Inqilab Logo

ঢাকা, শনিবার, ২০ এপ্রিল ২০১৯, ৭ বৈশাখ ১৪২৬, ১৩ শাবান ১৪৪০ হিজরী।
শিরোনাম

উচ্চ রক্তচাপে ওষুধ সেবনে সতর্কতা

| প্রকাশের সময় : ২৯ মার্চ, ২০১৯, ১২:০৬ এএম

উচ্চ রক্তচাপ প্রধান স্বাস্থ্য সমস্যাগুলোর একটি। উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে না রাখলে বা রক্তচাপ উঠানামা করলে মানব দেহের কিডনী ধীরে ধীরে অকার্যকর হয়ে পড়ে। উচ্চ রক্তচাপে কিডনী ছাড়াও হার্ট, চোখ ও ব্রেনের ক্ষতি হতে পারে। হার্ট অ্যাটাক, রেনাল ফেইলিউর, স্ট্রোকের ঝুঁকি বেড়ে যায় কয়েক গুণ। রক্তচাপ স্বাভাবিক না থাকলে দেহের অন্যান্য অনেক চিকিৎসা করা কষ্টসাধ্য হয়ে পড়ে। কিন্তু আমাদের দেশের সব রোগীরা উচ্চ রক্তচাপের ওষুধ সব সময় ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী সেবন করেন না। রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে না থাকলে ওষুধের দোকান থেকে পরামর্শ নিয়ে ওষুধ সেবন করেন। উচ্চ রক্তচাপ নিরোধক ওষুধের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া রয়েছে। সব ওষুধ সব সময় সবাইকে দেওয়া যায় না। উচ্চ রক্তচাপ নিরোধক ওষুধ হিসাবে এটিনোলল জাতীয় ওষুধ প্রদান করা হয়। এটিনোলল জাতীয় ওষুধ কম বয়সী রোগীদের প্রদান না করাই ভাল। কারণ এটিনোলল জাতীয় ওষুধ যৌন কার্যকারিতা কমিয়ে দিতে পারে। এছাড়া এটি যৌন কামনাও কমিয়ে দিতে পারে যা বিবাহিতদের ক্ষেত্রে দাম্পত্য জীবনে অশান্তি ডেকে আনতে পারে। উচ্চ রক্তচাপ নিরোধক হিসাবে অঈঊ ইনহিবিটর জাতীয় ওষুধ সেবন করা হয়। বহু আমেরিকান নাগরিক এনজিওটেনশন কনভার্টিং এনজাইম (অঈঊ) ইনহিবিটর জাতীয় ওষুধ সেবন করেন তাদের উচ্চ রক্তচাপ কমানোর জন্য। কিন্তু সাম্প্রতিক এক গবেষণায় দেখা যায় অঈঊ ইনহিবিটর জাতীয় ওষুধ ৫ বছরের বেশী সেবন করলে ক্যান্সারের ঝুঁকি বেড়ে যায়। এ ওষুধ সেবনের ফলে ফুসফুসের ক্যান্সার হতে পারে। অঈঊ ইনহিবিটর শরীরে সে সব রাসায়নিকের পরিমাণ বৃদ্ধি করতে পারে যার সাথে ফুসফুসের ক্যান্সারের যোগসূত্র রয়েছে। বিশেষ করে ব্রাডিকাইনিন এবং সাবস্টেন্স পি নামে পরিচিত রাসায়নিক ফুসফুসের ক্যান্সারের সময় ফুসফুসে পাওয়া যায়। ব্রাডিকাইনিন ফুসফুসের ক্যান্সারের বৃদ্ধিকে প্রনোদনা দিয়ে থাকে। এছাড়া অঈঊ ইনহিবিটর জাতীয় উচ্চ রক্তচাপ নিরোধক ওষুধ সেবন করলে অনেকের শুকনো এবং খুসখুসে কাশি দেখা যায়। তবে ওষুধ বন্ধ করে দিলে ধীরে ধীরে শুষ্ক কাশি চলে যায়। অন্যান্য উচ্চ রক্তচাপ নিরোধক ওষুধ সেবনকালে শুষ্ক মুখ, কনস্টিপেশন, মুখের আলসার, মুখের জ্বালাপোড়া সহ খাবারের স্বাদ গ্রহণে সমস্যা দেখা দিতে পারে। মুখে আলসার ভাল না হলে উচ্চ রক্তচাপ নিরোধক ওষুধ পরিবর্তন প্রয়োজন হতে পারে। আর এসব সমস্যার সমাধান হতে হবে একজন চিকিৎসকের পরামর্শে। তাই উচ্চ রক্তচাপ নিরোধক ওষুধ একজন অভিজ্ঞ ডাক্তারের পরামর্শ মোতাবেক সেবন করতে হবে।

ডাঃ মোঃ ফারুক হোসেন
মুখ ও দন্তরোগ বিশেষজ্ঞ
মোবাইল ঃ ০১৮১৭৫২১৮৯৭
ই-মেইল ঃ dr.mdfaruquehossain@gmail.com



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: উচ্চ রক্তচাপ
আরও পড়ুন