Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৫ আশ্বিন ১৪২৬, ২০ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী

গোলান মালভূমি নিয়ে ভিন্ন অবস্থান প্রকাশ ট্রাম্পের

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৩ মার্চ, ২০১৯, ১২:০৫ এএম

অধিকৃত গোলান মালভূমিতে ইসরাইলি সার্বভৌমত্বের স্বীকৃতি দেওয়ার সময় এসেছে বলে মন্তব্য করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। গোলান মালভূমি প্রশ্নে কয়েক দশকের মার্কিন নীতি থেকে সরে এসে এমন কথা বললেন ট্রাম্প। ১৯৬৭ সালে আরব-ইসরাইল যুদ্ধের সময় সিরিয়ার কাছ থেকে গোলান মালভূমির দখল নেয় ইসরাইল। ১৯৮১ সালে মালভূমিটিকে ইসরাইল নিজেদের সঙ্গে যুক্ত করে নেয়। গোলানে নিজেদের শাসন ও আইন বলবৎ করে দেশটি। তবে ইসরাইলের এ পদক্ষেপকে স্বীকৃতি দেয়নি আন্তর্জাতিক বিশ্ব। তবে দীর্ঘদিনের মার্কিন নীতি থেকে সরে এসে গোলান মালভূমি প্রশ্নে ভিন্ন অবস্থান প্রকাশ করলেন ট্রাম্প। এক টুইটার বার্তায় ট্রাম্প দাবি করেন, ‘ইসরাইল রাষ্ট্র ও আঞ্চলিক স্থিতিশীলতার জন্য গোলান মালভূমির অত্যন্ত কৌশলগত ও নিরাপত্তা গুরুত্ব রয়েছে।’ গোলান মালভূমিতে ইসরাইলি সার্বভৌমত্বের স্বীকৃতি দেওয়ার এখনই সময় বলেও মন্তব্য করেন তিনি। সিরিয়া এ ব্যাপারে কোনও মন্তব্য না করলেও ট্রাম্পের টুইটকে স্বাগত জানিয়েছেন ইসরাইলি প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহু। টুইটে তিনি লিখেছেন, ‘ইরান যখন ইসরাইলকে ধ্বংস করার জন্য সিরিয়াকে ব্যবহার করতে চাইছে, প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প সাহসিকতার সঙ্গে গোলান মালভূমিতে ইসরাইলি সার্বভৌমত্বকে স্বীকৃতি দিয়েছেন।’ গবেষণা প্রতিষ্ঠান কাউন্সিল অন ফরেন রিলেশন্স এর প্রেসিডেন্ট এবং মার্কিন পররাষ্ট্র দফতরের সাবেক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা রিচার্ড হাস বলেছেন তিনি ট্রাম্পের বক্তব্যের ব্যাপারে ‘দৃঢ়ভাবে অমত’ পোষণ করছেন। তার মতে, এভাবে ইসরাইলি সার্বভৌমত্বকে স্বীকৃতি দেওয়া হলে তাতে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের প্রস্তাব লঙ্ঘিত হবে। ওই প্রস্তাবে, যুদ্ধের মাধ্যমে ভূখন্ড দখলের বিষয়টি নিষিদ্ধ করা আছে। এর আগে, ২০১৭ সালে জেরুজালেমকে ইসরাইলের রাজধানী হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছিলেন ট্রাম্প। ইসরাইলস্থ মার্কিন দূতাবাস তেল আবিব থেকে সরিয়ে জেরুজালেমে নিয়ে যাওয়ারও নির্দেশ দেন তিনি। এর বিরুদ্ধে ফিলিস্তিনসহ বিশ্বজুড়ে তুমুল নিন্দা ও প্রতিবাদ শুরু হয়। ট্রাম্পের সিদ্ধান্ত কার্যকরকে আইনি প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে মোকাবিলা করতে নিরাপত্তা পরিষদে একটি প্রস্তাব তুলেছিল আরব দেশগুলো। পরিষদের ১৪ সদস্য প্রস্তাবের পক্ষে থাকলেও যুক্তরাষ্ট্র এতে ভেটো দেয়। তবে যুক্তরাষ্ট্রের হুমকি উপেক্ষা করে সাধারণ পরিষদে ১২৮-৯ ভোটে প্রস্তাবটি পাস হয়। রয়টার্স।



 

Show all comments
  • Md Sohag Hossain ২৩ মার্চ, ২০১৯, ১:৪৬ এএম says : 0
    Trump ekta bejonma
    Total Reply(0) Reply
  • Riaz Uddin ২৩ মার্চ, ২০১৯, ১:৪৭ এএম says : 0
    কুকুর তো কুকরকেই সমথন দিবে। তাকে যে আল্লাহ হাসির পাত্র বানিয়ে রেখেছে।
    Total Reply(0) Reply
  • Maria Islam ২৩ মার্চ, ২০১৯, ১:৪৭ এএম says : 0
    “প্রাচুর্যের লালসা তোমাদের মোহাচ্ছন্ন করে রেখেছে, যতক্ষণ পর্যন্ত না তোমরা কবরে পৌঁছে যাও।” [সূরা আত-তাকাসুর : ১-২]
    Total Reply(0) Reply
  • Md Showrov ২৩ মার্চ, ২০১৯, ১:৪৭ এএম says : 0
    ট্রাম তুই ইসলাম নিয়ে বেশি বাড়াবাড়ি করতেছস।এর পরিনাম খুবই খারাপ হবে
    Total Reply(0) Reply
  • Anamul Sarker ২৩ মার্চ, ২০১৯, ১:৪৮ এএম says : 0
    অস্ত্রেরের ভারে অনেক কিছু বলা যায় বাস্তবতা ভিন্ন্য তার প্রমান ভিয়েতনাম ও আফগান যুদ্ধ
    Total Reply(0) Reply
  • Fuad Sam ২৩ মার্চ, ২০১৯, ১:৪৮ এএম says : 0
    এরা হচ্ছে দুনিয়াতে ইবলিস শয়তানের বাস্তব রুপ। ইবলিস শয়তানকে যে উপাদান দিয়ে সৃস্টি করা হয়েছে এদেরকেও তাই দিয়ে সৃস্টি করা হয়েছে।
    Total Reply(0) Reply
  • Md Shahidullah ২৩ মার্চ, ২০১৯, ১:৪৮ এএম says : 0
    আমরা একটা দাবি তুলতে পারি।পুতিনের হস্তক্ষেপে ভোটে জিতার কারণে ট্রাম্পের বউ পুতিনের।
    Total Reply(0) Reply
  • Md Elias ২৩ মার্চ, ২০১৯, ১:৪৯ এএম says : 0
    এই জানোয়ারের নুন্যতম জ্ঞানবোধ থাকত,তাহলে কথা বলে কিভাবে। ইসরায়েলিদের নিজেদের স্বাবভৌম নাই।এরা অন্যর ভুমি দল করে আছে।
    Total Reply(0) Reply
  • Israt Jahan ২৩ মার্চ, ২০১৯, ১:৪৯ এএম says : 0
    he just needs to go mental asylum urgently. Mental asylum is calling him. I don't know how USA ppl are tolerating this psycho.
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন