Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ২১ অক্টোবর ২০১৯, ০৫ কার্তিক ১৪২৬, ২১ সফর ১৪৪১ হিজরী

বিশ্বকাপের মহড়া আয়ারল্যান্ড সফর

স্পোর্টস রিপোর্টার : | প্রকাশের সময় : ২৮ মার্চ, ২০১৯, ১২:০৪ এএম

মাঠে চলছে ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের ২০১৮-১৯ মৌসুমের খেলা। শেষ হতে হতে এপ্রিলের শেষ সপ্তাহ। বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের অধিকাংশ প্লেয়ারই এখানে ব্যস্ত। এদিকে আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপ শুরু হতে বাকি আর মাত্র দুই মাস। কিন্তু লিগ চলায় বৈশ্বিক আসরটির জন্য ঘরের মাঠে আলাদা প্রস্তুতি নিতে পারছে না লাল-সবুজের দল। কাজেই বিশ্বকাপ প্রস্তুতিতে আয়ারল্যান্ডে অনুষ্ঠেয় ত্রিদেশীয় সিরজেই পাখির চোখ করেছে কোচ স্টিভ রোডস শিষ্যরা।

কারণটিও স্পষ্ট। কন্ডিশন বিবেচনায় আয়ারল্যান্ড ও ইংল্যান্ড খুব কাছাকাছি। আবহাওয়া ও উইকেটের আচরণ; দুটিই প্রায় অনুরূপ। তাই ৫ মে থেকে আয়ারল্যান্ডে অনুষ্ঠেয় ত্রিদেশীয় সিরিজেই টিম বাংলাদেশ বিশ্বকাপের জন্য ষোলোআনা প্রস্তুত হবে বলে মনে করেন মোহাম্মদ মিঠুন। গতকাল হোম অব ক্রিকেট মিরপুরে সংবাদ মাধ্যমকে একথা জানান এই টাইগার মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান, ‘আয়ারল্যান্ড, ইংল্যান্ড আমরা যতটুকু জানি অনেকটাই এক। ওইটা অবশ্যই খুব ভালো কাজে দেবে আমোদের প্রস্তুতির জন্য। আর ওখানে ওয়েস্ট ইন্ডিজ আছে, ওরাও অনেক ভালো দল। আয়ারল্যান্ডের কন্ডিশনে আয়ারল্যান্ড দলটাও খারাপ না। তাই ওদের বোলিং খেলতে পারলে ওখানেই আমাদের ভালো একটা প্রস্তুতি হয়ে যাবে।’

বাংলাদেশ ক্রিকেটাঙ্গনের অনেকেই মনে করছেন ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ দিয়েই বিশ্বকাপের প্রস্তুতি হয়ে যাবে। বিষয়টিকে ভুল বলে আখ্যায়িত করলেন এই টাইগার সদস্য, ‘প্রস্তুতি বলতে এখন তো ঢাকা লিগ চলছে। ঢাকা লিগে ফোকাস করতে হচ্ছে। আর আলাদাভাবে প্রস্তুতি বলতে আমরা এখনো শুরু করিনি ওভাবে। শুরু করবো ইচ্ছে আছে। আর এখন যেহেতু বাংলাদেশে প্রিমিয়ার লিগ খেলে যদি চিন্তা করি ইংল্যান্ডে প্রস্তুতি হয়ে যাচ্ছে এটা ভুল। কারণ ওদের কন্ডিশন সম্পূর্ণ ভিন্ন।’

সদ্য সমাপ্ত নিউজিল্যান্ড সিরিজে ব্যাট হাতে বেশ ছন্দে ছিলেন মিঠুন। সিরিজের শেষ ম্যাচে ইনজুরির আগে স্বাগতিকদের বিপক্ষে খেলা দুই ওয়ানডেতেই করেছেন ফিফটি (৫৭ এবং ৬২)। নিউজিল্যান্ডের কন্ডিশনে ব্যাক টু ব্যাক এমন ইনিংস সন্দেহাতীতভাবেই তাকে বিশ্বকাপে বাড়তি আত্মবিশ্বাস যোগাবে। তবে মিঠুন ভাবছেন অন্যভাবে। তার মতে ইনিংস দুটি আরো বড় হতে পারতো, ‘ওইটা আমার একটা দায়িত্ব ছিল। পুরোপুরি পালন করতে পারিনি। কারণ দুইটা ইনিংসই আরো বড় করা যেত।’



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন