Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৮ আশ্বিন ১৪২৬, ২৩ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী

যোগী ও মায়াবতীর প্রচারে নিষেধাজ্ঞা কমিশনের

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৫ এপ্রিল, ২০১৯, ৪:২৮ পিএম

হেট স্পিচের মাধ্যমে নির্বাচনী বিধিভঙ্গের জন্য ভারতে নির্বাচনের কমিশনের শাস্তির মুখে পড়তে হল উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ ও বিএসপি সুপ্রিমো মায়াবতীকে। প্রথম জন ৭২ ঘণ্টা এবং দ্বিতীয় জন ৪৮ ঘণ্টা প্রচার চালাতে পারবেন না।

কমিশন জানিয়েছে, মঙ্গলবার সকাল ৬টা থেকে ৭২ ঘণ্টা কোনও নির্বাচনী প্রচার সভায় বক্তব্য রাখতে পারবেন না যোগী আদিত্যনাথ। আর মায়াবতীর উপর একই নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে মঙ্গলবার সকাল ৬টা থেকে ৪৮ ঘণ্টা পর্যন্ত। যোগীর উপর শাস্তির খাঁড়া নেমে এসেছে মূলত তার ‘মোদী কি সেনা’ মন্তব্যের জন্য। বিভিন্ন প্রচারসভায় গিয়ে সেনাবাহিনীকে রাজনীতিতে টেনে এনেছেন তিনি। সম্প্রতি গাজিয়াবাদের একটি সভায় তিনি বলেছিলেন, ‘কংগ্রেসের লোকজন সন্ত্রাসবাদীদের বিরিয়ানি খাওয়াত। আর মোদীজির সেনা তাদের শুধু বুলেট আর বোমা দেয়।’ তার এই মন্তব্যের সমালোচনা করেছেন তার দলীয় নেতারাও।

এই ইস্যুতে পদক্ষেপ না-করায় এদিন কমিশনকে একহাত নেয় সুপ্রিম কোর্ট। বলে, অভব্য নেতাদের সবক শেখাতে তাদের কী ক্ষমতা রয়েছে, তা কি ভুলে গিয়েছে নির্বাচন কমিশন? শীর্ষ আদালতের ‘ধমক’ খাওয়ার কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই যোগী ও মায়াবতীর বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নিল কমিশন।

 



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন