Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার ১৮ জুলাই ২০১৯, ০৩ শ্রাবণ ১৪২৬, ১৪ যিলক্বদ ১৪৪০ হিজরী।

অটোমেটেড ভল্ট সিকিউরিটি এলার্ম চালু জনতা ব্যাংকের

২৪ ঘন্টা নজরদারি

অর্থনৈতিক রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২০ মার্চ, ২০১৯, ৭:৩১ পিএম

অটোমেটেড ভল্ট সিকিউরিটি এলার্ম ব্যবস্থা চালু করেছে রাষ্ট্র মালিকানাধীন জনতা ব্যাংক। রাষ্ট্র মালিকানাধীন ব্যাংকগুলোর মধ্যে জনতা ব্যাংকই সর্বপ্রথম এই সিস্টেম চালু করেছে। একই সঙ্গে দেশের সবগুলো শাখার ভল্টে ২৪ ঘন্টা নজরদারির আওতায় নিয়ে এসেছে। এর মাধ্যমে বাংলাদেশ ব্যাংকের বিআরপিডি সার্কুলার নং-৭ মোতাবেক আধুনিক/বিশ্বমানের প্রযুক্তি ব্যবহারে একধাপ এগিয়ে গেল ব্যাংকটি। সম্প্রতি চালু হওয়া এই সিস্টেমের (অটোমেটেড ভল্ট সিকিউরিটি এলার্ম সিস্টেম) মাধ্যমে ভল্ট কক্ষে কেউ প্রবেশ বা প্রবেশের চেষ্টা করলে ব্যাংকের প্রধান কার্যালয়ের সেন্ট্রাল মনিটরিং সেন্টারে তাৎক্ষণিকভাবে বার্তা চলে আসবে। এছাড়া শাখা ব্যবস্থাপক, শাখার সেকেন্ড অফিসার, সংশ্লিষ্ট আঞ্চলিক প্রধান, পুলিশ স্টেশন প্রধান, র‌্যাব অফিস, চীফ সিকিউরিটি অফিসার এবং এইচআর এজিএম’র কাছে এ মেসেজ স্বয়ংক্রিয়ভাবে চলে যাবে। পাশাপাশি ই-মেইল ও এমএমএস এর মাধ্যমেও নোটিফিকেশন চলে যাবে।

ব্যাংকের সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, সাপ্তাহিক বন্ধসহ এমনকি অন্যান্য বন্ধের দিনেও প্রধান কার্যালয়ের মনিটরিং সেলের মাধ্যমে ব্যাংকের সকল শাখায় বছরের সকল দিন ২৪ ঘন্টা একইসঙ্গে ভিডিওসহ নজরদারি করা হচ্ছে। এমনকি বিদুৎ না থাকলেও এলার্মিং সিস্টেম সচল থাকবে। এই সিস্টেমের মাধ্যমে ভল্টের ৬ স্তরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোড়দার করা হয়েছে। এই প্রযুক্তি প্রবর্তনের ফলে ব্যাংকের ভল্টের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা হয়েছে।

সূত্র আরও জানায়, কম্পিউটার তথ্য- প্রযুক্তি জ্ঞান সম্পন্ন একদল দক্ষ ব্যাংক কর্মকর্তারা সেন্ট্রাল মনিটরিং সিস্টেম এ কাজ করছেন। তারা ৪ শিফটে ২৪ ঘন্টা ব্যাংকিং এ সেবা চালু রেখেছে। জনতা ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আবদুছ ছালাম আজাদ ইনকিলাবকে বলেন, ভল্টের নিরাপত্তার বিষয়ে বাংলাদেশ ব্যাংকের একটি গাইড লাইন আছে, সেটা মেনেই অটোমেটেড ভল্ট সিকিউরিটি এলার্ম ব্যবস্থা চালু করা হয়েছে। একই সঙ্গে ব্যাংকের এটিএম, অনলাইন ব্যাংকিং, রেমিট্যান্স সেবায়ও আরও নিরাপত্তা দিতে কাজ করছে জনতা ব্যাংক বলে উল্লেখ করেন তিনি।

 

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: জনতা ব্যাংক


আরও
আরও পড়ুন