Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার ১৮ জুলাই ২০১৯, ০৩ শ্রাবণ ১৪২৬, ১৪ যিলক্বদ ১৪৪০ হিজরী।

ময়মনসিংহে ট্রাকচাপায় দম্পতিসহ নিহত ৪

অন্যান্য স্থানে প্রাণহানি আরো ৫ জনের

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২১ এপ্রিল, ২০১৯, ১২:০৫ এএম

ময়মনসিংহে ট্রাকচাপায় দম্পতিসহ সিএনজিচালিত অটোরিকশার চার যাত্রী নিহত হয়েছে। এছাড়াও দেশের বিভিন্ন স্থানে প্রাণহানি ঘটেছে আরো ৫ জনের। এসব দুর্ঘটনায় আহত হয়েছেন আরো ২০ জন। আমাদের সংবাদদাতাদের পাঠানো প্রতিবেদনে এসব তথ্য জানা গেছে।
ময়মনসিংহ ব্যুরো জানায়, সদর উপজেলার আলালপুর এলাকায় ট্রাকচাপায় এক দম্পতিসহ সিএনজিচালিত অটোরিকশার চার যাত্রী নিহত হয়েছে। গতকাল শনিবার বেলা সোয়া ১১টার দিকে এ দুর্ঘটনাটি ঘটে। এতে আহত হয়েছেন আরো দুইজন। নিহতরা হলেন, মুক্তিযোদ্ধা মোস্তাফিজুর রহমান (৬২) ও তার স্ত্রী রহিমা খাতুন (৪৫), ইউনুস (৬০) ও তার ভাই কদ্দুস (৩৫)। তারা তারাকান্দা ও ফুলপুর উপজেলার বাসিন্দা।
কোতোয়ালি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাহমুদুল ইসলাম জানান, ময়মনসিংহ শহর থেকে ছয় যাত্রী নিয়ে একটি সিএনজিচালিত অটোরিকশা তারাকান্দা উপজেলায় যাচ্ছিলো।
আলালপুর এলাকায় যাওয়ার পর বিপরীত দিক থেকে আসা একটি ট্রাক সিএনজিচালিত অটোরিকশাকে চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই অটোরিকশার ৪ যাত্রীর মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় আহত দুজনকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ (মমেক) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
ঝিনাইদহে ২ জন নিহত
ঝিনাইদহ জেলা সংবাদদাতা জানান, শৈলকুপা ও হরিণাকুন্ডু উপজেলায় সড়ক দুর্ঘটনায় ২ জন নিহত হয়েছেন। এরা হলেন বশির আলী সরদার (৫০) ও নুরুল হুদা (৪০)। গতকাল শনিবার সকালে শৈলকুপার দুধসর এলাকায় অজ্ঞাত যানবাহনের ধাক্কায় বশির আলী সর্দার নামে এক ভ্যান চালক নিহত হয়। নিহত বশির সর্দার শৈলকুপা উপজেলার দুধসর গ্রামের মকসেদ আলীর ছেলে।
এদিকে হরিণাকুন্ডু উপজেলার ধুলিয়া গ্রামে শুক্রবার রাতে মটরসাইকেল নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাছের সাথে ধাক্কা লেগে নারায়নকান্দি গ্রামের মোশাররফ বিশ্বাসের ছেলে নুরুল হুদা নিহত হন। এ সময় তিনি আলমডাঙ্গার জামজামি বাজার থেকে মটরসাইকেল যোগে বাড়ি ফিরছিলেন।
কুষ্টিয়ায় পৃথক দুর্ঘটনায় নিহত ২
স্টাফ রিপোর্টার, কুষ্টিয়া থেকে জানান, জেলায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় ২ জন নিহত হয়েছেন। গতকাল শনিবার সকাল সাড়ে ছয়টা থেকে সাড়ে সাতটার মধ্যে এই মার্মান্তিক দুর্ঘটনাটি ঘটে। নিহত ব্যক্তিরা হলেন, মিরপুর উপজেলার রানাখড়িয়া এলাকার রমজান আলী (৬৫) ও মির্জানগর গ্রামের সাবুল মন্ডল (৪৫)। পুলিশ দুজনের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠিয়েছে।
কুষ্টিয়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নাসির উদ্দীন বলেন, সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে কুষ্টিয়া শহরতলির ত্রিমোহিনী এলাকায় দ্রুতগামী একটি ট্রাক তামাক বোঝাই ভ্যানকে পেছন থেকে ধাক্কা দেয়। এতে ভ্যানচালক সাবুল মন্ডল সড়কে ছিটকে পড়ে ট্রাকের চাপায় পিষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান। এ দুর্ঘটনায় সাব্দার মুন্সী ও আসহাব প্রামাণিক নামের ভ্যানের দুই আরোহী আহত হন। স্থানীয় লোকজন আহতদের উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করে। সাবু মির্জানগর গ্রামের গেদা মন্ডলের ছেলে।
অপর দুর্ঘটনাটি ঘটে একই সড়কের চার কিলোমিটার দূরে জ্যোতি তেল পাম্পের কাছে।
স্থানীয় হাইওয়ে পুলিশ উপপরিদর্শক (এসআই) জয়নুল ইসলাম বলেন, সকাল সাড়ে সাতটার দিকে মিরপুর উপজেলার রানাখড়িয়া এলাকায় ট্রাকের চাপায় পিষ্ট হয়ে পথচারী রমজান আলী প্রামাণিক নামের এক ব্যক্তি ঘটনাস্থলেই মারা যান। লাশ উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। নিহত রমজান মোল্লা রানাখড়িয়া গ্রামের মৃত সোনা মোল্লার ছেলে
পার্বতীপুরে ট্রাক্টর-মোটরসাইকেল সংঘর্ষে খনি শ্রমিক নিহত
পার্বতীপুর (দিনাজপুর) উপজেলা সংবাদদাতা জানান, পার্বতীপুরে ট্রাক্টর-মোটরসাইকেল মুখোমুখি সংঘর্ষে মোটরসাইকেল চালক সামিউল হক (২৫) নামে এক কয়লা খনি শ্রমিক নিহত হয়েছেন। গতকাল শনিবার দুপুরে পার্বতীপুর-ফুলবাড়ী সড়কে বড়পুকুরিয়া তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের আবাসিক গেটের সামনে এ দুর্ঘটনা ঘটে।
সামিউল দিনাজপুর জেলার নবাবগঞ্জ উপজেলার ভালুকা গ্রামের সামসুল হকের ছেলে। তিনি বড়পুকুরিয়া কয়লা খনির একজন শ্রমিক। বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের (আইসি) উপ-পরিদর্শক (এস আই) সিরাজুল হক (পিপিএম) বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, ঘাতক ট্রাক্টরটি আটক করা হয়েছে।
হাতিয়ায় বরযাত্রীবাহী গাড়ী উল্টে আহত ১৮
নোয়াখালী ব্যুরো জানায়, হাতিয়া উপজেলার চরঈশ্বর ইউনিয়নে বরযাত্রীবাহী জিপ উল্টে ১৮ জন আহত হয়েছে। পরে আহতদের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। গতকাল শনিবার সকালে কাজীর বাজার এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। আহতরা হলো, রিতা রানী (৩৬), কাঞ্চনবালা মজুমদার (৪০), যতন (২৫), রবীন্দ্র দাস (৪৫), বিষম্বর বাবু (৬৫), রণজিত চন্দ্র মজুমদার (৫০), নিরব দাস (১৬), নিবারন (৩৭), মৃণাল চন্দ্র মজুমদার (৫৫), রবীন্দ্র (৬৫), বাঁধন (১৫), তৃষ্ণা চন্দ্র সজুমদার (১০), শুভ (১৬), কৃষ্ণধন মজুমদার (৩০), নমিতা মজুমদার (৬০)সহ ১৮ জন। এদের মধ্যে বাঁধন, মৃণাল চন্দ্র মজুমদার ও বিষম্বরের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাদের নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে।
জানা গেছে, চরকিং দাস পাড়ার অভিলাস মজুমদারের মেয়ে সিটু রাণী মজুমদারের বিয়ে শুক্রবার দিবাগত রাতে চরঈশ্বর ইউনিয়নের রাজের হাওলার সুধীর মজুমদারের ছেলে সনজীব মজুমদারের সাথে হয়। অনুষ্ঠান শেষে বরযাত্রীবাহী জিপ নিয়ে শনিবার সকালে বরের বাড়ী ফেরার পথে কাজীর বাজারের পশ্চিম পাশে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে জিপটি খাদে পড়ে যায়।
হাতিয়া থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) জিসান আহমেদ জানান, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে আহতদেরকে উদ্ধার করে হাতিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেছে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন