি দিন।’

তামিমের পরিবার আতঙ্কিত ছিল আরো একটি কারণে। কিছুদিন আগে ইংল্যান্ডে গিয়েও মুসলিম বিদ্বেসীদের হামলার শিকার হয়েছিলেন তামিম ও তার স্ত্রী। সেকথা স্মরণ করিয়ে দিয়ে তার মা নুসরাত ইকবাল খান জানান, ‘আমার ছেলের উপর এর আগেও হামলা হয়েছে। তাই এবার একটু বেশিই উদ্বিগ্ন ছিলাম। নিউজিল্যান্ডের মত দেশেও এমন ঘটনা ঘটায় আমার বাকরুদ্ধ। সে দেশের নিরাপত্তা নিয়েও দেখা দিয়েছে প্রশ্ন। সবচেয়ে বড় কথা, ছেলেদের আরো বেশি নিরাপত্তা দেয়া উচিত ছিল।’



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন