Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার ১৭ জুন ২০১৯, ৩ আষাঢ় ১৪২৬, ১৩ শাওয়াল ১৪৪০ হিজরী।

ছাত্রলীগের কমিটিতে ‘বিতর্কিত’ ৯৯ নেতা

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৭ মে, ২০১৯, ১২:০৩ এএম | আপডেট : ৫:২২ এএম, ১৭ মে, ২০১৯

ছাত্রলীগের ৩০১ সদস্যের পূর্ণাঙ্গ কমিটির প্রায় এক-তৃতীয়াংশ, সংখ্যায় ৯৯ জনকেই ‘বিতর্কিত’ বলে আখ্যা দিয়েছেন ওই কমিটির পদবঞ্চিতরা। কী কারণে ছাত্রলীগের ওই নেতারা বিতর্কিত তা উল্লেখ করা হয়েছে তালিকায়।

গতকাল দুপুরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) মধুর ক্যান্টিনে সংবাদ সম্মেলনে পদবঞ্চিতরা এ তালিকা প্রকাশ করেন।
সংবাদ সম্মেলনে তারা বলেন, গত বুধবার রাতে ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক ধানমন্ডিতে সংবাদ সম্মেলন করে বিতর্কিত ১৭ জনের নাম উল্লেখ করেন। এতেই প্রমাণ হয়, আমাদের দাবি যৌক্তিক। তবে তারা ১৭ জন বললেও এই কমিটিতে ৯৯ জনই বিতর্কিত।
পদবঞ্চিতরা এই ৯৯ জন বিতর্কিত নাম প্রকাশ করেন এবং তাদের বিতর্কের কারণ তুলে ধরেন। এর আগে ছাত্রলীগের সদ্য ঘোষিত ৩০১ সদস্যের পূর্ণাঙ্গ কমিটিতে ঠাঁই পাওয়া বিতর্কিত নেতাদের বাদ দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন আওয়ামী লীগ সভাপতি ও ছাত্র সংগঠনটির অভিভাবক প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রধানমন্ত্রী তার সরকারি বাসভবন গণভবনে বুধবার (১৫ মে) দুপুরে ছাত্রলীগের সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন ও সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানীকে ডেকে এ নির্দেশ দেন। এ সময় আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির নানক, উপদফতর সম্পাদক ও প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী বিপ্লব বড়ুয়া এবং কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সদস্য এস এম কামাল হোসেন উপস্থিত ছিলেন।
গণভবন সূত্রে জানা গেছে, শোভন-রাব্বানীর সঙ্গে কথা বলার আগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ছাত্রলীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটির দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতা জাহাঙ্গীর কবির নানকের সঙ্গে একান্তে আলাপ করেন।
এ সময় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ছাত্রলীগের পূর্ণাঙ্গ তালিকায় থাকা ১২ থেকে ১৫ জন বিতর্কিত নেতার নাম কালি দিয়ে চিহ্নিত করে তাদের বাদ দেওয়ার নির্দেশ দেন। তালিকায় যদি আরও কোনো বিতর্কিত নেতা থাকেন খোঁজ-খবর নিয়ে তাদেরকেও বাদ দিতে ছাত্রলীগ সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককে নির্দেশ দেন প্রধানমন্ত্রী।
এরপর বুধবার রাতে এক সংবাদ সম্মেলন করে ১৭ জন নেতাকে বিতর্কিত উল্লেখ করে একটি তালিকা প্রকাশ করে ছাত্রলীগ সভাপতি শোভন ও সাধারণ সম্পাদক রাব্বানী। শোভনের বিরুদ্ধে বিবাহিত থাকার অভিযোগের বিষয়ে তিনি বলেন, বিয়ে করতে নিষেধ আছে কিন্তু গার্ল ফ্রেন্ড থাকাতে তো কোন নিষেধ নাই। রাব্বানীর বিরুদ্ধে মাদক গ্রহণের অভিযোগের বিষয়ে তিনি বলেন, আমি অনেকবার রক্ত দিয়েছি। এজন্য পুরষ্কারও পেয়েছি। যদি মাদকসেবী হতাম তাহলে রক্ত দিতে পারতাম না।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ছাত্রলীগ


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ