Inqilab Logo

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ অক্টোবর ২০১৯, ০৬ কার্তিক ১৪২৬, ২২ সফর ১৪৪১ হিজরী

মাগুরায় টিসিবি পণ্যের সুফল পাচ্ছে না ভোক্তারা

১৪ ডিলারের মধ্যে ১২ জনই পণ্য উত্তোলন করেনি

স্টাফ রিপোর্টার, মাগুরা থেকে | প্রকাশের সময় : ১৫ মে, ২০১৯, ১২:০৩ এএম

মাগুরার নির্ধারিত টিসিবির ডিলাররা তাদের জন্য বরাদ্দকৃত পন্য উত্তোলন না করায় ন্যায্যমূল্যে পণ্য ক্রয় থেকে বঞ্চিত হচ্ছে জেলার ভোক্তারা। মাগুরা জেলার ১৪ জন ডিলার নিযুক্ত করা হলেও মাত্র ২ জন ডিলার পণ্য উত্তোলন করায় সরকারের ন্যায্য মূল্যে দেয়া পণ্য ক্রয় থেকে বঞ্চিত হচ্ছে ভোক্তারা। রমজানকে সামনে রেখে ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি) সারা দেশেরমত মাগুরায় সয়াবিন, খেজুর, চিনি, ছোলা এবং ডাল বিক্রয় শুরু করে। বাজারমূল্য বেশী হওয়ায় ক্রেতারা টিসিবির দেয়া পণ্য কিনতে ভীড় জমায়। টিসিবি প্রতি লিটার সয়াবিন ৮৫ টাকায়, চিনি ৪৭ টাকা, মসুর ডাল ৪৪ টাকা ছোলা ৬০ টাকা এবং খেজুর ১৩৫ টাকা কেজি দরে বিক্রি করছে। একজন ক্রেতা সর্বোচ্চ চার কেজি চিনি ও মসুর ডাল, ছোলা, তেল পাঁচ লিটার এবং খেজুর ১ কেজি করে নিতে পারবে। প্রচার প্রচারণা তেমন না থাকায় ভোক্তারা অনেকেই জানতে পারেনি। সয়াবিন তেলের মূল্য বাজার থেকে বেশী হওয়ায় ক্রেতারা নিতে চাচ্ছেনা। আর ডিলাররা সয়াবিন না নিলে অন্য পণ্য বিক্রি করছেনা। এ অভিযোগ ক্রেতাদের। টিসিবির পন্য ন্যায্যদামে বিক্রি হচ্ছে সাধারণ মানূষ না জানায় যাদের প্রয়োজন তারা না পেয়ে পাচ্ছেন সামর্থবানরা। ১৪ জন ডিলারের মধ্যে মাত্র ২ জন ডিলার পণ্য উত্তোলন করায় মাগুরাবাসী গত বছরের মত এবার ও স্বল্পমূল্যে পণ্য প্রাপ্তি থেকে বঞ্চিত হচ্ছে।
সরকারের একটি মহতি উদ্যোগ সংশ্লিষ্ট কতৃপক্ষের কারণে প্রতি বছর ব্যর্থ হয়। এ ব্যর্থতার কোন শাস্তিমূলক পদক্ষেপ না নেয়ায় প্রতি বছর এ সমস্যা দেখা দেয়। আগে থেকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করলে মাগুরার জনগণ এ বঞ্চনার সম্মুখীন হতোনা, এ মন্তব্য এলাকার অভিজ্ঞজনদের।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন