Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল ২০১৯, ৬ বৈশাখ ১৪২৬, ১২ শাবান ১৪৪০ হিজরী।
শিরোনাম

‘দুই প্রতিদ্বন্দ্বির ম্যাচ হবে’

আইসিসি বিশ্বকাপ ২০১৯

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৯ মার্চ, ২০১৯, ৫:০৯ পিএম

আসন্ন আইসিসি ওয়ানডে বিশ্বকাপে পাকিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচ বয়কটের হুমকি দিয়ে রেখেছে ভারত। তবে এ নিয়ে কোন মাথাব্যাথা নেই আইসিসির। বিশ্বকাপে ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ হওয়া নিয়ে কোনও শঙ্কা দেখছেন না ক্রিকেটের প্রধান সংস্থা ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিলের (আইসিসি) প্রধান নির্বাহী ডেভ রিচার্ডসন। তার আশা, ‘বিশ্বকাপে লিগ পর্বে মুখোমুখি হবে ভারত ও পাকিস্তান।’
গেল ১৪ ফেব্রুয়ারি পুলওয়ামায় সন্ত্রাসী হামলার পর ভারত-পাকিস্তান রাজনৈতিক যুদ্ধ এখন তীব্র আকার ধারণ করেছে। যার প্রভাব পড়েছে ক্রীড়াঙ্গনেও। আসন্ন ওয়ানডে বিশ্বকাপে পাকিস্তানের বিপক্ষে লিগ পর্বের ম্যাচ বয়কটের হুমকিও দিয়েছে ভারত। এই ব্যাপারে আইসিসির কাছে চিঠিও দিয়েছে বিসিসিআই। এমনকি সন্ত্রাসে মদদদানকারী দলকে বিশ্ব ক্রিকেটে বয়কট করার আহ্বান জানিয়েছে ভারত। তবে চিঠিতে পাকিস্তান বা অন্য কোন দেশের নাম উল্লেখ করেনি তারা।
কিন্তু ভারতের এমন আবেদনের চিঠিতে সাড়া দেয়নি আইসিসি। আইসিসি তার নিজস্ব নিয়মেই বিশ্বকাপ পরিচালনা করবে বলে স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছে। তবে কেউ যদি কোন দলের বিপক্ষে খেলতে না চায় সেক্ষেত্রে প্রতিপক্ষ পয়েন্ট পেয়ে যাবে।
এ ব্যাপারে আইসিসির প্রধান নির্বাহী রিচার্ডসন বলেন, ‘আইসিসি ইভেন্টে সব দেশকেই একটা নিয়ম মেনে চলতে হয়। নিয়ম অনুযায়ী প্রতিযোগিতার সব ম্যাচে দল নামাতে হবে এবং খেলতে হবে। যদি কোনও দল নিয়ম ভঙ্গ করে তবে পয়েন্ট দিয়ে দেয়া হবে বিপক্ষ দলকে। ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ যথা নিয়মে হওয়ার বিষয়ে আমরা আশাবাদী।’
কিছুদিন আগে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজের একটি ম্যাচে পুলওয়ামায় নিহত সিআরপিএফ জওয়ানদের শ্রদ্ধা জানাতে সেনা টুপি পরে খেলতে নেমেছিলো ভারত। পাশাপাশি তাদের ম্যাচ ফি’ও জাতীয় প্রতিরক্ষা তহবিলে দিয়ে দেন কোহলি-ধোনিরা। এ ঘটনার সমালোচনা করে আইসিসির কাছে চিঠি দেয় পাকিস্তান। চিঠিতে পাকিস্তানের সারমর্ম ছিলো, ক্রিকেট নিয়ে রাজনীতি করছে ভারত। কঠোরভাবে এই বিষয়টি দেখতে হবে আইসিসিকে।
এ ব্যাপারে আইসিসি জানিয়ে দেয়, ‘সেনা টুপি পরে খেলতে নামা এবং হামলায় ক্ষতিগ্রস্ত মানুষদের পাশে দাঁড়াতে ও তাদের পরিবারকে সাহায্য করতে অর্থ সংগ্রহ করে তহবিলে জমা দেয়ার ব্যাপারে ভারত আগেই অনুমতি নিয়েছিলো। এখানে কোনও রাজনৈতিক উদ্দেশ্য ছিল না। এছাড়া আইসিসির নীতি পরিষ্কার, খেলাধুলোয় কোন রাজনীতি আনা যাবে না।’



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ক্রিকেট

১৩ এপ্রিল, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন