Inqilab Logo

ঢাকা, সোমবার ২৪ জুন ২০১৯, ১০ আষাঢ় ১৪২৬, ২০ শাওয়াল ১৪৪০ হিজরী।

চৌদ্দগ্রামে মসজিদের পরিচালনা নিয়ে বিরোধের জের ধরে হামলা-ভাংচুর

চৌদ্দগ্রাম (কুমিল্লা) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৬ মে, ২০১৯, ৩:২৬ পিএম

কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে মসজিদ পরিচালনা ও উন্নয়ন সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে হামলা-ভাংচুর চালিয়ে নগদ ১০ লাখ টাকা লুটে নেয়াসহ অন্তত বিশ লাখ টাকা মুল্যের মালামালের ক্ষতি সাধন করেছে প্রতিপক্ষের লোকজন। উপজেলার চিওড়া ইউনিয়নের কবরুয়া গ্রামে শনিবার রাতে এ বর্বরোচিত হামলার ঘটনা ঘটে। রোববার দুপুরে সরেজমিন পরিদর্শন করে এর সত্যতা পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় ভুক্তভোগী ব্যবসায়ী অহিদুর রহমান টিপু বাদি হয়ে কবরুয়া গ্রামের জয়নাল আবেদীনের ছেলে আবদুর রহিম, মোঃ মামুন, মৃত হানিফ মাস্টারের ছেলে খালেদ বিন হানিফ, মীর হোসেনের ছেলে মানিক মিয়া ও আবদুল মান্নানের ছেলে মোঃ হোসাইনকে আসামী করে থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।
সরেজমিন পরিদর্শন ও থানায় দায়েরকৃত ব্যবসায়ী অহিদুর রহমান টিপুর অভিযোগে জানা গেছে, দীর্ঘদিন ধরে কবরুয়া জামে মসজিদ পরিচালনা ও উন্নয়ন সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে কমিটির সহ-সভাপতি ও ভারপ্রাপ্ত ক্যাশিয়ার খালেদ বিন হানিফের সাথে টিপুর বিরোধ চলছিল। এরই জের ধরে শনিবার সন্ধ্যা সাড়ে সাতটায় কবরুয়া মসজিদের পাশে খালেদ বিন হানিফের নেতৃত্বে বিপুল সংখ্যক সন্ত্রাসী দেশীয় অস্ত্রসস্ত্র নিয়ে টিপুর পথরোধ করে। সন্ত্রাসীরা টিপুকে মারধর শেষে তাঁর ব্যবহৃত মোটর সাইকেলটি ছিনিয়ে নেয়। এরপর সন্ত্রাসীরা টিপুর বাড়ির ভাউন্ডারীর বৈদ্যুতিক লাইট, গেইট, সিসি ক্যামেরা, দরজা-জানালা ভাংচুর চালায় এবং ঘরে থাকা নারীদের অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে। সন্ত্রাসীরা কবরুয়া গ্রামে অবস্থিত ফেনীর জর্জ কোর্টের কর্মকর্তা আশিকুর রহমানের বাড়িঘরে হামলা ও ভাংচুর চালিয়ে তছনছ করে। তারা পেট্রল বোমা নিক্ষেপসহ ঘরের ভিতরে থাকা সব আসবাবপত্র ভাংচুর করায় পরিবারের সদস্যরা কোন কিছুই ব্যবহার করতে পারছে না। পরবর্তীতে সন্ত্রাসীরা ধোড়করা বাজারস্থ টিপুর মালিকানাধীন লন্ডন ইন্টারন্যাশনাল ট্রাভেল এন্ড ট্যুরস্ নামক প্রতিষ্ঠানে হামলার করে ভিতরে থাকা ভিসা প্রসেসিং ও আনুসাঙ্গিক বাবদ নগদ ১০ লাখ টাকা নিয়ে এবং আসবাবপত্র ভাংচুর করে। এ ঘটনায় ব্যবসায়ী বাদি হয়ে সন্ত্রাসী আবদুর রহিম, মামুন, হানিফ, মানিক মিয়া ও হোসাইনকে আসামী করে থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

আরও পড়ুন
এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ