Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার ২৫ এপ্রিল ২০১৯, ১২ বৈশাখ ১৪২৬, ১৮ শাবান ১৪৪০ হিজরী।
শিরোনাম

আবরারের পরিবারকে ১০ লাখ টাকা দিতে হাইকোর্টের নির্দেশ

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২১ মার্চ, ২০১৯, ১২:০৩ এএম | আপডেট : ১২:০৮ এএম, ২১ মার্চ, ২০১৯

সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত বিইউপির শিক্ষার্থী আবরার আহমে চৌধুরীর পরিবারকে সাত দিনের মধ্যে ১০ লাখ টাকা খরচ দিতে সুপ্রভাত পরিবহন কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট। আগামী ৭ দিনের মধ্যে এ টাকা পরিশোধ করতে বলেছেন আদালত। এক রিটের প্রাথমিক শুনানি নিয়ে গতকাল বুধবার বিচারপতি মো. নজরুল ইসলাম তালুকদার ও বিচারপতি কে এম হাফিজুল আলমের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এ নির্দেশ দেন। একইসঙ্গে নিহত এ শিক্ষার্থীর পরিবারকে কেন ৫ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ দেয়া হবে না তা জানতে চেয়ে রুলও জারি করেছেন আদালত। আদালত অপর এক রুলে বেপরোয়া গাড়ি চালানো এবং দুর্ঘটনা রোধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণে সংশ্লিষ্টদের ব্যর্থতা কেন বেআইনি ও অবৈধ ঘোষণা করা হবে না তাও জানতে চেয়েছেন। সড়ক পরিবহন ও সেতুসচিব, স্বরাষ্ট্রসচিব, পুলিশের মহাপরিদর্শক, ডিএমপি কমিশনার, কমিশনার ট্রাফিক, সুপ্রভাত পরিবহন কোম্পানিসহ আট বিবাদীকে ওই রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে।
সড়ক দুর্ঘটনায় আবরার চৌধুরীর মৃত্যুতে ক্ষতিপূরণ প্রদানসহ প্রয়োজনীয় নির্দেশনা চেয়ে সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী রুহুল কুদ্দুস বুধবার রিটটি করেন। আদালতে রিটের পক্ষে তিনি নিজেই শুনানি করেন। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল কে এম জাহিদ সারোয়ার।
পরে ব্যারিস্টার রুহুল কুদ্দুস কাজল সাংবাদিকদের বলেন, নিহত আবরার আহম্মেদ চৌধুরীর পরিবারকে দুর্ঘটনার খরচ বাবদ ১০ লাখ টাকা দিতে নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট। আগামী ৭ দিনের মধ্যে সু-প্রভাত পরিবহন কর্তৃপক্ষকে টাকা দিতে বলা হয়েছে। একইসঙ্গে ৫ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ দিতে কেন নির্দেশ দেয়া হবে না, তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছেন আদালত। বিস্তারিত তদন্ত করে আগামী ১৫ দিনের মধ্যে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষ, ঢাকা মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত মহাপরিদর্শক ও বুয়েটের দুর্ঘটনা গবেষণা ইনস্টিটিউটের পরিচালককে একটি প্রতিবেদন দিতে বলেছেন আদালত।
রিটকারী এ আইনজীবী বলেন, আদালতের মাধ্যমে এবং বিভিন্ন সভা-সমাবেশের মাধ্যমে সড়কে হত্যাকান্ড, নৈরাজ্য ও সড়কে সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে আমরা সোচ্চার রয়েছি। এর আগে তিতুমীর কলেজের শিক্ষার্থী রাজীব, শহীদ রমিজ উদ্দিন কলেজের শিক্ষার্থী নাদিয়া খানম মীম ও আব্দুল করিমের বিষয়ে দুটি মামলা করেছিলাম।সেখানে কিছু ক্ষতিপূরণসহ আদালত অন্তর্বর্তীকালীন আদেশ দিয়েছিল যেন সড়কের নৈরাজ্য বন্ধ হয়। কিন্তু আমরা দেখতে পাচ্ছি, এসব মামলায় যারা প্রতিপক্ষ, তারা এগুলো নিশ্চিত করছে না। সড়কে সাধারণ জনগণের নিরাপত্তা যারা নিশ্চিত করবে, তারা অব্যাহতভাবে ব্যর্থ হচ্ছে। আমরা এ ব্যর্থতাকে চ্যালেঞ্জ করে এ রিট করেছিলাম।
আদেশের বিষয়টি জানিয়ে ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল কে এম জাহিদ সারোয়ার বলেন, ওই দুর্ঘটনার বিষয়ে বিস্তারিত জানিয়ে ১৫ দিনের মধ্যে একটি প্রতিবেদনও আদালতে দাখিল করতে বলা হয়েছে।
প্রসঙ্গত, গত মঙ্গলবার প্রগতি সরণিতে বসুন্ধরা আবাসিক এলাকার গেটের সামনে বাসচাপায় নিহত হন বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব প্রফেশনালসের (বিইউপি) শিক্ষার্থী আবরার আহাম্মেদ চৌধুরী। #



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: সড়ক

২৫ এপ্রিল, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন