Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ২ আশ্বিন ১৪২৬, ১৭ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী।

মতবিনিময় সভায় বক্তারা : পরিবেশ দূষণে বিপর্যস্ত সাভার

স্টাফ রিপোর্টার, সাভার থেকে : | প্রকাশের সময় : ৫ এপ্রিল, ২০১৯, ১২:০৬ এএম

পরিবেশ, বন ও জলবায়ু মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি সাবের হোসেন চৌধুরী বলেছেন, টেকসই উন্নয়ন নিশ্চিত করতে হলে পরিবেশের উন্নয়নের উপর গুরুত্ব দিতে হবে। গভর্নেন্স বা সুশাসনের কোন বিকল্প নাই উল্লেখ করে তিনি বলেন, আমরা যদি অন্ধভাবে শুধু উন্নয়ন করি এবং গভর্নেন্স এবং পরিবেশের বিষয়টি এড়িয়ে যাই তাহলে এ উন্নয়নের ধারা ধরে রাখতে পারবো না। গতকাল বুধবার সাভার গলফ ক্লাব মিলনায়তনে ‘পরিবেশ দূষণে বিপর্যস্ত সাভার : উত্তরণের উপায়’ শীর্ষক এক মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
সভায় বিশেষ আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, পরিবেশ অধিদপ্তরের মহা-পরিচালক ড. সুলতান আহমেদ, রেজাউল করিম বাবলু এমপি ও খোদেজা নাসরিন আক্তার হোসেন এমপি। বক্তারা এসময় সাভারে পরিবেশের বিভিন্ন বিপর্যয়ের দিক তুলে ধরেন।
পরিবেশ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ড. সুলতান আহমেদ বলেন, আমার ঘুরে দেখেছি বিভিন্ন কারখানার বর্জ্য খালে, নদীতে ফেলা হচ্ছে। আমরা ওইসব কারখানা কর্তৃপক্ষকে ডেকে ব্যবস্থা নিব। পরিবেশ বিপর্যয়ের কথা স্বীকার করে পৌর মেয়র বলেন, পৌরসভার আওতাধীন সড়কের পাশে জমে থাকা ময়লা আবর্জনা পরিষ্কার করার ব্যবস্থা করা হবে। তবে মিল-কারখানার বর্জ্য নদীতে কিংবা খালে বিলে ফেলার বিষয়ে ব্যবস্থা নেয়ার এখতিয়ার পৌরসভার নেই।
পরিবেশ বিপর্যয়ের কথা স্বীকার করে পৌর মেয়র বলেন, পৌরসভার আওতাধীন সড়কের পাশে জমে থাকা ময়লা আবর্জনা পরিষ্কার করার ব্যবস্থা করা হবে। তবে মিল-কারখানার বর্জ্য নদীতে কিংবা খালে বিলে ফেলার বিষয়ে ব্যবস্থা নেয়ার এখতিয়ার পৌরসভার নেই।
সাভার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শেখ রাসেল হাসান বলেন, অবৈধ দখলদারদের উচ্ছেদের বিষয়টি জেলা প্রশাসকের দপ্তরের মাধ্যমে হয়। সেসব বিষয়ে কাজ চলছে। বেপজার সুপারেনটেন্ট ইঞ্জিনিয়ার মো: হাসানুজ্জামান বলেন, তাদের ডিইপিজেডের কোন বর্জ্য ধলাইবিলে যাচ্ছে না। বাহিরের কারখানার বর্জ্য পড়ছে ধলাই বিলে। তখন স্থানীয়দের তোপের মুখে পড়েন তিনি।
এর আগে স্থায়ী কমিটির সদস্যরা আমিনবাজার ডাম্পিং স্টেশন, চামড়া শিল্প নগরীর সিইটিপি, কর্ণপাড়া খাল পরিদর্শন করেন। অনুষ্ঠানের শুরুতে সাভারে বিপর্যস্ত পরিবেশ নিয়ে একটি ডকুমেনটরিও দেখানো হয়।
বাংলাদেশ পরিবেশ আইনবিদ সমিতির (বেলা) নির্বাহী পরিচালক সৈয়দা রিজওয়ানা হাসানের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে সাভার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, পৌর মেয়র, জনপ্রতিনিধি, রাজনীতিক নেতৃবৃন্দ, প্রশাসনের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ, ক্ষতিগ্রস্থ পরিবার, বিভিন্ন সামাজিক সংগঠনের প্রতিনিধিসহ সাভার এলাকার বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষ উপস্থিত ছিলেন।
অনুষ্ঠানটির আয়োজন করে বাংলাদেশ পরিবেশ আইনবিদ সমিতি (বেলা), বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা), নিজেরা করি, এসোসিয়েশন ফর ল্যান্ড রিফর্ম এন্ড ডেভেলপমেন্ট (এএলআরডি), ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি), নদী ও পরিবেশ উন্নয়ন পরিষদ।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ