Inqilab Logo

ঢাকা, বৃহস্পতিবার ২০ জুন ২০১৯, ৬ আষাঢ় ১৪২৬, ১৬ শাওয়াল ১৪৪০ হিজরী।

‘১০-১৫ বছর পরে দেশ বিদেশিদের হাতে চলে যাবে’

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২৬ মে, ২০১৯, ১২:৩৯ এএম

সরকার যেভাবে ঋণ করছে তাতে আগামী ১০-১৫ বছর পরে দেশ বিদেশিদের হাতে চলে যাবে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য আব্দুস সালাম। তিনি বলেন, রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র করা হচ্ছে। এ বিদ্যুৎকেন্দ্র থেকে মানুষ কতটুকু বিদ্যুৎ পাবে তা তাদের দুর্নীতি দেখে বুঝা গেছে। যে বিদ্যুৎকেন্দ্রে আবাসিকে একটি বালিশ উঠাতে এক হাজারের মত টাকা খরচ হয়, সেই বিদ্যুৎকেন্দ্রের বিদ্যুৎ তো সাধারণ মানুষ পাবে না। এটা করা হচ্ছে সরকারের কিছু লোকদের পেট ভরানোর জন্য। সরকার জনগণকে ভালোবাসে না। সে ভালোবাসে টাকা আর ক্ষমতা। যার কারণে মেগা প্রজেক্ট নিয়ে আসে ঋণ করে। আর সেই প্রজেক্টের টাকা দুর্নীতি করে খেয়ে ফেলে। সরকার যেভাবে ঋণ করছে তাতে ১০/১৫ বছর পরে দেশ বিদেশিদের হাতে চলে যাবে। গতকাল (শনিবার) জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে জাতীয়তাবাদী চালক দলের উদ্যোগে রূপপুর পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রের দুর্নীতির প্রতিবাদে আয়োজিত মানববন্ধনে তিনি এসব কথা বলেন।
এখন সবক্ষেত্রে দুর্নীতি হচ্ছে অভিযোগ আব্দুস সালাম বলেন, দেশের প্রতিটি জায়গায়, প্রত্যেক খাতে সরকার দুর্নীতি করছে। এ সরকার পদ্মা সেতুর কাজ শুরুর সময় বলেছিল ১০ হাজার কোটি টাকা খরচ হবে, এখন ৪০ হাজার কোটি টাকার বেশি চলে গেছে। তাহলে কতটুকু দুর্নীতি করেছে? দেশের জনগণ একটু ভাবুন। যে কাজটি চীনের করতে লাগে ১০ টাকা, ভারতের লাগে ১৩ টাকা সেই কাজ বাংলাদেশে করতে লাগে ৫০ টাকা। আওয়ামী লীগের মন্ত্রী কেন বলে তারা বা সরকার সরাসরি কৃষকের কাছ থেকে ধান কিনতে পারবে না। এর কারণ হলো মন্ত্রীই ব্যবসায়ীদের দিয়ে ধান কিনে সেই ধান সরকারের কাছে বিক্রি করে সুবিধা নিবে। সরকার দেশের জনগণকে ভালোবাসে না। ভালোবাসে ক্ষমতা আর টাকা। যার জন্য এমন কোনো খাত নেই যেখানে সরকারের দুর্নীতি নেই।
আয়োজক সংগঠনের সভাপতি মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন কবিরের সভাপতিত্বে মানববন্ধনে আরও উপস্থিত ছিলেন বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য হাবিবুর রহমান হাবিব, কৃষক দলের সদস্য দেশ বাঁচাও মানুষ বাঁচাও আন্দোলনের সভাপতি কে এম রকিবুল ইসলাম রিপন, সংগঠনের সহ-সভাপতি শাফিন আহমেদ লিখুন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ফজলে কবির সাগর, সংগঠনের নেতা মনির মৃধা প্রমূখ।#



 

Show all comments
  • Miah Muhammad Adel ২৬ মে, ২০১৯, ১০:৫১ এএম says : 0
    It is not bad if you earn money, but as a Muslim, it is important to use the halal ways of making money and avoiding haram. Prophet Muhammad (pbuh) and his companions are the perfect example for it. Almighty Allah has said: Ó O ye who believe! Eat of the good things that We have provided for you, and be grateful to Allah, if it is Him ye worship.Ó ( Quran 2:172 ) 1 ÒAllah commands His believing servants to eat from the pure things that He has created for them and to thank Him for it, if they are truly His servantsÓ ( Ibn Kathir ) 2 Again Allah says in the Quran ÒO ye apostles! Enjoy (all) things good and pure, and work righteousness: for I am well-acquainted with (all) that ye do. 3 1 Surah Baqarah 2:172 2 Tafsir Ibn Kathir [surah Baqarah 2:172] 1 Surah Muminun 23:51
    Total Reply(0) Reply
  • মোঃ হারুন ২৬ মে, ২০১৯, ৮:৩৯ এএম says : 0
    এই হায়েনাদের স্বর্গে/রাজৈজ্য সত্য বললে গুম/হত্যা হওয়ার সম্ভাবনা বেশি !!
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ