Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৩ আশ্বিন ১৪২৬, ১৮ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী।

গোপালগঞ্জে ট্রেনের ধাক্কায় ৩ মোটর সাইকেল আরোহী নিহত

গোপালগঞ্জ থেকে স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২০ মার্চ, ২০১৯, ৯:৫২ এএম | আপডেট : ১১:৪২ এএম, ২০ মার্চ, ২০১৯

গোপালগঞ্জে ট্রেনের ধাক্কায় তিন মোটরসাইকেল আরোহী নিহত হয়েছেন।
মঙ্গলবার রাতে গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার ভেন্নাবাড়ি রেলগেটে এ দুর্ঘটনাটি ঘটে।
প্রাথমিকভাবে নিহতদের মধ্যে দু’জনের পরিচয় পাওয়া গেছে। তারা হলেন-গোপালগঞ্জ শহরের ইসলামবাগ এলাকার সিদ্দিক সিকদারের ছেলে রাজু সিকদার (২৫) ও শহরের মোহাম্মদপাড়ার কামরুল চৌধুরীর ছেলে কলেজ ছাত্র তানভীর চৌধুরী রকি (১৯)।

স্থানীয়রা জানান, রাজশাহী থেকে ছেড়ে আসা একটি ট্রেন গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার গোবরা স্টেশনে রাত সাড়ে ১১ টার দিকে যাত্রী নামিয়ে দিয়ে গোপালগঞ্জ রেলস্টেশনে যাচ্ছিলো। এ সময় মোটরসাইকেল নিয়ে গোপালগঞ্জ-বর্ণি সড়কের ভেন্নাবাড়ি রেলগেট পার হওয়ার সময় ট্রেনের ধাক্কায় কলেজ ছাত্র সহ তিন যুবক নিহত হন।
ভেন্নবাড়ি গ্রামের মোঃ আবুল কালাম অভিযোগ করে বলেন,রেল গেটে এ গেটম্যান না থাকায় এ দুর্ঘটনাটি ঘটেছে। রেলক্রস করার সময় গেট ফেলা হয়নি। সিগন্যাল গেট ফেলানো থাকলে ৩টি তাজাপ্রাণ অকালে ঝড়ে যেত না। এখানে দায়িত্বে থাকা গেটম্যান ঠিক মতো দায়িত্ব পালন করেনা। প্রায়ই সে রেল গেটে অনুপস্থিত থাকে। এমনও দেখাগেছে যে, সে ৭/৮ দিন ধরে কর্মস্থলে নেই ।

গোপালগঞ্জ সদর থানার এসআই আব্দুল বারেক জানান, রাজশাহী থেকে ছেড়ে আসা একটি ট্রেন রাত টার দিকে গোপালগঞ্জ পৌঁছায়। ধারণা করা হচ্ছে, ওই তিন যুবক মোটর সাইকেলে করে রেললাইন পার হওয়ার সময় ট্রেনের সঙ্গে ধাক্কা লাগে। এতে ঘটনাস্থলেই তাদের মৃত্যু হয়।
তিনি আর জানান, ভোর সাড়ে ৬টার দিকে খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে নিহতদের মরদেহ উদ্ধার করে গোপালগঞ্জ জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এখন পর্যন্ত নিহত অপর ব্যক্তির পরিচয় পাওয়া যায়নি।

গোপালগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসের ষ্টেশন অফিসার নূর মোহাম্মদ সিকদার বলেন, রেলগেট পার হওয়ার সময় ট্রেনের সাথে মোটর সাইকেলের ধাক্কায় এ দুর্ঘটনাটি ঘটেছে। আমরা উদ্ধার অভিযান পরিচালনা করেছি। নিহতদের মাথাসহ শরীরের বিভিন্নস্থানে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। তাদের মোটর সাইকেলটি ১ শ’ মিটার দূরে ছিটকে পড়েছে।
গোপালগঞ্জ রেল ষ্টেশনের ষ্টেশন মাষ্টর মোঃ আয়নাল হোসেন বলেন, ষ্টেশন একার মধ্যে যারা কাজ করে তারা আমার নিয়ন্ত্রণে থাকেন। যারা বাইরে আছে তারা ট্রেনের ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের অধীনে। ওই গেটম্যানের ব্যাপারে ট্রেনের রাজবাড়ীর ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগ ভাল বলতে পারবে।
ট্রেনের রাজবাড়ী ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের এ.ই.এন প্রকৌশলী আব্দুল হানিফ বলেন, গেট ম্যানের কাজের গাফিলতি নিয়ে ভেন্নাবাড়ি গ্রামের কেউ আগে আমাদের কাছে অভিযোগ করেনি। এখন একটি দুর্ঘটনা ঘটেছে। এখন তারা কাজ না করার অভিযোগ তুলেছে। এ ব্যাপারে তদন্ত কমিটি গঠন করা হবে। তদন্তে গেটম্যান দোষী প্রমানিত হলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: নিহত

৩০ মার্চ, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ