Inqilab Logo

ঢাকা, শুক্রবার ১৯ জুলাই ২০১৯, ০৪ শ্রাবণ ১৪২৬, ১৫ যিলক্বদ ১৪৪০ হিজরী।

আশুলিয়ায় গণধর্ষণের ঘটনায় সৎ বাবাসহ আটক ৫

আশুলিয়া সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৭ মে, ২০১৯, ৪:৩৪ পিএম

ঢাকা জেলার সাভার উপজেলার আশুলিয়ার কাঠগড়া এলাকায় গৃহবধূকে গণধর্ষণের ঘটনায় সৎ বাবাসহ পাঁচ জনকে আটক করেছে পুলিশ।
আজ সোমবার দুপুরে আশুলিয়া থানার ওসি (তদন্ত) জাবেদ মাসুদ এ বিষয়টি নিশ্চিত করেন।
এর আগে সকালে আশুলিয়ার বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়।
আটকরা হলেন-পিরোজপুর জেলার ভান্ডারিয়া থানার চরখালী গ্রামের মৃত জব্বার হাওলাদারের ছেলে মো. সজিব হাওলাদার (২৮), রংপুর জেলার কাওনিয়া থানার গদাই গ্রামের ওসমান শেখের ছেলে মামুন ইসলাম (২২), বরিশাল জেলার কোতায়ালি থানার হিজলা গ্রামের গগন আলীর ছেলে নুরে আলম (২৫), গাইবান্ধা জেলার পলাশবাড়ি থানার হরিনাথপুর গ্রামের মো. আমিরুল ইসলামের ছেলে হাবিব (২০)। এছাড়া সৎ বাবা তাইজুল ইসলাম (৪০)। তার বাড়ি গাইবান্ধা জেলার সাদুল্লাহপুর থানার পশ্চিমখামার গ্রামে।
মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, গত ২৫ মে (শনিবার) দুপুরে খালার অসুস্থতার কথা শুনে কাঠগড়ার নিজ বাসা থেকে জিরাবো যায় ওই গৃহবধূ। ফেরার পথে সৎ বাবা তাইজুল ইসলাম ও খালার বাসার কেয়ার টেকার সজিব তাকে কৌশলে সিএনজিতে তুলে দেন। পরে ইয়ারপুর এলাকার একটি পরিত্যক্ত বাড়িতে নিয়ে যাওয়া হয় তাকে। এর আগে সেই বাড়িটিতে অবস্থান নিয়ে থাকে মামুন ইসলাম, নুর আলম ও হাবিব। সেখানে পালা ক্রমে তাকে ধর্ষণ করা হয়।
এ ঘটনায় গতকাল রোববার বিকেলে আশুলিয়া থানায় অভিযোগ করলে আজ সোমবার সকালে আশুলিয়ার বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে নির্যাতিতার সৎ বাবাসহ পাঁচ জনকে আটক করে পুলিশ।
ওসি জাবেদ মাসুদ বলেন, অভিযোগ পাওয়ার পর আশুলিয়ার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়। পরে এ ঘটনায় মামলা দায়েরের পর আসামিদের আদালতে পাঠানো হয়। স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য নির্যাতিতাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস (ওসিসি) সেন্টারে পাঠানো হয়েছে বলে জানান তিনি।



 

দৈনিক ইনকিলাব সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো। কর্তৃপক্ষ যেকোনো ধরণের আপত্তিকর মন্তব্য মডারেশনের ক্ষমতা রাখেন।

ঘটনাপ্রবাহ: গণধর্ষণ


আরও
আরও পড়ুন