Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার ২৩ মে ২০১৯, ০৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ১৭ রমজান ১৪৪০ হিজরী।

গলায় ফাঁস দিয়ে ঢাবি ছাত্রের আত্মহত্যা!

বিশ্ববিদ্যালয় রিপোর্টার : | প্রকাশের সময় : ৩০ মার্চ, ২০১৯, ১২:০৩ এএম

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ইতিহাস বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী সৌমিক মিত্র সবুজ গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। বৃহস্পতিবার রাতে তার নিজ গ্রামের বাড়ি পটুয়াখালীর গলাচিপায় গাছের সাথে ফাঁস দিয়ে তিনি আত্মহত্যা করেন। তার লাশ উদ্ধার করে পটুয়াখালী মর্গে ময়না তদন্তের জন্য রাখা হয়েছ। নিজ বিভাগে প্রথম বর্ষে দ্বিতীয় স্থান অধিকার করা এ শিক্ষার্থীর আত্মহত্যার প্রকৃত কারণ জানা না গেলেও পরীক্ষায় টিচারের কম মার্ক দেয়া আত্মহত্যার কারণ হতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছে তার সহপাঠীরা।
সূত্রে জানা যায়, আত্মহত্যাকারী শিক্ষার্থী গলাচিপা উপজেলার কচুয়া ইউনিয়নের চিকনিকান্দি গ্রামের বাসিন্দা। তিনি ঢাবি জগন্নাথ হলে থাকতেন। ছোট বেলায় পিতা হারানো সবুজ ডিপার্টমেন্টে ১ম বর্ষের ফাইনাল পরীক্ষায় দ্বিতীয় হয়েছেন। তিনি তার ব্যাচের (সি,আর) হিসেবে দায়িত্ব পালন করতেন। তার স্বপ্ন ছিলো তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক হবেন। গত তিন দিন আগে সবুজের ডিপার্টমেন্টের একটি কোর্সের মিডটার্মের রেজাল্ট দেয়। এতে ১৫ মার্ক এরমধ্যে মাত্র ৫ পান ওই শিক্ষার্থী। নাম্বার কম পাওয়ার বিষয়ে তিনি কোর্সের শিক্ষক এস এম রেজাউল করিমের কাছে যান। পরীক্ষা ভালো হওয়া সত্তে¡ও কম মার্ক পাওয়ার কারণ জানতে চাইলে শিক্ষক হাতের লেখা খারাপ হওয়ার কারণে কম নাম্বার এসেছে বলে জানান। এ ঘটনায় পর থেকেই হতাশায় নিমজ্জিত হয়ে পড়েন সবুজ। সবাইকে বিষয়টি জানান।
বিভাগের এক সিনিয়র শিক্ষার্থী সূত্রে জানা যায়, রেজাল্ট দেয়ার পর বিভাগের পিকনিকে সাফারি পার্কে সেখানেই বিষয়টি নিয়ে তার হলের ও বিভাগের এক সিনিয়রকে আক্ষেপ করে বলেন, আমার হাতের লেখা খারাপ। আমি আর ডিপার্টমেন্টে ভালো করতে পারবো না। ভাই (সিজিপিএ) ৩.৫ ও থাকবে না। তখন সবুজের চোখে মুখে হতাশার অনেক ছাপ দেখতে পান ওই সিনিয়র শিক্ষার্থী। পিকনিক থেকে ফিরেই বাড়ী চলে যান সবুজ। শুক্রবার সকালে তার ফাঁস দেয়া মরদেহ গাছে ঝুলন্ত অবস্থায় পাওয়া যায়। এ বিষয় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর প্রফেসর গোলাম রাব্বানী বলেন, আত্মহত্যার ঘটনাটি অত্যন্ত দুঃখজনক। আমরা বিষয়টি জেনেছে। এ বিষয়ে খোঁজ নিতে একজন শিক্ষককে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। ঘটনার সাথে বিভাগের শিক্ষকের সংশ্লিষ্টতা থাকলে সে বিষয়ে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।



 

Show all comments
  • ash ৩০ মার্চ, ২০১৯, ৯:০০ এএম says : 0
    JARA GOLAY DORI DIE MORCHE, BA ATTOHOTTA KORCHE, ODER MORTE DAO !! KARON ORA KAPURUSH- VITU TAI ORA E VABE GOLAY DORI DIE NIJE KE TAGGIE MARCHE, ATTOHOTTA KORCHE ! KARON ORA JANE JIBON JUDDY ORA TIKE THAKTE PARBE NA !! ORA KAPURUSH-KHUB E VITU !! ODER MORE JAWAI WICHITH ! NA HOLE ORA DESHER WPORE VOJA HOE THAKBE !!
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ