Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার , ০৯ ডিসেম্বর ২০১৯, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ১১ রবিউস সানি ১৪৪১ হিজরী

বিরলের সীঁমান্তে বিএসএফ এর গুলিতে ১ বাংলাদেশী, আহত ২

বিরল (দিনাজপুর) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৬ মে, ২০১৯, ১:৪০ পিএম

দিনাজপুরের বিরলে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফ এর গুলিতে এক বাংলাদেশী নাগরিকের মৃত্যু হয়েছে। নিহত ব্যাক্তি কামদেবপুর ঈদগা বস্তি এলাকার মোশা হক আলী অরফে মসবুলের পুত্র আলম (৪০)। এ ঘটনায় আলমের সহযোগী আরোও ২ ব্যক্তি আহত হয়েছে বলে জানা গেছে।
জানা গেছে , গত শনিবার দিবাগত রাত ৩ টার দিকে উপজেলার ধর্ম্মজইন সীঁমান্ত ফাঁড়ির ধর্ম্মজইন কাড়োলিয়া পাড়া মহুয়াতলা এলাকায় সীঁমান্ত পিলার নং ৩২০/১০এস এর ভারতের ৫০ গজ অভ্যন্তরে বাংলাদেশী নাগরিকরা প্রবেশ করলে
ভারতীয় বিএসএফ তাদেও লক্ষ্য করে গুলি ছোঁড়ে। এতে বাম কাঁধে গুলি বিদ্ধ হয়ে ঘটনাস্থলেই আলম মারা যায় এবং পরিবারের লোকজন রাতেই তার লাশ বাড়ীতে নিয়ে আসে। এসময় অপর ২ সহযোগী একই ইউপি’র পূর্ব বনগাঁও গ্রামের আব্দুল মান্নানের পুত্র ইরফার (৩০) এবং ক্যাম্পপাড়া গ্রামের লুৎফর রহমান ভোগার পুত্র সোহেল (২৮) গুলি বিদ্ধ হয়ে আহত হয়। আহতরা গোপনে চিকিৎসা নিচ্ছে বলে একটি বিশ্বস্তসূত্র জানিয়েছে।
বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) কুঠিবাড়ী ৪২ ব্যাটালিয়ন কম্পানীর অধিনায়ক (সিও) গাজী নাহিদুজ্জামান (পিএসসি) বিষিয়টি নিশ্চিত করে জানান, আমি খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। ধর্ম্মজইন ও এনায়েতপুর সীঁমান্তের মাঝামাঝি এলাকার মেইন পিলার নং ৩২০ এর সাব পিলার নং ১০ এস এর নিকট ভারতীয় সীমান্তের ৫০ গজ অভ্যন্তরে একটি খোড়ের পোয়ালের নিকট এ ঘটনাটি ঘটেছে। ঘটনাস্থলে আমরা তাজা রক্ত ও ৩ জোড়া স্যান্ডেল দেখতে পেয়েছি। তারা কেন বা কি কারণে রাতের বেলা ভারতীয় সীঁমান্তের অভ্যন্তরে প্রবেশ করছিল সে বিষয়টি আমরা খতিয়ে দেখছি। আহতদের নাম ইরফান (৩০) ও সোহেল (২৮) এবং ঠিকানা পেয়েছি। তবে তারা কথায় আছে বা চিকিৎস্যা নিচ্ছে সে বিষয়টি এখন পর্যন্ত সঠিক ভাবে জানতে পারিনি। আমরা ঘটনার বিষয় বিএসএফ’র সাথে রবিবার সকালে পতাকা বৈঠক করে প্রতিবাদ জানিয়েছি।
বিরল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এটিএম গোলাম রসূল জানান, ভারতের অভ্যন্তরে ঘটনাটি ঘটেছে। আমি লাশ উদ্ধার পূর্বক লারশের সুরতহাল করে ময়না তদন্তের জন্য লাশ দিনাজপুর এম, আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজের মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে। তিনি জানান, বিএসএফ এর গুলিতে নিহত আলম, আহত ইরফান ও সোহেলের বিরুদ্ধে থানায় একাধিক মাদকের মামলা আছে। আহতরা কথায় চিকিৎস্যা নিচ্ছে সে বিষয়টিরও খোঁজ খবর নেওয়া হচ্ছে।
এলাকাবাসী জানিয়েছেন, নিহত আলম এবং আহত ইরফান ও সোহেল এলাকায় কুখ্যাত মাদক ব্যকসায়ী হিসাবে পরিচিত।
আহতদের পরিবারের লোকজন জানান, বিএসএফ’র গুলিতে আহত ইরফান ও সোহেল ঘটনার পর থেকে নিখোঁজ রয়েছে।



 

Show all comments
  • Sanjina Nowab Sarnonki ২৬ মে, ২০১৯, ২:২৭ পিএম says : 0
    সীমান্তে আর কত লাশ পড়লে আমাদের রাষ্ট্রপ্রধানের হুশ ফিরবে। আর বিজিবি কে শুধু পতাকা বৈঠক করার জন্য রাখা হয়েছে কিনা জানতে চাই-------
    Total Reply(0) Reply

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: বিএসএফের গুলিতে নিহত


আরও
আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ