Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ১ আশ্বিন ১৪২৬, ১৬ মুহাররম ১৪৪১ হিজরী।

ইরান-আমিরাতে বরফ বন্যা

মিডল ইস্ট মনিটর | প্রকাশের সময় : ২৩ এপ্রিল, ২০১৯, ১২:০৪ এএম

প্রচন্ড গরমের সময় রহস্যময় ও চরম আবহাওয়া সউদী আরব, ইরান ও সংযুক্ত আরব আমিরাতের মরুভূমিতে বরফ বন্যা সৃষ্টি করেছে। খবরে বলা হয়, আবহাওয়ার এমন আচরণ এ অঞ্চলের আবহাওয়াবিদদের বিস্ময় স্তম্ভিত করেছে। বছরের এপ্রিল মাসে এ অঞ্চলে প্রখর রোদ থাকে। গত সপ্তাহে তিউনিসিয়ার বেশ কয়েকটি অংশে বরফপাত ও মুষলধারে বৃষ্টিপাতে গুরুতর অবস্থার সৃষ্টি হয়।
লেভান্টব্যাপী বন্যা ও ঠান্ডা আবহাওয়ার সাথে বৃষ্টিতে সউদী আরবের রিয়াদে মারাত্মক বন্যা এবং ইউএই’তে শিলাবৃষ্টি, বজ্রঝড় ও আকস্মিক বন্যা ঘটে। একই সময় অত্যধিক বৃষ্টিপাতের কারণে সৃষ্ট আকস্মিক বন্যায় ইরানে প্রায় একশত গ্রাম থেকে লোকজনকে সরিয়ে নেয়া হয়। অপরদিকে সউদী আরবের বিরাট এলাকা বরফে ঢাকা পড়ে। এ বরফপাত স্থানীয় অধিবাসীদের বিস্মিত ও বিজ্ঞানীদের উদ্বিগ্ন করেছে। এক পর্যায়ে সউদী আরবে শিলাবৃষ্টি এত প্রচন্ড রূপ নেয় যে তা বরফ বন্যার সৃষ্টি করে।
ইউএই-র জাতীয় আবহাওয়া কেন্দ্রের আবহাওয়া বিশেষজ্ঞ ড. আহমাদ হাবিব বলেন, এপ্রিলে উষ্ণ আবহওয়া স্বাভাবিক। এ সময়ে এমন আবহাওয়া একেবারেই বেমানান। গোটা অঞ্চলের জন্য এক অস্থিতিশীলতার কাল।
বিশেষজ্ঞরা বলছেন, অস্বাভাবিক আবহাওয়া জলবায়ু পরিবর্তনের লক্ষণ হতে পারে। দুবাইয়ের এক জলবায়ু ও পানি মডেলিং বিজ্ঞানী ড. করিম বারগাউই বলেন, বহু দেশেই এবারের এপ্রিল ব্যতিক্রম। যেমন তিউনিসিয়ায় বরফপাত হয়েছে। এটা অস্বাভাবিক বিষয়। কারণ উত্তর আফ্রিকায় পর পর তিন বছর ধরে খরা চলছে।
ইউএই বিশ্ববিদ্যালয়ে জীববিদ্যার সহযোগী অধ্যাপক ড. তাওফিক কেসিসি বলেন, উত্তর ও পশ্চিম আফ্রিকায় আবহাওয়া অস্বাভাবিক।



 

Show all comments
  • মাহমুদুল হাসান রাশদী ২৩ এপ্রিল, ২০১৯, ১:৩২ এএম says : 0
    এটা কিসের নির্দশন আল্লাহই ভালো জানেন। কিয়ামত মনে হয় কাছাকাছি চলে এসেছে।
    Total Reply(0) Reply
  • নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ২৩ এপ্রিল, ২০১৯, ১:৩১ এএম says : 0
    সবই আল্লাহতায়ালার ইচ্ছা, নাহলে মরুভূমিতে বরফ বন্যয় হয়?
    Total Reply(0) Reply
  • মোহাম্মদ আলি হোসেন ২৩ এপ্রিল, ২০১৯, ১২:২৭ এএম says : 0
    এই সবই । আল্লাহর গজবের।নমুনা ।উচু উঁচু।দালান ।এসবের।কারন।আল্লাহ পাক।রবুল ইজ্জ্বত।আমাদের হেদায়েত করুন।আমিন।
    Total Reply(0) Reply
  • স্বদেশ আমার ২৩ এপ্রিল, ২০১৯, ১:৩২ এএম says : 0
    মহান আল্লাহ চােইলে সবকিছুই পারেন। আমাদের এ থেকে শিক্ষা নেওয়ার আছে।
    Total Reply(0) Reply
  • Faruk Shekh ২৩ এপ্রিল, ২০১৯, ১:২৮ এএম says : 0
    আলামত গুলো একটু ভাবনার বিষয়
    Total Reply(0) Reply
  • রামিজ ২৩ এপ্রিল, ২০১৯, ১:৩৩ এএম says : 0
    হে আাল্লাহ তুমি তোমার মহা গজব থেকে এই জনপদকে রক্ষা কর।
    Total Reply(0) Reply
  • Amir hossain ২৩ এপ্রিল, ২০১৯, ১:৫৯ এএম says : 0
    Jehetu sahih hathis ache.jokho lmam mahodir athoprosh ghotbe tokhon bissonabi sallallahu alaihi wssalam bolechen tomora boropher paharer upor diye hama-gumi diye holeo l mam mahodir kacue bayat nine. Sahih hathis ache jokhon lmam mahodir prokash ghotbe tokhon boropher upor diye hama-gumi diye holeo lmam mahodir nikot bayat nibe
    Total Reply(0) Reply
  • Amir hossain ২৩ এপ্রিল, ২০১৯, ২:০১ এএম says : 0
    Jehetu sahih hathis ache.jokho lmam mahodir athoprosh ghotbe tokhon bissonabi sallallahu alaihi wssalam bolechen tomora boropher paharer upor diye hama-gumi diye holeo l mam mahodir kacue bayat nine. Sahih hathis ache jokhon lmam mahodir prokash ghotbe tokhon boropher upor diye hama-gumi diye holeo lmam mahodir nikot bayat nibe
    Total Reply(0) Reply
  • মুজাহিদ ২৩ এপ্রিল, ২০১৯, ১:৪৪ পিএম says : 0
    তুমরা বোঝনা মুসলমানরা মুসলমান নাই । ইহুদি খিরিসটানদের দালাল হয়েসে । তাই আললাহর লানত ।
    Total Reply(0) Reply
  • Mohosin ২৩ এপ্রিল, ২০১৯, ২:২২ পিএম says : 0
    ভাই ঠিক কথায় বলছেন মুসলমান আর মুসলিম নাই
    Total Reply(0) Reply
  • Abu Abdur Rahman ২৯ এপ্রিল, ২০১৯, ১১:১৯ এএম says : 0
    إنلحمدلله আমার আসলে বুঝে আসেনা যে অধিকাংশ মুসলিমরাই আজ বেহুস হয়ে পড়েছে কেনো? এদের পৃথিবীতে বিচরনের ভঙ্গি দেখলে মনে হয় এরা মানুষিক রোগী আজ শুধু এই আবহাওয়াই নয় বরং বিশ্ব মুসলিমদের যে অরাজাগতার পরিস্থিতি বিরাজ করছে তা ইমাম মাহদি দাজ্জাল ও ঈসা আঃ আগমনেরি পূর্বাভাস। কারণ রাসূল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম তার ভবিষ্যৎবাণীতে বলেছেন। যখন ইমাম মাহদি আরবে আসবে। তখন তোমরা বরফের উপরে হামাগুরি দিয়ে হলেও তার সাথে যোগ দিবে। এবার বলুনতো? বিগত প্রায় 1450 বছর আগে কি আরবে বরফ ছিল? তাহলে এটা কি?
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ
গত​ ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ