Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার ২০ মে ২০১৯, ০৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ১৪ রমজান ১৪৪০ হিজরী।

খালেদা জিয়ার জামিন ও খালাস আপিলের শুনানি ৩০ এপ্রিল

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৪ এপ্রিল, ২০১৯, ১২:০৩ এএম

জিয়া দাতব্য ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় বিচারিক আদালতের দেয়া দন্ড বাতিল ও খালাস চেয়ে খালেদা জিয়ার করা আপিল গ্রহণ করা হবে কি না, সে বিষয়ে শুনানির দিন ঠিক করেছে হাইকোর্ট। তার আইনজীবী জয়নুল আবেদীন আপিলটি গ্রহণে শুনানির জন্য তারিখ চাইলে বিচারপতি ওবায়দুল হাসান ও বিচারপতি এস এম কুদ্দুছ জামানের হাইকোর্ট বেঞ্চ আগামী মঙ্গলবার (৩০ এপ্রিল) শুনানির তারিখ ধার্য করেন।
পরে জয়নুল আবেদীন সাংবাদিকদের বলেন, আপিলটির অ্যাডমিশন হিয়ারিংয়ের জন্য ম্যানশন করেছিলাম। আগামী মঙ্গলবার অ্যাডমিশন হিয়ারিং হবে। আপিল গ্রহণের শুনানির সাথে জামিন আবেদনের শুনানিরও বিধান আছে। জামিন আবেদন করা আছে। আমরা আশা করছি ওই দিন অ্যাডমিশন আবেদনের সাথে বেইল আবেদনেরও হিয়ারিং হবে। জিয়া দাতব্য ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলার রায়ের সত্যায়িত অনুলিপি হাতে পাওয়ার চার দিন পর গত বছর ১৮ নভেম্বর হাইকোর্টে আপিল করেন আইনজীবীরা। ৬৩৮ পৃষ্ঠার মূল রায়সহ প্রায় ৭০০ পৃষ্ঠার এই আপিলের সঙ্গে হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় জামিন আবেদনও করা হয়েছে।
উল্লেখ্য, ঢাকার পঞ্চম বিশেষ জজ আখতারুজ্জামান গত বছরের ২৯ অক্টোবর এ মামলার রায় ঘোষণা করেন। জিয়া দাতব্য ট্রাস্টের নামে আসা প্রায় সোয়া ৩ কোটি টাকা আত্মসাতের দায়ে সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়াসহ চার আসামির সবাইকে সাত বছর করে সশ্রম কারাদন্ড দেন তিনি। পাশাপাশি তাদের ১০ লাখ টাকা করে জরিমানা, অনাদায়ে আরো ছয় মাসের কারাদন্ড দেয়া হয়। আর ট্রাস্টের নামে কেনা কাকরাইলের ৪২ কাঠা জমি রাষ্ট্রের অনুকূলে বাজেয়াপ্ত ঘোষণা করা হয় রায়ে।
খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে এটি দ্বিতীয় রায়; এর আগে গত বছরের ফেব্রুয়াারিতে জিয়া এতিমখানা ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় সাজার রায়ের পর থেকে তিনি কারাবন্দি। এতিমখানা দুর্নীতির মামলায় বিচারিক আদালত বিএনপি চেয়ারপারসনকে ৫ বছর কারাদন্ড দিলেও আপিলের রায়ে হাইকোর্ট সাজা বাড়িয়ে ১০ বছর কারাদন্ডাদেশ দেয়।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন