Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার ১৯ মে ২০১৯, ০৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ১৩ রমজান ১৪৪০ হিজরী।

বিএসটিআইতে ভিটামিন ‘এ’ পরীক্ষায় ২১টি ফেল

ল্যাবরেটরিতে ড্রামজাত ভোজ্যতেলের ৫০ নমুনা

অর্থনৈতিক রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৮ মার্চ, ২০১৯, ১২:০৩ এএম

বিএসটিআই পরীক্ষণ ল্যাবরেটরিতে ভোজ্যতেল পরীক্ষণের ফলাফল তুলে ধরে প্রতিষ্ঠানের মহাপরিচালক মো. মুয়াজ্জেম হোসাইন বলেছেন, সম্প্রতি বিভিন্ন বাজার থেকে ড্রামজাত ভোজ্যতেলের ৫০টি নমুনা সংগ্রহ করে বিএসটিআই ল্যাবরেটরিতে পরীক্ষা করা হলে এর মধ্যে ২৯টি টিতে নির্দিষ্ট মাত্রায় (১৫-৩০ পিপিএম) ভিটামিন ‘এ’ পাওয়া গেলেও ১৭টি তে কোন ভিটামিন ‘এ’ পাওয়া যায়নি এবং ৩ টিতে ৫ পিপিএম এর নিচে ভিটামিন ‘এ’ পাওয়া যায়। অর্থাৎ ড্রামজাত ভোজ্যতেলে ৫০টির মধ্যে ২১টিতে কাঙ্খিত মাত্রায় ভিটামিন ‘এ’ পাওয়া যায়নি।
তবে বোতলজাত ভোজ্যতেলের ৪৪টি নমুনার মধ্যে ৪২টিতে কাঙ্খিত মাত্রায় (১৫-৩০ পিপিএম) ভিটামিন ‘এ’ পাওয়া যায় এবং ২টি নমুনায় ভিটামিন ‘এ’ পাওয়া যায়নি। যে দুটি নমুনায় কাঙ্খিত মাত্রায় ভিটামিন ‘এ’ পাওয়া যায়নি তাদের বিরুদ্ধে আইন অনুযায়ী প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলে তিনি জানান।
গতকাল তেজগাঁওস্থ বিএসটিআই’র প্রধান কার্যালয়ে গেইন-বাংলাদেশ এর সহযোগিতায় ভোজ্যতেল রিফাইনারি প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধিদের সাথে ভোজ্যতেলে ভিটামিন ‘এ’ সমৃদ্ধকরণ এবং পরিশোধিত তেলে কালারের মাত্রা নির্ধারণ ও ড্রাম নিয়ন্ত্রণ সংক্রান্ত আলোচনা সভায় তথ্য জানান। আলোচনা সভায় বিএসটিআই’র পরিচালক (সিএম) প্রকৌশলী এস. এম. ইসহাক আলী, পরিচালক (মান) মো. সাজ্জাদুল বারী, শিল্প মন্ত্রণালয়ের ডেপুটি চিফ ড. মো. আল আমিন সরকারসহ শিল্প মন্ত্রণালয় এবং বিএসটিআই’র উর্ধ্বতন কর্মকর্তরা উপস্থিত ছিলেন। সভায় ভোজ্যতেল রিফাইনারিদের মধ্যে বাংলাদেশ এডিবল অয়েল, সিটি গ্রুপ, মোস্তফা গ্রুপ, এস আলম গ্রুপ, টি কে. গ্রুপ, তানভীর অয়েলস লিমিটেড, নর্দার্ন কনজ্যুমারস প্রোডাক্টস লিমিটেডসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।
বিএসটিআই মহাপরিচালক বলেন, ড্রামজাত ভোজ্যতেলে কোন কোম্পানির নাম উল্লেখ না থাকায় কোম্পানির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা যাচ্ছে না। তাই অবিলম্বে ড্রামের পরিবর্তে ফুডগ্রেড বোতলে ভোজ্যতেল বিক্রির জন্য রিফাইনারিসহ সংশ্লিষ্ট সকলকে নির্দেশনা দেন। এ ছাড়া সভায় ভোজ্যতেলে প্রাকৃতিক রং স্বাভাবিক মাত্রার চেয়ে না কমানোসহ ভোক্তা স্বার্থ সংরক্ষণে বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা হয়।
উল্লেখ্য, ভোজ্যতেলে ভিটামিন ‘এ’ সমৃদ্ধকরণ আইন, ২০১৩ অনুযায়ী ফর্টিফাইড সয়াবিন অয়েল, ফর্টিফাইড পাম অলিন, ফর্টিফাইড এডিবল পাম অলিন, ফর্টিফাইড রাইস ব্র্যান অয়েল, ফর্টিফাইড সানফ্লাওয়ার অয়েলে (১৫-৩০ পিপিএম) ভিটামিন ‘এ’ সমৃদ্ধকরণপূর্বক গুণগতমান নিশ্চিত করে বিক্রয়/বিতরণ/বাজারজাতকরণের বাধ্যবাধকতা রয়েছে।



 

Show all comments
  • রিয়াজ রাজু ২৮ মার্চ, ২০১৯, ২:৩২ এএম says : 0
    এতদিন ধরে যে কি খেয়ে আসছি আল্লাহই ভালো জানেন
    Total Reply(0) Reply
  • মুনিয়া মুনা ২৮ মার্চ, ২০১৯, ২:৩৪ এএম says : 0
    কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ না করলে অন্যায় কমবে না। ভিটামিন নিয়ে দুিই নাম্বারি করা যাবে না।
    Total Reply(0) Reply
  • রবিউল ইসলাম রুবেল ২৮ মার্চ, ২০১৯, ২:৩৫ এএম says : 0
    আল্লাহ আমাদের ভেজাল থেকে রক্ষা করুন। নেতৃত্বদেওয়ার থৌফিক দিন।
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বিএসটিআই


আরও
আরও পড়ুন