Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার ২০ জুন ২০১৯, ৬ আষাঢ় ১৪২৬, ১৬ শাওয়াল ১৪৪০ হিজরী।

ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ আরেকটা ম্যাচের মতই -কোহলি

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ২৪ মে, ২০১৯, ৮:১৫ পিএম

আর মাত্র পাঁচ দিন বাকি। বিশ্বকাপ আয়োজনের সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে ইংল্যান্ড ও ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ড। অংশগ্রহণকারী দেশগুলো ইতিমধ্যে সেখানে পৌঁছে প্রস্তুতি শুরু করেছে। পাকিস্তান দল আগেই ইংল্যান্ডে পৌঁছে ইংলিংশদের সাথে পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ দিয়ে নিজেদের ঝালিয়ে নিয়েছে। আর আইপিএল শেষ করে সোজা ইংল্যান্ডে পাড়ি জমিয়েছে ভারতীয় দল।
বিশ্বকাপে ভারত পাকিস্তান মুখোমুখি হবে ১৬ জুন। ম্যাচটি নিয়ে উত্তেজনার শুরু হয়েছে বিশ্বকাপের সময়সূচী প্রকাশ করার পর থেকেই। দু’দেশের মধ্যকার বিরাজমান খারাপ সম্পর্কের কারণে এই ম্যাচটি কেবল একটি ক্রিকেট ম্যাচ হয়েই থেমে থাকে না। এর থেকেও বড় কিছুতে পরিণত হয়। বিশ্বকাপের আগেই এই ম্যাচকে ঘিরে নানান বিতর্কের জন্ম দেন ভারতের অনেক রাজনৈতিক নেতারা এমনকি সাবেক খেলোয়াড়রাও। তারা বলেই ফেলেছিলেন বিশ্বকাপে পাকিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচ বয়কট করা উচিৎ ভারতের। এবং একটা সময় বেশ জোরালো দাবীও উঠেছিল বিশ্বকাপে পাকিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচ থেকে কোহলিরা যেন নিজেদের নাম প্রত্যাহার করে নেয়।
তবে তা হয়নি, আইসিসির কড়া নির্দেশ ছিল এমনটা করলে বিশ্বকাপ থেকেই বহিষ্কৃত হতে হবে ভারতকে। ইংল্যান্ডে পৌঁছে বিশ্বকাপ পূর্ব অনুষ্ঠানে একসাথে উপস্থিত সকল দেশের অধিনায়করা। আর সংবাদমাধ্যম কর্মীরা হাতছাড়া করেননি এই সুযোগে ভারত পাকিস্তান ম্যাচ নিয়ে প্রশ্ন তুলতে।
ভারতীয় অধিনায়ক বিরাট কোহলি এবং পাকিস্তানের অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদকে সাংবাদিকরা ছুঁড়ে দিয়েছিলেন একই প্রশ্ন, ‘কী ভাবছেন এমন উত্তেজনাকর একটি ম্যাচ নিয়ে?’ জবাবে কোহলি বলেন, ‘আমি জানি, এই ম্যাচটার দিকে ক্রিকেট বিশ্ব অধীর আগ্রহে তাকিয়ে থাকে। এই ম্যাচ নিয়ে এক জন ক্রিকেটার এবং এক জন ক্রিকেট ভক্তের দৃষ্টিভঙ্গি সম্পূর্ণ আলাদা।’ তিনি আরও বলেন, ‘মানছি, ভারত-পাকিস্তান ম্যাচে স্টেডিয়ামের পরিবেশটা উত্তেজনায় অন্য রকম হওয়ার কারণে বাড়তি চাপের সৃষ্টি হয়। তবে সেটা মাঠে নামার আগে পর্যন্ত। খেলা শুরু হয়ে গেলে এটা বাকি ম্যাচগুলোর মতোই মনে হয়।’
আর পাকিস্তান অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদ কোহলির কথার সাথেই তাল মিলিয়ে বলেছেন, ‘আমারও এর থেকে বেশি কিছু বলার নেই। তবে আমরা এবারের বিশ্বকাপে ভাল করার বিষয়ে আশাবাদী।’
ক্রিকেটের মহারণে ফাইনালের আগে আর এক ফাইনাল ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ। যা কেবল মাঠের মধ্যেই সীমাবদ্ধ থাকে না। যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে দুই দেশের সমর্থকদের মধ্যে।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বিশ্বকাপ ক্রিকেট


আরও
আরও পড়ুন