Inqilab Logo

ঢাকা, রোববার ১৬ জুন ২০১৯, ২ আষাঢ় ১৪২৬, ১২ শাওয়াল ১৪৪০ হিজরী।

চাটমোহরের হরিপুর দূর্গাদাস স্কুল এন্ড কলেজের লাইব্রেরিয়ান ছুরিকাঘাতে আহত

চাটমোহর (পাবনা) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১৯ মে, ২০১৯, ১০:০৫ এএম

পাবনার চাটমোহরের হরিপুর দূর্গাদাস স্কুল এন্ড কলেজের লাইব্রেরিয়ান আবু হানিফ (৪৮) নামে এক ব্যক্তি ছুরিকাঘাতে আহত। তিনি হরিপুর চূর্ণকার পাড়ার মো: নাজমূল হোসেনের ছেলে। শনিবার রাত ৯টার দিকে তারাবি নামাজ পড়ে বাড়ি ফেরার পথে অজ্ঞাত ব্যক্তির ছুরিকাঘাতে তিনি আহত হয়েছেন। এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে হাফিজ উদ্দিন ওরফে কানা হাফিজ নামের একজনকে আটক করেছে পুলিশ। সে হরিপুর মৃধাপাড়া গ্রামের খুজি প্রামানিকের ছেলে। আহত ওই ব্যক্তির বরাত দিয়ে স্থানীয়রা জানান, শনিবার রাত ৯টার দিকে হরিপুর বাজার মসজিদে তারাবি নামাজ পড়ে বাড়ি ফিরছিলেন আবু হানিফ। বাড়ির গেটে পৌঁছামাত্র আগে থেকে ওঁৎ’ পেতে থাকা অজ্ঞাত এক ব্যক্তি এ সময় আবু হানিফের বুকে ছুরিকাঘাত করে পালিয়ে যায়। এতে তিনি বুকের ডান দিকে আঘাত পান। পরে তার চিৎকারে স্থানীয়রা এসে তাকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে চাটমোহর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসেন। সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে উন্নত চিকিৎসার জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করেন কর্তব্যরত চিকিৎসক। এদিকে ঘটনার খবর পেয়ে হাসপাতালে আহত আবু হানিফকে দেখতে যান সহকারী পুলিশ সুপার (চাটমোহর সার্কেল) সজীব শাহরীন, ওসি সেখ মো. নাসীর উদ্দিন। চাটমোহর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে উন্নত চিকিৎসার জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করা হয়েছে। ঘটনার ব্যাপারে চাটমোহর থানার ওসি সেখ নাসীর উদ্দিন বলেন, হাফিজ উদ্দিন ওরফে কানা হাফিজ নামের একজনকে আটক করা হয়েছে। লিখিত অভিযোগ পাওয়ার পর তার বিরুদ্ধে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: ছুরিকাঘাত

২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৬

আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ