Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৯, ০২ কার্তিক ১৪২৬, ১৭ সফর ১৪৪১ হিজরী

ইংল্যান্ড বিশ্বকাপের সেরা অধিনায়ক মাশরাফি : শোয়েব আখতার

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৬ এপ্রিল, ২০১৯, ৩:৪২ পিএম

২০১৪ সালে অধিনায়কত্ব নেয়ার পর বাংলাদেশ দলের পুরো চেহারাই আমূল বদলে দিয়েছেন মাশরাফি বিন মর্তুজা। ২০১৫ সালের বিশ্বকাপে প্রথমবারের মতো দেশকে কোয়ার্টার ফাইনালে তোলা দিয়ে শুরু, এরপর থেকে গত চার বছরে মাশরাফির অধীনে অভূতপূর্ব সব সাফল্য পেয়েছে বাংলাদেশ দল।

তাই তো আসন্ন ওয়ানডে বিশ্বকাপের অন্যতম সেরা অধিনায়ক হিসেবেই গণ্য করা হচ্ছে মাশরাফিকে। একদিক দিয়ে অবশ্য সবার চেয়ে এগিয়েই রয়েছেন মাশরাফি। বিশ্বকাপের অন্য সব অধিনায়কের চেয়ে অভিজ্ঞ যে তিনিই।

চলতি বিশ্বকাপের অন্যান্য ৯ অধিনায়কের কেউই খেলেননি ২০০৭ সালের বিশ্বকাপ। সেখানে মাশরাফির ক্যারিয়ারের প্রথম বিশ্বকাপ ২০০৩ সালেরটি। ফলে অভিজ্ঞতার দিক দিয়ে অন্য সবার চেয়ে এক ধাপ এগিয়েই রয়েছেন তিনি।

তবে শুধু অভিজ্ঞতার বিচারে নয়, দলকে নেতৃত্ব দেয়া এবং এক সুতোয় বেঁধে রাখার পারদর্শিতার কারণে এরই মধ্যে মাশরাফিকে বিশ্বকাপের সেরা অধিনায়ক হিসেবে ঘোষণা দিয়েছেন পাকিস্তানের কিংবদন্তি পেসার শোয়েব আখতার।

পাকিস্তানের টিভি চ্যানেল পিটিভি স্পোর্টসের ‘গেম অন হ্যায়’ নামক এক অনুষ্ঠানে সব দলের বিশ্বকাপ স্কোয়াড সম্পর্কে আলোচনা করতে গিয়ে এ কথা বলেন শোয়েব। তার সঙ্গে একই অনুষ্ঠানে থাকা রশিদ লতিফও ইতিবাচক কথা বলেন টাইগারদের ব্যাপারে।

অনুষ্ঠানের একপর্যায়ে রশিদ লতিফ যখন মাশরাফির কৃতিত্ব ব্যাখ্যা করার জন্য শব্দ খুঁজে পাচ্ছিলেন না তখন তাকে থামিয়ে শোয়েব বলেন, ‘এক কথায় ইংল্যান্ড বিশ্বকাপের সেরা অধিনায়ক মাশরাফি। তবে তাদেরকে বেশী উচ্চাভিলাষী হওয়া যাবে না। তাহলেই তারা বিশ্বকাপে ভালো করবে।’

এসময় বাংলাদেশের বিশ্বকাপ স্কোয়াডের গভীরতা সম্পর্কে আলাপ করতে গিয়ে রশিদ লতিফ বলেন, ‘২০১৪ সাল থেকেই দারুণ ক্রিকেট খেলেছে বাংলাদেশ। তারা ঘরের মাঠে ভারত, পাকিস্তান, দক্ষিণ আফ্রিকার মত দলকে হারিয়েছে ওয়ানডেতে। ২০১৫ বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডকে বিদায় করে দিয়েছিল তারা। বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানরা অনেক সুন্দর স্ট্রাইক রোটেট করে খেলতে পারে যেটি তাদের জন্য একটি প্লাস পয়েন্ট।’



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ক্রিকেট

২৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৯

আরও
আরও পড়ুন