Inqilab Logo

ঢাকা, বুধবার, ২৩ অক্টোবর ২০১৯, ০৭ কার্তিক ১৪২৬, ২৩ সফর ১৪৪১ হিজরী

গোলান ইসরাইলকে ছাড়তে হবে : কাতার

রাতে যুদ্ধবিরতি, ভোর হতেই হামাসের স্থাপনায় হামলা

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৭ মার্চ, ২০১৯, ১২:০৪ এএম

কাতার বলেছে, গোলান মালভূমি থেকে ইহুদিবাদী ইসরাইলকে অবশ্যই সরে যেতে হবে। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প গোলান মালভূমিকে ইহুদিবাদী ইসরাইলের অংশ হিসেবে আনুষ্ঠানিকভাবে স্বীকৃতি দেওয়ার পর এক বিবৃতিতে এ কথা বলেছে কাতার। ওই বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে, কাতার গোলান মালভূমিকে দখল করেছে। এটি একটি আরব ভূখন্ড। আন্তর্জাতিক আইন মেনে ইসরাইলকে ওই ভূখন্ড থেকে সরে যেতে হবে। এর আগে ইরান ও তুরস্কসহ আরও কয়েকটি দেশ ট্রাম্পের ওই সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করেছে। কানাডা বলেছে, তারা গোলান মালভূমিতে ইসরাইলের সার্বভৌমত্বকে স্বীকৃতি দেবে না। ১৯৬৭ সালে ছয় দিনের আরব-ইসরাইল যুদ্ধের সময় তেল আবিব সিরিয়ার কাছ থেকে কৌশলগত এই এলাকাটি দখল করে নেয়। তবে জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক মহল কখনোই এর স্বীকৃতি দেয়নি। দশকের পর দশক ধরে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রসহ বিশ্বের দেশগুলো ইসরাইলের এই দখলদারিত্বকে প্রত্যাখ্যান করে আসছিল। কিন্তু ট্রাম্প এবার গোটা বিশ্বকে উপেক্ষা করে দখলীকৃত ওই ভূখন্ডের ওপর ইহুদিবাদী ইসরাইলের সার্বভৌমত্বকে স্বীকৃতি দিয়েছেন। অপরদিকে, ফিলিস্তিনের গাজা উপত্যকার নিয়ন্ত্রণে থাকা হামাস কর্তৃপক্ষ মিশরের মধ্যস্থতায় ইসরাইলের সঙ্গে যুদ্ধবিরতিতে সম্মত হয়েছে। ফিলিস্তিনের এক জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে এ তথ্য জানিয়েছেন। যুদ্ধবিরতি প্রক্রিয়ার সঙ্গে জড়িত নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ফিলিস্তিনের ওই কর্মকর্তা বলেন, ‘এই যুদ্ধবিরতি সোমবার স্থানীয় সময় রাত ১০টা থেকে কার্যকর হয়েছে।’ তবে সকাল থেকে এই যুদ্ধবিরতি আর স্থায়ী হয়নি। সকালে হামাসের স্থাপনা লক্ষ্য করে ফের হামলা চালায় ইসরাইল সেনারা। হামাসও পাল্টা জবাব দেয়। সীমান্তের কাছকাছি ইসরাইলিদের লক্ষ করে রকেট হামলার শব্দ শোনা গেছে মঙ্গলবার সকাল থেকেই।তাই সীমান্ত এলাকায় সৈন্য জড়ো করতে দেখা গেছে ইসরাইলকে। হামাসের স্থাপনা লক্ষ্য করে হামলা শুরু করেছে ইসরাইলি সৈন্যরা। এসব হামলা ও পাল্টা হামলায় কোনো হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি। এদিকে যুদ্ধবিরতি প্রক্রিয়ার সঙ্গে যুক্ত ওই কর্মকর্তা বলেন, ‘মিশরের উপস্থিতিতে যুদ্ধবিরতির চুক্তিতে বলা হয়েছে- ইসরাইল আর ফিলিস্তিনের স্থাপনায় এবং ফিলিস্তিনও ইসরাইলে কোনো হামলা করবে না।’ হামাস টিভিও যুদ্ধবিরতির বিষয়ে ইসরাইলের সঙ্গে একটি চুক্তিতে পৌঁছানোর খবর প্রচার করেছে। হামাসের মুখপাত্র ফাওয়াজি বারহুয়াম বলেন, ‘দখলদার ও প্রতিরোধ যোদ্ধাদের মধ্যে যুদ্ধবিরতি নিয়ে মিশরের একটি প্রচেষ্টা সফল হয়েছে।’ তবে, এখন পর্যন্ত এ বিষয়ে ইসরাইল কর্তৃপক্ষের কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি। তবে কাতারভিত্তিক আল-জাজিরার খবরে বলা হয়েছে, অব্যাহত হামলা-পাল্টা হামলা নিয়ে উত্তেজনার প্রেক্ষাপটে ইসরাইলের সঙ্গে হামাস যুদ্ধবিরতিতে সম্মত হয়েছে। আল-জাজিরা, রয়টার্স, পার্সটুডে।



 

Show all comments
  • মিজানুর রহমান ২৭ মার্চ, ২০১৯, ১:১৩ এএম says : 0
    এখনই সময় মুসলীম বিশ্ব এক হওয়ার
    Total Reply(0) Reply
  • Habib Rahman ২৭ মার্চ, ২০১৯, ১০:২২ এএম says : 0
    Israel and India they are both illegal occupier. killing and raping frequently our Muslims brothers and sisters. Muslim world should working together and stay united.
    Total Reply(0) Reply
  • L D A Masum ২৭ মার্চ, ২০১৯, ১০:৩৬ এএম says : 0
    ইসরাঈল বর্বর জাতি।
    Total Reply(0) Reply
  • Md Mizanur Rahman Mizan ২৭ মার্চ, ২০১৯, ১০:৩৬ এএম says : 0
    মুসলিম বিশ্ব এক হও
    Total Reply(0) Reply
  • Shaju Mia ২৭ মার্চ, ২০১৯, ১০:৩৬ এএম says : 0
    মুসলিম বিশ্ব এখনো কেন চুপ করে আছে। ইসরায়েল নামের বিষফোড়া কেন বিশ্বের মানচিত্র থেকে মুছে ফেলা হচ্ছে না
    Total Reply(0) Reply
  • Abul Hossain ২৭ মার্চ, ২০১৯, ১০:৩৪ এএম says : 0
    হযরত ওমর রা: মত কথা এবং কাজ হতে হবে ইনশাল্লাহ বিজয় মুসলমানদের হবেই ।
    Total Reply(0) Reply
  • Ahmad Anam ২৭ মার্চ, ২০১৯, ১০:৩৪ এএম says : 0
    শুধু বললে হবেনা, ইজরায়েলের গুরুত্বপূর্ণ দু'চারটা স্থাপনায় আঘাত হানুন দেখবেন মানবতার গান গাইতে শুরু করে দেবে!
    Total Reply(0) Reply
  • সামছুল প্রামানিক ২৭ মার্চ, ২০১৯, ১০:৩৭ এএম says : 0
    yes
    Total Reply(0) Reply
  • Akinchan ১৭ জুলাই, ২০১৯, ৮:১৩ এএম says : 0
    এতো টা সোজা না
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: কাতার

১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ